বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > ‘দুই মন, ভিন্ন চিন্তাধারা আসে’, কাজলের সঙ্গে বিয়ের পর ‘উত্থান-পতন’ নিয়ে অকপট অজয়
১৯৯৯ সালে কাজলের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন অজয়
১৯৯৯ সালে কাজলের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন অজয়

‘দুই মন, ভিন্ন চিন্তাধারা আসে’, কাজলের সঙ্গে বিয়ের পর ‘উত্থান-পতন’ নিয়ে অকপট অজয়

  • কাজলের সঙ্গে বিয়ের পর ‘উত্থান-পতন' এসেছে দাম্পত্যে। কীভাবে সামাল দিয়েছেন তাঁরা? অকপট অভিনেতা। 

১৯৯৫ সালে ‘হালচাল’ ছবির শ্যুটিং চলাকালীন সেটে পরিচয় হয় অজয় দেবগণ এবং কাজলের। ১৯৯৯ সালে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন এই দম্পতি। এক নতুন সাক্ষাত্কারে, অজয়কে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল কীভাবে নিজের দাম্পত্যকে টিকিয়ে রেখেছেন তিনি। উত্তরে অভিনেতা বলেছেন, ‘খুব ভালো ভাবেই।’ তবে অভিনেতার কথায়, উত্থান-পতনও এসেছে তাঁদের দাম্পত্যে। 

‘গুন্ডারাজ’, ‘ইশক’, ‘রাজু চাচা’, ‘পেয়ার তো হোনা হি থা’, ‘তানাজি’-র মতো ছবিতে একসঙ্গে কাজ করেছেন অজয় এবং কাজল। ২০০৩ সালে দম্পতির মেয়ে নাইসার জন্ম হয়, ২০১০ সালে ছেলে যুগের মা হন কাজল। 

কাজলের সঙ্গে কীভাবে নিজের বিয়ে টিকিয়ে রেখেছেন অজয়? এ বিষয় কথা বলতে গিয়ে এক সাক্ষাৎকারে অভিনেতা জানিয়েছেন, ‘ভালো করে টিকিয়ে রাখা চেষ্টা করেছি। যদিও প্রতিটি বিয়েতেই উত্থান-পতন থাকে। মতবিরোধ আছে, কিন্তু আপনাকে সেগুলি পরিচালনা করতে হবে কারণ মন একরকম হতে পারে না। যেখানে শিশুরাও উদ্বিগ্ন, সেখানে দুটি মনও ভিন্নভাবে চিন্তা করবে। কিন্তু তারপরে আমরা শর্তে আসি এবং কোনটি সঠিক এবং কোনটি ভুল তা নিয়ে আলোচনা করি এবং এভাবেই কাজ করেছে। আপনাকে একে-অপরের দৃষ্টিভঙ্গিও বুঝতে হবে। প্রথম জিনিসটি হল যে আপনি যখন মনে করেন যে আপনি ভুল, তখন আপনাকে খুব খোলামেলা হতে হবে, আপনাকে ক্ষমা চাওয়া উচিত এবং এটিকে অতিক্রম করা উচিত, তারপর এটি কাজ করে। আপনি যদি আপনার অহংকার নিয়ে থাকেন তবে এটি কাজ করবে না।’

বাস্তব জীবনে অভিনেতা কতটা ‘রোম্যান্টিক’, সে বিষয় কথা বলতে গিয়ে অজয় বলেন, ‘আমি আত্মমগ্ন মানুষ নই। আমি অপরের কথা ভাবি। অনেক যত্ন করার চেষ্টা করি এবং তা ভিন্ন উপায়ে প্রকাশ করি। ভালোবাসা অংশীদারিত্ব, দায়িত্ব এবং যত্নে রূপান্তরিত হয় এবং এটি ভালোবাসার চেয়ে শক্তিশালী। কারণ শুধুমাত্র ভালোবাসা দিয়ে কোনও কিছু হয় না।’ 

অজয় দেবগণ, অমিতাভ বচ্চন, রকুলপ্রীত সিং, বোমান ইরানি অভিনীত 'রানওয়ে ৩৪'। আগামী ২৯ এপ্রিল সিনেমাহলে মুক্তি পাবে এই ছবি। ছবির জন্য এই ‘ব়্যাপ সং’ গেয়েছেন যশরাজ মুখাটে। সেই গানেই বেশ কিছু ব়্যাপ সংলাপ বলেছেন অজয় দেবগণ। আরও পড়ুন: ব়্যাপারে পরিণত হলেন অজয় দেবগণ, 'রানওয়ে ৩৪'-এর গানে যশরাজের সঙ্গে গলা মেলালেন

সত্য ঘটনা অবলম্বনে তৈরি হচ্ছে এই ছবি। ক্যাপ্টেন বিক্রান্ত খান্না (অজয়) ফ্লাইট একটি আন্তর্জাতিক গন্তব্য থেকে টেক অফ করার পরে একটি রহস্যময় পথ নেয়। অজয় শুধু ছবিতে অভিনয়ই করেননি, প্রজেক্টটি পরিচালনা ও প্রযোজনাও করেছেন। দর্শক মুক্তির অপেক্ষায় সেই ছবির। 

বন্ধ করুন