বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > অক্ষয়ের কী আছে, যা খানদের নেই! টুইঙ্কল খান্নার ডবল মিনিং কথা শুনে মুখ হাঁ করণের
অক্ষয় পত্নী টুইঙ্কলের কথা শুনুন!

অক্ষয়ের কী আছে, যা খানদের নেই! টুইঙ্কল খান্নার ডবল মিনিং কথা শুনে মুখ হাঁ করণের

  • করণ জোহরের শো ‘কফি উইথ করণ’-এ ডবল মিনিং কথা বলে অক্ষয় কুমারকেও লজ্জায় ফেলে দিয়েছিলেন টুইঙ্কল খান্না। 

টুইঙ্কল খান্না বরাবরই পরিচিত নিজের মুফট স্বভাবের জন্য। ‘না ভেবেই কথা বলা’র দুর্দান্ত উদাহরণ হতে পারেন তিনি। আর ‘কফি উইথ করণ’-এ এসে তো অক্ষয় কুমারকে লজ্জায় ফেলে দিয়েছিলেন! এমন কিছু মন্তব্য করেছিলেন যা শুনে মুখ হাঁ হয়ে গিয়েছিল করণ জোহরের মতো ‘কনট্রোভার্সি কিং’-এরও।

করণ জোহরের খুব কাছের বন্ধু টুইঙ্কল খান্না। কিন্তু এর আগে তাঁকে কখনও দেখা যায়নি ‘কফি উইথ করণ’ শো-তে। কারণ হিসেবে বলেছিলেন, অক্ষয়ের ভয় ছিল এই শো-তে এসে নাকি তিনি কথা শুরু করবেন P*nis শব্দটা দিয়ে। যা মেনে নেয় অক্ষয়ও। বলেন, আমি এমনিতেই ভয়ে থাকি কখন কী বলে দেয়। তারওপর ‘কফি উইথ করণ’-এর মতো শো হলে তো কথাই নেই। আরও পড়ুন: অক্ষয়ের সঙ্গে কাজ করতে ‘অস্বস্তি’ হত করিনার, টুইঙ্কলকে প্রকাশ্যেই জানালেন বেবো!

র‌্যাপিড ফায়ার রাউন্ডে করণ প্রশ্ন করেন টুইঙ্কলকে, ‘অক্ষয়ের এমন কী আছে, যা খানদের নেই?’ যাতে নায়িকার উত্তর, ‘Some Extra Inches’। এটা শুনে করণ একটু তির্যক নজর দিতেই টুইঙ্কল বলে ওঠেন, ‘আরে আমি লম্বালম্বিভাবে বলছি’।

এরপর করণের প্রশ্ন ছিল, ‘তিনি কি নিষিদ্ধ করতে চান?’ টুইঙ্কলের উত্তর ছিল, ‘টু মিনিটস নুডুলস, না রান্নাঘরে ভালো, না বিছানায়’! ইঙ্গিতটা ধরতে পারলেন তো?

অক্ষয় যখন টুইঙ্কেলকে বিয়ের প্রস্তাব দেন, তখন এই নায়িকা-লেখিকা নাকি বলেছিলেন, ছবি ফ্লপ হলে তবেই তারা বিয়ে করবে, অবশেষে ছবিটি ফ্লপ হয় এবং তাদের বিয়ে হয়। আর টুইঙ্কেল একবার জানিয়েছিলেন অক্ষয়কে ১৫ দিনের জন্য প্রেমিক বানিয়েছিলেন তিনি। তারপর কিছুদিন একসঙ্গে থাকার পরই বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন।

বন্ধ করুন