বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > আসছে সৌরভ শুক্লার বাংলা ছবি 'চং চং', সঙ্গী হবে প্রিয়াঙ্কা-সোহম
'চং চং' ছবির সুবাদে প্রথমবার স্ক্রিন স্পেস শেয়ার করবেন সৌরভ শুক্ল এবং প্রিয়াঙ্কা সরকার। (ছবি সৌজন্যে- হিন্দুস্তান টাইমস)
'চং চং' ছবির সুবাদে প্রথমবার স্ক্রিন স্পেস শেয়ার করবেন সৌরভ শুক্ল এবং প্রিয়াঙ্কা সরকার। (ছবি সৌজন্যে- হিন্দুস্তান টাইমস)

আসছে সৌরভ শুক্লার বাংলা ছবি 'চং চং', সঙ্গী হবে প্রিয়াঙ্কা-সোহম

  • ফের 'সাই ফাই' ছবি টলিউডে।সায়েন্স ফিকশনের সঙ্গে ডার্ক স্যাটায়ারও রয়েছে এ ছবিতে।পরিচালনার দায়িত্বে রয়েছেন রাহুল মুখোপাধ্যায়। ছবিতে মুখ্যভূমিকায় দেখা যাবে সৌরভ শুক্লা, প্রিয়াঙ্কা সরকার এবং সোহম মজুমদারকে।

'চং চং' এর খবর প্রকাশ্যে আসতেই নড়েচড়ে বসেছে বাংলা ছবিপ্রেমী দর্শকদের দল। একে টলিউডের সাই-ফাই ছবি তার ওপর টাইম ট্র্যাভেল থেকে শুরু করে সৌরভ শুক্লা। এই প্রথম বাংলা ছবিতে দেখা যাবে সৌরভ শুক্ল-কে। এর আগে ;বরফি', 'গুন্ডে'-এর মতো একাধিক হিন্দি ছবিতে বাঙালি চরিত্রে অভিনয় করলেও নিখাদ বাংলা ছবিতে কখনও দেখা যায়নি এই জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত অভিনেতাকে। তবে এবার যাবে। সৌজন্যে, এই 'চং চং'। উল্লেখ্য, কৌশিক গঙ্গোপাধ্যায়ের নির্দেশনায় 'মনোহর পান্ডে'-তে কাজ করার জন্য কয়েক মাস আগেই কলকাতা ও হাওড়ার বেশ কিছু অঞ্চলে শুটিং সেরে গেছিলেন তিনি। তবে সে ছবি হিন্দি ভাষায়। তাছাড়া বাংলার সঙ্গে একটা 'সম্পর্ক'-ও রয়েছে 'জলি এলএলবি' ছবির খ্যাত এই অভিনেতার। তিনি যে বাংলার জামাই। জোর গুঞ্জন, 'চং চং'-এ নাকি একজন অসম্ভব মেধাবী অথচ খানিক পাগলাটে বৈজ্ঞানিকের চরিত্রে দেখা যাবে এই বলি-অভিনেতাকে।

এ ছবি সায়েন্স ফিকশনের সঙ্গে ডার্ক স্যাটায়ারের মেলবন্ধন।রহস্য-রোমাঞ্চের ছোঁয়াও রয়েছে গল্পে। 'চং চং'-এ দুটি 'টাইম ফ্রেম'-কে দেখানো হবে। একটি ১৯৯৭ আরেকটি ২০২২ সাল।বাংলা ভাষায় সম্ভবত এমন ছবি আগে হয়নি। ছবির গল্পও লিখেছেন স্বয়ং পরিচালক।১৯৯৭ সালের কলকাতার সঙ্গে এখনকার কলকাতার যে বিস্তর ফারাক তাও নিজের মুখে স্বীকার করে নিলেন পরিচালক। তবুও দর্শককে নয় দশকের শেষভাগের কলকাতায় ফিরিয়ে যাওয়ার আপ্রাণ চেষ্টা করবেন পরিচালক রাহুল মুখোপাধ্যায়। তাঁর ' চং চং' ছবির মাধ্যমে।

ফোনের ওপার থেকে হিন্দুস্তান টাইমসকে রাহুল জানালেন ' নয়ের দশকের কলকাতা তখনও সাবালক হয়ে ওঠেনি। আমার নিজের যেহেতু বেড়ে ওঠা ওই সময়ে তাই দেখেছি যে মানুষের জীবন এখনকার তুলনায় সহজ ছিল অনেকটাই। মোবাইলের যুগ ছিল না সেটা। সম্পর্ক হতো স্পর্শে, মুখোমুখি কথায় আর হাসিতে। আমার ছবিতে সেসবও ফুটিয়ে তোলার চেষ্টা করব। সেই ভালোবাসাগুলোকেই চং চং-এ দেখাতে চাই। এটুকু বলতে পারি যাঁদের বড় হয়ে ওঠা ওই সময়টায় তাঁরা এই ছবি দেখলে যে নস্ট্যালজিয়ায় ভুগবেন, সে ব্যাপারে আমার কোনও সন্দেহ নেই!'

প্রিয়াঙ্কা সরকার ও সৌরভ শুক্ল ছাড়াও ছবিতে রয়েছেন 'কবীর সিং' খ্যাত অভিনেতা সোহম মজুমদার। রয়েছেন অনুরাধা মুখোপাধ্যায়ও।এই প্রথম পর্দায় জুটি বাঁধছেন প্রিয়াঙ্কা এবং সোহম। ছবিতে 'কাল্লু মামা'-র চরিত্রটি যে বেশ ইন্টারেষ্টিং তা জোর গলায় দাবি করলেও এর থেকে বেশি কিছু বলতে রাজি হননি পরিচালক। ছবি প্রযোজনার দায়িত্বে রয়েছেন 'জাতিস্মর' ছবি খ্যাত প্রযোজক রানা সরকার।‘চং-চং’-এর জন্য সঙ্গীতের দায়িত্ব বর্তেছে ‘তালপাতার সেপাই’-এর ওপর। অন্যদিকে, শ্রীজাত পরিচালিত প্রথম ছবি 'মানবজমিন'-এরও প্রযোজনার দায়িত্ব তিনি তুলে রয়েছেন। শোনা যাচ্ছে, প্রায় একইসময় দু'টি ছবির শুটিং শুরু হবে। ইতিমপধ্যেই 'চং চং'-এর জন্য রেকি সেরে ফেলেছেন পরিচালক ও তাঁর টিম। উল্লেখ্য, দেব- রুক্মিণী অভিনীত ‘কিশমিশ’ ছবির পরিচালনার দায়িত্বে ছিলেন রাহুল মুখোপাধ্যায়-ই।

 

বন্ধ করুন