বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > বলিউডের প্রস্তাব, যৌনতা, ড্রাগ-'ব্যাড বয়' ইমেজ এখানেও ধরে রাখতে চেয়েছিলেন ওয়ার্ন
মাত্র ৫২ বছর বয়সেই প্রয়াত হলেন শেন ওয়ার্ন। 

বলিউডের প্রস্তাব, যৌনতা, ড্রাগ-'ব্যাড বয়' ইমেজ এখানেও ধরে রাখতে চেয়েছিলেন ওয়ার্ন

  • জানেন কি বলিউডে থেকেও প্রস্তাব পেয়েছিলেন শেন ওয়ার্ন? 

কিংবদন্তি লেগ স্পিনার শেন ওয়ার্নের আকস্মিক প্রয়াণে শোকস্তব্ধ গোটা ক্রিকেট বিশ্ব। মাত্র ৫২ বছর বয়সেই ওয়ার্নের এমন পরিণতি বিশ্বাস করতে পারছেন না কেউই।মৃত্যুকালে তিনি থাইল্যান্ডে ছিলেন বলে খবর। তবে জানেন কি বলিউডে থেকেও প্রস্তাব পেয়েছিলেন এই ক্রিকেটীয় কিংবদন্তি? ২০১৫ সালে ওয়ার্ন নিজেই জানিয়েছিলেন এই কথা। 

অন্য একটি সাক্ষাৎকারে 'ওয়ার্নি' আরও জানিয়েছিলেন বলিউডে তাঁর যে বায়োপিক তৈরির কথা চলছে তা হলিউডের মানের হবে। তবে তিনি ভীষণভাবে চান তাঁর সেই বায়োপিকে শেন ওয়ার্ন হিসেবে লিওনার্দো ডি ক্যাপ্রিও কিংবা ব্র্যাড পিট-কে যেন দর্শকদের সামনে হাজির করা হয়। তাঁর কথাতেই জানা গিয়েছিল ২০০৮ সালে তাঁর কোচিং ও নেতৃত্বে যেভাবে প্রথমবার আইপিএল ট্রফি উঠেছিল 'রাজস্থান রয়্যালস'-এর ঘরে, তাইই নাকি হতে চলেছে সেই ছবির মূল গল্প। 'যৌনতা, মাদক থেকে শুরু করে রক অ্যান্ড রোল, সব কিছুই পাবেন ওই ছবিতে' অকপটভাবে জানিয়েছিলেন শেন।

শুধু তাই নয়, এও শোনা গিয়েছিল ভারতে যে হারে কিংবদন্তি অজি লেগ স্পিনারের জনপ্রিয়তা সেই সুবাদে নাকি আসন্ন কোনও বলিউডের ছবিতে তাঁকে দেখা যেতে চলেছে। ওয়ার্ন নিজেও স্বীকার করে নিয়েছিলেন এ কথা। পিটিআই-কে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এপ্রসঙ্গে 'ওয়ার্নি' বলেছিলেন, 'হ্যাঁ, একটি প্রস্তাব পেয়েছি বলিউড ছবির। আমার জন্য একটি চরিত্র ভাবা হয়েছে।'

ওয়ার্নের মৃত্যুসংবাদে হতবাক গোটা বিশ্ব। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, হঠাৎ হার্ট অ্যাটাকে মৃত্যু হয়েছে অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেট জগতের তারকা শেন ওয়ার্নের। ১৯৯২ সালে সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে টেস্ট অভিষেক হয় ওয়ার্নের। ১৫ বছরের ক্রিকেটজীবনে মোট ১৯৪ টি একদিনের আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন। নিয়েছেন ২৯৩ উইকেট।১৯৯৩ সালের অ্যাশেজে ইংল্যান্ডের মাইক গ্যাটিংকে যে বলে বোল্ড করেছিলেন সেটা শতবর্ষের সেরা ডেলিভারি হিসেবে খ্যাত। ১৯৯৯ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিশ্বকাপ জয়ী দলের সদস্য ছিলেন প্রয়াত অজি স্পিনার। পাঁচবার অ্যাশেজ জয়ী দলের গুরুত্বপূর্ণ সদস্য ছিলেন ওয়ার্ন।

বেশ কয়েকবার উইজডেনের সেরা ক্রিকেটার নির্বাচিত হয়েছেন। বিশ্বক্রিকেটের ইতিহাসে সর্বকালের সেরা স্পিনারদের মধ্যে অন্যতম তিনি। টেস্ট এবং একদিনের ক্রিকেট সমান দাপটের সঙ্গে খেলেছেন।

ক্রিকেটের পাশাপাশি তাঁর ব্যক্তিগত জীবনও ছিল বর্ণময়। একটা ফ্লাম্বয়েন্ট ইমেজ ছিল ওয়ার্নের। মজার ছলে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেটের 'ব্যাড বয়' বলে ডাকা হত তাঁকে। অবসরের পরেও ধারাভাষ্যকার হিসেবে তিনি যুক্ত ছিলেন ক্রিকেটের সঙ্গে।

মৃত্যুকালে তিনি থাইল্যান্ডে ছিলেন বলে খবর। ওয়ার্নের এজেন্সির তরফে এই বিষয়ে এক বিবৃতিতে জানানো হয়, ‘শেন ওয়ার্নকে উনার বাংলোয় নিষ্প্রাণ অবস্থায় পাওয়া যায়। মেডিকেল দল নিজেদের পুরো চেষ্টা করেও তাঁকে আর ফেরাতে পারেনি। উনার পরিবার এই সময় একা থাকতে চায় এবং সময়মতো এই বিষয়ে বাকি তথ্য দেওয়া হবে।’

বন্ধ করুন