বাড়ি > বায়োস্কোপ > ‘সুশান্তের মৃত্যুর সিবিআই তদন্তে গড়িমসি কেন?’ প্রমাণ নষ্টের আশঙ্কায় শেখর সুমন
ফের সিবিআই তদন্তের দাবিতে সরব শেখর সুমন 
ফের সিবিআই তদন্তের দাবিতে সরব শেখর সুমন 

‘সুশান্তের মৃত্যুর সিবিআই তদন্তে গড়িমসি কেন?’ প্রমাণ নষ্টের আশঙ্কায় শেখর সুমন

  • সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর তদন্তভার কেন সিবিআইয়ের হাতে তুলে দেওয়া হচ্ছে না? ফের প্রশ্ন তুললেন শেখর সুমন। 

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর খবর সামনে আসার পর থেকে এক মাসেরও বেশি সময় অতিক্রান্ত। পুলিশ যতই এই ঘটনাকে আত্মহত্যা বলে তুলে ধরুক,সেই তত্ত্ব মানতে রাজি নয় প্রয়াত অভিনেতার অনুরাগীদের একটা বড় অংশ। সুশান্তের মৃত্যুর সিবিআই তদন্তের লাগাতার দাবি জানাচ্ছেন তাঁরা। শুধু সোশ্যাল মিডিয়াতেই নয় পথে নেমেও চলছে মৌন মিছিল। শুরু থেকেই সুশান্তের মৃত্যুর সিবিআই তদন্তের দাবিতে সরব হয়েছেন অভিনেতা শেখর সুমন। এবং ঘটনার ৩৬ দিন পরেও সিবিআই তদন্তের কোনওরকম আশ্বাস না মেলায় হতাশ শেখর সুমন। টুইট বার্তায় ক্ষোভ উগরে দিলেন এই অভিনেতা-সঞ্চালক। তিনি আতঙ্কিত যে সিবিআই যদি পরবর্তী সময় এই মামলার তদন্তভার পায়ও,'ততদিনে সমস্ত তথ্য,প্রমাণ হয় সরিয়ে ফেলা হবে নয়ত নষ্ট করা হবে'।

রবিবার টুইটারে সিবিআই তদন্ত নিয়ে সরকারের এই গড়িমসি নিয়ে প্রশ্ন তুললেন শেখর সুমন। তিনি লেখেন, ‘আমার মনে হয় যতদিনে সিবিআইকে এই মামলার তদন্তভার দেওয়া হবে, যদি কোনওদিন দেওয়া হয় যেমনটা হয় আর কী,সিনেমা কিংবা অপরাধমূলক উপন্যাসে-সমস্ত তথ্যপ্রমাণ নয় লোপাট করা হবে না হলে নষ্ট করে দেওয়া হবে এবং দুর্ভাগ্যবশত সিবিআইয়ের তখন কিছুই করবার থাকবে না’।

অপর একটি টুইটে তিনি লেখেন, ‘আমরা কিসের জন্য অপেক্ষা করছি? কেন সিবিআই তদন্তের অনুমতি মিলছে না? আরও একটা জীবন শেষ হয়ে যাওয়ার জন্য অপেক্ষা চলছে? একটা সুইসাইডের তদন্ত দুদিনে বন্ধ হয়ে যায়। ৩৪ দিন হয়ে গিয়েছে। সেটাই বলে দিচ্ছে যে বিষয়টা যেমন বলা হচ্ছে তেমন নয়, এর গভীরে অনেক কিছু রয়েছে’।

দিন কয়েক আগেই সুশান্তের মৃত্যুতে সিবিআই তদন্তে নিয়ে প্রয়াত অভিনেতার পরিবারের চুপ থাকায় হাতাশা জাহির করেছিলেন শেখর সুমন। তাঁদের নীরাবতা সুশান্তকে বিচার পাইয়ে দেওয়ার আন্দোলনকে দুর্বল করে দিচ্ছে বলেই মনে করেছিলেন শেখর সুমন। 

সুশান্তের মৃত্যুর তদন্ত নিয়ে অভিনেতার পরিবারের তরফে এখনও কোনওরকম আনুষ্ঠানিক বিবৃতি মেলেনি, তবে সুশান্তের বান্ধবী রিয়া চক্রবর্তী গত বৃহস্পতিবার টুইটারে এই মামলার তদন্তভার সিবিআইকে দেওয়ার আর্জি জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে। 

বন্ধ করুন