বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > কেকে-বিতর্কের জেরে গান-চুক্তি বাতিল? কেরিয়ারে ক্ষতি? মুখ খুললেন রূপঙ্কর
বিতর্ক নিয়ে মুখ খুললেন রূপঙ্কর।

কেকে-বিতর্কের জেরে গান-চুক্তি বাতিল? কেরিয়ারে ক্ষতি? মুখ খুললেন রূপঙ্কর

  • হিন্দুস্তান টাইমস বাংলাকে রূপঙ্কর জানালেন, তাঁর গান ছবি থেকে বাদ পড়েছে ঠিকই। কিন্তু কেকে-বিতর্কের সঙ্গে বিষয়টির আদৌ কোনও যোগ নেই।

বাংলা ছবি 'প্রথম বারে প্রথম দেখা'-য় গান গেয়েছিলেন রূপঙ্কর বাগচি। কিন্তু সম্পাদনার সময়েই ছবি থেকে বাদ পড়ে যায় জাতীয় পুরস্কার প্রাপ্তি গায়কের গাওয়া গান। তাঁর পরিবর্তে গানটি নতুন করে গেয়েছেন অরিজিৎ পাল।

এই খবর প্রকাশ্যে আসতেই শুরু যাবতীয় জল্পনা। মনে করা হয়েছিল, প্রয়াত গায়ক কেকে-কে নিয়ে রূপঙ্করের বিতর্কিত মন্তব্যের জেরেই নির্মাতাদের এমন পদক্ষেপ।

সত্যিই কি তাই?

হিন্দুস্তান টাইমস বাংলাকে রূপঙ্কর জানালেন, তাঁর গান ছবি থেকে বাদ পড়েছে ঠিকই। কিন্তু কেকে-বিতর্কের সঙ্গে বিষয়টির আদৌ কোনও যোগ নেই। গায়কের কথায়, 'অল্প বয়সী নায়কের সঙ্গে আমার গলা ঠিক মিলছিল না। তাই গানটি ছবিতে রাখা যায়নি। এর বেশি আর কিছুই না।'

একই সুরে কথা বলেছেন ছবির প্রযোজক আকাশ মালাকার। কেকের মৃত্যুর ঠিক পরেই রূপঙ্করের গান বাদ পড়ার খবর প্রকাশ্যে আসে ঠিকই। তবে তা নাকি নেহাতই কাকতালীয়। তিনি বললেন, 'রূপঙ্করদার গানটি প্রথমে আমরা ব্যাকগ্রউন্ডে চালাব বলে ভেবেছিলাম। কিন্তু দেখা গেল, নায়কের লিপে গানটি দেওয়া প্রয়োজন। অল্পবয়সী নায়কের সঙ্গে রূপঙ্করদার গলা ঠিক খাপ খাচ্ছিল না। তাই এই সিদ্ধান্ত। কিন্তু বিতর্ক যখন তুঙ্গে, তখনই খবরটা জানাজানি হল।'

এখানেই শেষ নয়। রটে যায়, রূপঙ্করের সঙ্গে চুক্তি বাতিল হতে পারে নামী কেক প্রস্তুতকারী এক সংস্থার। এই মর্মে একাধিক প্রতিবেদনও প্রকাশিত হয়। চলতে থাকে চর্চা। সেই সংস্থার তরফে জানানো হয়, তাদের জন্য রূপঙ্করের গাওয়া 'জিঙ্গল' নিয়ে যথাসময়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত গায়ক যদিও বলেন, 'সেই কেক প্রস্তুতকারী সংস্থার আমার কোনও দিনই কোনও চুক্তি ছিল না। ওদের জন্য দু'টি গান গেয়েছিলাম। টাকা পেয়েছিলাম। বিষয়টি সেখানেই মিটে গিয়েছিল।'

আপাতত নেটমাধ্যম থেকে দূরে রূপঙ্কর। মানসিক চাপ কাটেনি পুরোপুরি। তাই সময় দিচ্ছেন নিজেকে।

 

বন্ধ করুন