বাড়ি > বায়োস্কোপ > বাসের পর এবার বিমান: কেরল থেকে ১৬৭ জন মহিলা শ্রমিককে ওড়িশা ফেরালেন সোনু সুদ
সেলাম সোনু সুদ! বলছেন নেটিজেনরা 
সেলাম সোনু সুদ! বলছেন নেটিজেনরা 

বাসের পর এবার বিমান: কেরল থেকে ১৬৭ জন মহিলা শ্রমিককে ওড়িশা ফেরালেন সোনু সুদ

  • ট্রেন নেই কিন্তু সোনু সুদ রয়েছেন! কেরালা থেকে পরিযায়ী মহিলা শ্রমিকদের বিশেষ বিমানে শুক্রবার ওড়িশায় ফেরালেন সুপারম্যান সোনু সুদ।

প্রতিদিনই দেশবাসীকে চমকে দিচ্ছেন সোনু সুদ। এখন ইন্ডিয়ার প্রকৃত সুপারম্যান এই বলিউড তারকা। আগেই নিজের প্রচেষ্টায় ১২ হাজারেরও বেশি পরিযায়ী শ্রমিককে ঘরে ফিরিয়েছেন এই তারকা। এবার কেরলে আটকে পড়া ১৬৭ জন মহিলা পরিযায়ী শ্রমিককে উদ্ধার করলেন সোনু। সোনু সুদের কাছে সাহায্য চাইলে কাউকেই খালি হাতে ফেরাচ্ছেন না অভিনেতা। অভিনেতার প্রশংসায় পঞ্চমুখ মন্ত্রী থেকে আম জনতা।

কেরালার এরনাকুলামে আটকে ছিলেন সেলাইয়ের কাজে যুক্ত ওড়িশার ১৬৭ মহিলা শ্রমিক। করোনা লকডাউনে ফ্যাক্টরি তালাবন্ধ হওয়ার পর তাঁদের যাওয়ার কোনও জায়গাই ছিল না। এই রুটে কোনরকম বিশেষ ট্রেন চলছে না পরিযায়ী শ্রমিকদের জন্য তা ভালোভাবেই জানেন সোনু সুদ। তাই বিমান ছাড়া অপর কোনও রাস্তায়ই ছিল না এতটা দীর্ঘ পথ ওই মহিলা পরিযায়ী শ্রমিকদের ফেরানোর, তাই বিমানের বন্দোবস্ত।
  ‘আমি ওঁদের কথা সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে জানতে পারি, আমার বন্ধু নীতি গোহেল এবং আমি ওঁদের সঙ্গে যোগাযোগ করি। ওঁদের ফেরানোর একমাত্র রাস্তা ছিল বিমান’। নিউজ এইন্টিন নেটওয়ার্ককে জানিয়েছেন অভিনেতা। 

তবে করোনার জেরে দেশের একাধিক বিমানবন্দরে প্যাসেঞ্জার ফ্লাইট বন্ধ রয়েছে। তবে প্রশাসনের তরফে অনুমতি নিয়ে কোচি ও ভূবনেশ্বর বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষের সঙ্গে কথা বলে সেই ১৬৭ জন মহিলা শ্রমিককে নিরাপদে তাঁদের ঘরে ফেরালেন সোনু সুদ। 

শুক্রবার সকাল ৮টায় এয়ার এশিয়ার বিশেষ বিমান ওই ১৬৭ জন মহিলা শ্রমিককে নিয়ে কোচি থেকে ভূবনেশ্বের উদ্দেশ্যে রওনা দেয়। ভূবনেশ্বর থেকে তাঁদের বাড়ি কেন্দারাপাড়ায় যাওয়ার যাবতীয় ব্যবস্থাও করেন সোনু সুদ। 

বিভিন্ন রাজ্যের সহায়তা নিয়ে  হাজার হাজার পরিযায়ী শ্রমিককে সুরক্ষিতভাবে ঘরে ফেরাচ্ছেন সোনু সুদ,সংখ্যাটা প্রতিদিন বাড়ছে কাতারে কাতারে। শুধু যাতায়াতই নয় পথে তাঁদের খাবার জল সবকিছুর ব্যবস্থা করছেন অভিনেতা। গোটা প্রক্রিয়ার তদারকিও করছেন নিজে দাঁড়িয়ে থেকে। সোনু সুদ দৃঢ় প্রতিজ্ঞ দেশের প্রতিটি পরিযায়ী শ্রমিক ঘরে ফেরা না অবধি ক্ষান্ত হবেন না তিনি! তাঁর এই উদ্যোগের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি, পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং, অভিনেতা অজয় দেবগণ সহ বহু ব্যক্তিত্ব।

বন্ধ করুন