বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > ডিনার করতে বসেও শান্তি নেই! ঝাঁপিয়ে পড়ে অতিষ্ঠ করেছে শ্রীলেখার ‘হ্যাংলা পরিবার’
শ্রীলেখা মিত্র (ছবি-ফেসবুক) 
শ্রীলেখা মিত্র (ছবি-ফেসবুক) 

ডিনার করতে বসেও শান্তি নেই! ঝাঁপিয়ে পড়ে অতিষ্ঠ করেছে শ্রীলেখার ‘হ্যাংলা পরিবার’

স্বাস্থ্য সচেতন শ্রীলেখার ডিনারও কিন্তু দেখার মতো, এই জন্যই এত ফিট এখনও!

সোশ্যাল মিডিয়ায় বেশ সক্রিয় অভিনেত্রী শ্রীলেখা মিত্র। নিজের দিনযাপনের ছোটখাটো ছবি রোজই ভাগ করে নেন অনুরাগীদের সাথে। আর নায়িকার ভক্তরাও তা বেশ জমিয়ে উপভোগ করেন। 

কাজের বাইরে পরিবার আর সারমেয়দের সাথে সময় কাটাতে ভালোবাসেন তিনি। পোষ্যপ্রীতির জেরে আবাসনের বাসিন্দাদের সাথেও তুমুল ঝগড়া হয়েছে তাঁর। তবে, সেসব গায়ে মাখেন না! নিজের ওই ‘হ্যাংলা পরিবার’কে তাই নিয়ে এসেছেন নিজেরই ঘরে। আপাতত সকলকে নিয়েই থাকেন সেখানে। 

ইনস্টাগ্রামে একটি ভিডিয়ো পোস্ট করেছেন শ্রীলেখা। যেখানে দেখা যাচ্ছে মেকআপ করতে বসেছেন অভিনেত্রী। পোশাক বদলালেও মেকআপ তোলার সময় হয়নি। বাটিতে নিয়ে বসেছেন ওটস। ওমা! খাবেন কি, চারপাশে ঘুরঘুর করা পোষ্যদের সামলাতেই যে অস্থির তিনি! তাই তো কপট রাগ, ‘এই, খেতে দেই না তোদের’!

অ্যাপার্টমেন্টের আশপাশে থাকা পথ কুকুরদের দেখভালের দায়িত্ব নিয়েছেন শ্রীলেখা। আর সেই নিয়েই যত অশান্তি। করোনার সময় লকডাউনেও এদেরকে খাইয়েছেন তিনি। করিয়েছেন টিকাকরণ। শেষমেশ তাঁদের মধ্যে কয়েকজনকে নিয়ে এসেছেন নিজের কাছে। অভিনেত্রী সেই সময় জানিয়েছিলেন, তাঁর ফ্ল্যাটে জায়গা হলে তিনি সবাইকে নিয়ে আসবেন।

এর আগে কুকুর দত্তক নেওয়ার শর্তে শশাঙ্ক নামের এক ব্যক্তির সঙ্গে কফি ডেটে গিয়েছিলেন শ্রীলেখা। তারপর যান সিনেমার কাজে জুরিখে। আর সেখানে গিয়ে যখন জানতে পারেন শাশাঙ্কর অসাবধানতায় মারা গিয়েছে কুকুরটি, তখন ভেঙে পড়েছিলেন। বারবার এই ঘটনার জন্য নিজেকেও দোষারোপ করেছিলেন শ্রীলেখা।

বন্ধ করুন