১৯৯৭ সালে একটি আন-রিলিজড ফিল্মের সেটে ঐশ্বর্য (ছবি-ইনস্টাগ্রাম)
১৯৯৭ সালে একটি আন-রিলিজড ফিল্মের সেটে ঐশ্বর্য (ছবি-ইনস্টাগ্রাম)

ঐশ্বর্যর ২৩ বছর আগের অদেখা ভিডিয়ো সামনে এল! তোলপাড় নেটদুনিয়ায়

  • ১৯৯৭ সালে 'রাধেশ্যাম সীতারমণ' ছবির সেটে নাচের রিহার্স্যালে ব্যস্ত ঐশ্বর্যর ভিডিয়ো ভাইরাল ইন্টারনেটে। মুক্তির আলো দেখেনি এই ছবি।

এই নীল নয়না সুন্দরীর রূপের ঐশ্বর্যে মুগ্ধ গোটা বিশ্ব। চল্লিশের গণ্ডি পেরিয়েও তিনি আসুমদ্র হিমাচলের মনে 'বিশ্বসুন্দরী' হিসাবেই জায়গা ধরে রেখেছেন প্রায় আড়াই দশক ধরে। এবার ঐশ্বর্য রাই বচ্চনের ২৩ বছর আগেকার একটি অদেখা ভিডিয়ো সামনে এল। ১৯৯৭ সালে 'রাধেশ্যাম সীতারমণ' ছবির সেটে একটি নাচের দৃশ্যের মহড়ায় ব্যস্ত ঐশ্বর্য ধরা পড়েছেন এই ভিডিয়োয়। কোনদিনই মুক্তির আলো দেখেনি এই ছবি। ঐশ্বর্য ছাড়াও ছবিতে অভিনয় করেছেন সুনীল শেট্টি ও ফরিদা জালাল। কিন্তু মাঝপথেই বন্ধ হয়ে যায় ছবির কাজ।



ইন্টারনেটে ভাইরাল এই ভিডিয়োয় ঐশ্বর্যকে দেখা গেল বেগুনি-সোনালি লেহেঙ্গায়।সঙ্গে ভারি রূপোলি জুয়েলারিতে। মাথা পট্টি, ঝুমকো, মাঙ্গটিকায় অ্যাশের রূপের জাদু মুগ্ধ করবে। এই ভিডিয়োয় মন হারাচ্ছে ঐশ্বর্যর ভক্তরা। কারুর মতে, 'কী সুন্দরী দেখাচ্ছে ঐশ্বর্য ম্যামকে..এইধরণের সাজে তিনি অনন্যা'। অনেকেই আবার বলছেন-' গোটা বিশ্বের সবচেয়ে সুন্দরী মহিলা.. ভগবান ওনাকে ভালো রাখুক'।

প্রসঙ্গত ১৯৯৪ সালে বিশ্ব সুন্দরীর খেতাব জেতেন ঐশ্বর্য। ১৯৯৭ সালে তামিল ছবি ইরুভরের সঙ্গে রূপোলি সফর শুরু অ্যাশের। সেই বছরই বলিউড ছবি 'অউর প্যায়ার হো গায়া'তেও অভিনয় করেন আজকের বচ্চন বধূ। একই বছর রাধেশ্যাম সীতারমণ ছবিতেও অভিনয় করেছিলেন ঐশ্বর্য, যদিও মুক্তির আলো দেখেনি এই ফিল্ম।

View this post on Instagram

A post shared by AishwaryaRaiBachchan (@aishwaryaraibachchan_arb) on


ঘরবন্দিতে স্বামী অভিষেক ও মেয়ে আরাধ্যার সঙ্গে সময় কাটাচ্ছেন ঐশ্বর্য। রবিবার প্রধানমন্ত্রীর আহ্বানে সাড়া দিয়ে রাত নটায় 'প্রদীপ জ্বালাও' কর্মসূচীতেও যোগদেন অভিষেক-ঐশ্বর্য। বক্স অফিসে অভিনেত্রীর শেষ ছবি ছিল ২০১৮ সালে মু্ক্তিপ্রাপ্ত 'ফন্নে খান'। এরপর ঐশ্বর্যকে দেখা যাবে তাঁর 'গুরু' পরিচালক মণিরত্নমের তামিল ছবি 'পন্নিয়ান সেলভান' ছবিতে। ২০২১-এর এপ্রিলে মুক্তি পাওয়ার কথা ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপটে তৈরি এই ছবির।



বন্ধ করুন