বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Rubel-Sweta: রুবেলের মা ভালোবেসে কী ডাকে ‘হবু বউমা’ শ্বেতাকে? চুটিয়ে প্রেম নিয়ে অকপট নায়িকা

Rubel-Sweta: রুবেলের মা ভালোবেসে কী ডাকে ‘হবু বউমা’ শ্বেতাকে? চুটিয়ে প্রেম নিয়ে অকপট নায়িকা

রুবেলের সঙ্গে প্রেম নিয়ে অকপট শ্বেতা। 

রুবেল দাস আর শ্বেতা ভট্টাচার্য এখন ছোট পরদার অন্যতম চর্চিত জুটি। তাঁদের বিয়েও ঠিক হয়ে গিয়েছে। খুব সম্প্রতি রুবেলের সঙ্গে প্রেম নিয়ে মুখ খুললেন শ্বেতা। 

আপাতত প্রজাপতির সাফল্যে খুশির সপ্তম স্বর্গে রয়েছেন অভিনেত্রী শ্বেতা ভট্টাচার্য। তবে ব্যক্তিগত জীবনেও এখন খুশির ছোঁয়া। কারণ অভিনেত্রী চুটিয়ে প্রেম করছেন রুবেল দাসের সঙ্গে। বিয়েটা করে নেওয়ার পরিকল্পনাও আছে। যদিও ‘এখনই বিয়ে করতে’ চান না শ্বেতা, আপাতত প্ল্যান ‘চুটিয়ে প্রেম করার’। 

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে রুবেলের সঙ্গে সম্পর্ক নিয়ে মুখ খুললেন শ্বেতা। জানালেন দুজনের ঘটকালিটা আসলে পরিবারের তরফেই হয়েছিল। প্রজাপতি-নায়িকা বললেন, ‘আমরা ঠিক করে উঠতে পারছিলাম না। ওর বাড়ির আমাকে পছন্দ ছিল, আমার বাড়ির ওকে। তখন আমাদের বাড়ির লোকেরা বলল, তোরা যা ইচ্ছে কর। আমরা ঠিক করে নিয়েছি তোদের দুজনের বিয়ে দেব।’

৯ বছরের সম্পর্কে ছিলেন সেটা। তা ভেঙে যাওয়ার পর রুবেলের সঙ্গে প্রেমের সিদ্ধান্ত নেওয়া খুব একটা সোজা ছিল না বলেই জানালেন শ্বেতা। বলতে শোনা গেল, ‘সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ৯ বছরের সম্পর্ক নিয়ে অনেক নেগেটিভ কমেন্ট দেখেছি। দেখো প্রত্যেকের জীবনে ভালো থাকার অধিকার আছে। মা-বাবাকে ভালো রাখার ব্যাপার আছে। আর এইসব মাথায় রেখেই নতুনভাবে জীবন শুরু করার তাগিদ বলতে পারো।’

শ্বেতা আরও জানালেন সবার আগে রুবেল তাঁর খুব ভালো বন্ধু। যাকে চোখ বন্ধ করে বিশ্বাস করেন। ভরসা করেন। জানেন খারাপ-ভালোতে পাশে পাবেন। ‘সোহাগ জল’-এর জুঁই থুরি শ্বেতার কথায়, ‘ও আমার বন্ধু। ও আমার সবটা জানে। আমার অতীত। আমার ক্ষণিকের কোনও মুহূর্তের ভুল। ভালো-মন্দ সব জানে। এমনকী ওরটাও আমি জানি। আর এই কারণে একে-অপরকে মানতে অনেক সুবিধে হয়েছে। আমি এমন একজনকেই জীবনসঙ্গী হিসেবে চেয়েছিলাম যার কাছে আমি স্বচ্ছ থাকতে পারব। রাখঢাক করে কথা বলা আমার দ্বারা হয় না। আজকাল এরকম মানুষের খুব অভাব যে পুরো কথাটা শোনে, বোঝে। রুবেল বলে কম, শোনে বেশি। আমাদের মধ্যে বিশ্বাস আছে। ভরসা আছে। সম্মান আছে।’

সঙ্গে জানালেন রুবেলের মা শ্বেতাকে ডাকে ‘সোনাই’ বলে। শ্বেতার কথায়, ‘উনি আমাকে খুব ভালোবাসেন। আমিও ওঁকে ভালোবাসি। রোজ কথা হয় আমাদের। ভিডিয়ো কলে আমাকে রোজ দেখা চাই ওঁর। আমি একদিন কথা বলতে না পারলে রুবেলকে গিয়ে প্রশ্ন করে, কী রে ওর মন খারাপ, তুই কি ঝগড়া করেছিস? ওদের গোটা পরিবারের সঙ্গে আমার ভীষণ কাছের সম্পর্ক।’

শ্বেতা আরও জানালেন দুজনেই সম্পর্কে ছিলেন যখন তাঁদের ‘ভুয়ো প্রেমের খবর’ ছড়িয়ে পড়েছিল চারিদিকে। একটাসময় নিজেদের আগের সম্পর্কে দুজনেই খুব খারাপ ছিলেন। সেই সময় একে-অপরকে সামলেছিলেন। সেখান থেকেই কাছাকাছি আসা। একে-অপরকে বোঝা। আর তারপর তো ভালোবেসে ফেলা!

আপাতত শ্বেতা ব্যস্ত তাঁর সিরিয়াল ‘সোহাগ জল’ নিয়ে। আর রুবেল দাসকে দেখা যাচ্ছে ‘নিম ফুলের মধু’-তে পল্লবী শর্মার সঙ্গে। দুটি ধারাবাহিকই খুব ভালোবাসা পাচ্ছে দর্শকদের থেকে।

বন্ধ করুন