বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > '৮৩' দেখে আপ্লুত সচিন, দরাজ গলায় প্রশংসা রণবীরের ‘অল রাউন্ড’ পারফর্মেন্সের
সচিন তেন্ডুলকর এবং রণবীর সিং। (ছবি সৌজন্যে - ফেসবুক)
সচিন তেন্ডুলকর এবং রণবীর সিং। (ছবি সৌজন্যে - ফেসবুক)

'৮৩' দেখে আপ্লুত সচিন, দরাজ গলায় প্রশংসা রণবীরের ‘অল রাউন্ড’ পারফর্মেন্সের

  • এবার '৮৩'র প্রশংসার পাশাপাশি রণবীর সিংয়ের অভিনয়েরও দিলখোলা তারিফ করলেন সচিন তেন্ডুলকর।

ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রথম বিশ্বকাপ জয়ের সোনালি ইতিহাস উঠে এসেছে পরিচালক কবীর খানের '৮৩' ছবিতে। বিগ স্ক্রিনে ফুটে উঠেছে ভারতীয় ক্রিকেট দলের প্রথম বিশ্বকাপ জয়ের শিহরণ জাগানো গল্প। ১৯৮৩ সালে ইংল্যান্ডে ক্রিকেটের বিশ্বকাপ জয়ের ১৭ দিনের সেই কাহিনিই আড়াই ঘন্টায় রুপোলি পর্দায় তুলে ধরেছেন পরিচালক কবীর খান। '৮৩' ছবিতে কপিল দেবের ভূমিকায় দেখা গেছে রণবীরের সিং-কে। ছবিতে নিজের দুরন্ত পারফর্মেন্সের সুবাদে ছবি সমালোচকদের বিস্তর প্রশংসা কুড়িয়েছেন রণবীর। এবার '৮৩'র প্রশংসার পাশাপাশি রণবীর সিংয়ের অভিনয়েরও দিলখোলা তারিফ করলেন সচিন তেন্ডুলকর।

টুইট করে এই ছবি দেখে তাঁর ভালো লাগার কথা খোলাখুলি জানিয়েছেন 'মাস্টার ব্লাস্টার'। একইসঙ্গে ছবিতে কপিলরূপী রণবীরের ‘অল রাউন্ড’ পারফর্মেন্স এর জমিয়ে তারিফ করেছেন সচিন।সঙ্গে তাঁর 'কপিল দেব পাঁজী'র উদ্দেশেও ভালোবাসার বার্তা পাঠাতেও এতটুকুও ভোলেননি এই ক্রিকেটীয় কিংবদন্তি।স্বয়ং 'লিটল মাস্টার'এর তরফে এহেন তারিফ পেয়ে যে আপ্লুত হবেন রণবীর, এ আর নতুন কী। তবে আনন্দে আত্মহারা হয়েও পাল্টা সৌজন্যবোধ দেখাতে ভোলেননি এই বলি-তারকা। সচিন্তের টুইটটি ঋতুতে করে পাল্টা 'মাস্টার'কে ধন্যবাদ জানিয়েছেন রণবীর।

প্রসঙ্গত, সমালোচকদের দারুণ লাগলেও বক্স অফিসে চোখধাঁধানো ম্যাজিক দেখতে ব্যর্থ হয়েছে এই ছবি। করোনার জেরে দিল্লিতে আগেই তালাবন্ধ হয়েছে সিনেমা হল। মুম্বই সহ দেশের আরও বিভিন্ন রাজ্যেও শুরু হয়েছে জোর কড়াকড়ি। এর জেরেও খানিকটা ক্ষতির মুখে পড়েছে এই ছবি। এককথায়, থিয়েটারে সজোরে ওভার বাউন্ডারি হাঁকাতে ব্যর্থই হয়েছে রণবীর-দীপিকার এই ছবি।

বন্ধ করুন