বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > The Kerala Story Day 2: ‘কাশ্মীর ফাইলস’কে ছাপিয়ে গেল ‘কেরালা স্টোরি’! শনিবারে আয় বাড়ল ৩৯.৭৩ শতাংশ, মোট রোজগার কত?

The Kerala Story Day 2: ‘কাশ্মীর ফাইলস’কে ছাপিয়ে গেল ‘কেরালা স্টোরি’! শনিবারে আয় বাড়ল ৩৯.৭৩ শতাংশ, মোট রোজগার কত?

শনিবারে দ্য কেরালা স্টোরি কত আয় করল বক্স অফিসে?

ছবি নিয়ে বিতর্ক যত বাড়ছে, ততই যেন বেশি হলমুখী হচ্ছে দর্শক। শুক্রবারের থেকে শনিবারের আয় বাড়ল অনেকটাই। রবিবারেও আশা করা যাচ্ছে হল হবে হাউজফুল। 

‘দ্য কেরালা স্টোরি’ মুক্তি আগেই কুড়িয়েছিল একাধিক বিতর্ক। তবে সেসব অতিক্রম করেই সিনেমাটি মুক্তি পেয়েছে ৫মে। আর শুরু থেকেই চমক। তারকাহীন ছবি হওয়া সত্ত্বেও যেরকম আয় করেছে ছবিখানা তা দেখে চোখ ছানাবাড় খোদ বলিউডেরও। এতদিন যে ‘কাশ্মীর ফাইলস’ নিয়ে হচ্ছিল লাফালাফি, হিসেবমতো প্রথম দু দিনে সেই ছবিকেও টেক্কা দিয়ে গিয়েছে ‘দ্য কেরালা স্টোরি’।

মুক্তির দিন থেকেই মিশ্র প্রতিক্রিয়া পাচ্ছে ছবিটি। তবে তাতে আটকে রাখা যাচ্ছে না দর্শককে। সোমবার ট্রেড অ্যানালিসিস্ট তরণ আদর্শ টুইট করলেন সিনেমার দ্বিতীয় দিনের বড় আয় নিয়ে। লিখলেন, ‘দ্য কেরালা স্টোরি সেনসেশনাল। বক্স অফিসে আগুন ধরিয়েছে। সমস্ত সার্কিট জুড়ে ভালো ব্যবসা করছে। ডবল ডিজিট ছুঁয়ে ফেলেছে। এমন একটা সিনেমা যাতে কোনও তারকা-মুখ নেই, তার এরকম ব্যবসা মুখের কথা নয়। শুক্রবার আয় ৮.০৩ কোটি আর শনিবারে ১১.২২ কোটি। মোট ১৯.২৫ কোটি। #ভারতবিজ।’

গত বছরের সবচেয়ে হিট নন-কামর্শিয়াল ছবি ছিল কাশ্মীর ফাইলস। যার প্রথমদিনের আয় ছিল ৩.৫৫ কোটি। আর দ্বিতীয় দিনে তা বেড়ে হয়েছিল ৮.৫০ কোটি। আর প্রথম দু দিন মিলিয়ে হয়েছিল ১২.০৫ কোটি। যা হিসেবমতো অনেকটাই কম। সেদিক থেকে েই সিনেমায় ছিলেন অনুপম খের, মিঠুন চক্রবর্তীর মতো তারকাও। 

দ্য কেরালা স্টোরির গল্প একজন নিরীহ হিন্দু মহিলার চারপাশে আবর্তিত। যিনি ইসলামিক বন্ধুদের ব্রেন ওয়াশ হওয়ার পর ধর্মান্তরিত হন। পরে তাকে আইএসআইএস সন্ত্রাসী সংগঠনে পাঠানো হয়। পরে সবাইকে অবাক করে দিয়ে দাবি করা হয় ছবিটি বাস্তব জীবনের উপর ভিত্তি করে তৈরি যেখানে কেরালার প্রায় ৩২ হাজার মহিলা এই বিপজ্জনক প্রকল্পের আওতায় এসে সমস্যায় পড়েছিল। 

ট্রেলার প্রকাশের পর থেকেই ছবিটি সমালোচনায়। এই সিনেমার প্রতিবাদ করে উঠেছিল নিষিদ্ধ করার দাবি। যা গড়ায় আদালত অবধি। পরবর্তীতে ছবির ট্রেলারের বর্ণিত '৩২,০০০ নারীর গল্প' থেকে পরিবর্তিত করা তা করা সাম্প্রতিক সময়ের তিন নারীর গল্পে। তা নিয়েও অবশ্য বিতর্ক কিছু কম নেই।

এদিকে ‘দ্য কেরালা স্টোরি’কে সমর্থন করেছেন কঙ্গনা রানাওয়াত। তাঁকে বলতে শোনা গিয়েছে, 'আমি সিনেমাটি দেখিনি। অনেকেই ছবিটাকে নিষিদ্ধ করতে চাইছে। আমি যতদূর জানি, ভুল হলে শুধরে দেবেন, হাইকোর্ট বলেছে সিনেমাটিকে নিষিদ্ধ করা যাবে না। আমার তো মনে হয় সিনেমায় ISIS ছাড়া আর কাউকে খারাপভাবে দেখানো হয়নি, তাই না? তাই যদি কারও মনে হয় এই সিনেমা আপনাকে আক্রমণ করছে তাহলে আপনি সন্ত্রাসবাদী। আমি কিছু বলছি না ভাই, এটা খুব সহজ অঙ্ক।'

 

(এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup)

বন্ধ করুন