বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > দেব-য়ে মুগ্ধ পরাণ, ‘আমার মতো অনেককেই হয়তো নবজন্ম দিতে হবে হবে ওকে’
'টনিক' ছবির একটি দৃশ্যে দেব-পরাণ। (ছবি সৌজন্যে -ইউটিউব)

দেব-য়ে মুগ্ধ পরাণ, ‘আমার মতো অনেককেই হয়তো নবজন্ম দিতে হবে হবে ওকে’

  • বড়দিন উপলক্ষে শুক্রবার মুক্তি পেয়েছে 'টনিক'। মুখ্যচরিত্রে রয়েছেন পরাণ বন্দ্যোপাধ্যায় এবং দেব।

বড়দিন উপলক্ষে শুক্রবার মুক্তি পেয়েছে 'টনিক'। মুখ্যচরিত্রে রয়েছেন পরাণ বন্দ্যোপাধ্যায় এবং দেব। অভিজিৎ সেন পরিচালিত এই ছবির ট্রেলার প্রকাশ পেতেই নজর কেড়েছিল দেব-পরাণ রসায়ন। ট্রেলারে দেবের মুখে ‘মন টাটকা থাকলে এই বয়সেও ফাটকা খেলা যায়’ মারকাটারি ডায়লগ জিতে নিয়েছিল দর্শকের মন। কথামতো বড়দিনে ‘ছোট বড় সবার’ টনিক নিয়ে হাজির হলেন টলি তারকা। এদিন ক্রিসমাস মানেই দেবের জন্মদিনও বটে, তাই এই বছর ‘টনিক’ দেবের তরফে ভক্তদের রির্টান গিফট। ই বছর ৩৯-এ পা দেবেন দেব। তাই আনন্দবাজার অনলাইনের হয়ে দেবের জন্মদিনে কলম ধরেছেন পরাণ বন্দ্যোপাধ্যায়। দেবের জন্য মনের মধ্যে পুষে রাখা নানান কথা তুলে ধরেছেন সেখানেই।

পরাণ বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, তাঁর অভিনীত ছবি 'টনিক' এর সহ-অভিনেতা, প্রযোজক হওয়ার পাশাপাশি দেব তাঁর বন্ধু তো বটেই এবং সন্তানসমও। এবং অতি অবশ্যই তাঁর 'আমার হৃত যৌবন পুনরুদ্ধারের টনিক!' বর্ষীয়ান অভিনেতার কথায় দেব মাটির মানুষ। বিরাট তারকা হয়েও ভীষণ সাধারণ। এই প্রসঙ্গে বহু বছর আগে দেবের সঙ্গে তাঁর প্রথম মোলাকাতের প্রসঙ্গ টেনে এনেছেন তিনি। বহু বছর আগে 'মীরাক্কেল' এর সেটা অতিথি হিসেবে হাজির হয়েছিলেন দেব। সেখানেই পরাণবাবুর সঙ্গে তাঁর প্রথম কথা-দেখা হয়। সেখানে টলি-তারকা তাঁকে বলেছিলেন তাঁর বহু বছরের পুষে রাখা এক স্বপ্নের কথা, 'বাবাকে নতুন বাড়ি করে দিতে হবে।' দেবের বলার মধ্যে সেই আকুতি এবং প্রতিজ্ঞা মন ছুঁয়েছিল পরাণবাবুর। সে দিন থেকেই তিনি দেবের অনুরাগী।

পরাণবাবু আরও জানিয়েছেন বাণিজ্যিক ছবির নায়ক হওয়া থেকে কেরিয়ার শুরু করলেও যেভাবে একের পর এক অন্যধারার ছবিতেও দেব সমান পারদর্শিতায় অভিনয় করে চলেছেন, তা তাঁকে অবাক করে। প্রতিটি ছবিতে অভিনেতা হিসেবে নিজেকে যেভাবে ভাঙছেন দেব, পাশাপাশি সবাইকে নিয়ে একসঙ্গে কাজ করার যে তাঁর মানসিকতা তা দেখেও মুগ্ধ 'টনিক' এর 'জলধর সেন'।

পরাণ বন্দ্যোপাধ্যায় বারবার স্বীকার করেছেন স্রেফ দেব-এর দৌলতেই তাঁর পক্ষে এই ছবির শ্যুটিং শেষ করা সম্ভব হয়েছে। তাঁর দাবি, দেব না থাকলে তাঁর এই ছবিই করা হত না। শ্যুটিংয়ে নির্দেশের বদলে কীভাবে সাফ নিজের ব্যক্তিত্ব ও কথায় যে এই টলি-তারকা যে কাউকে বশ করতে পারে, তা দেখে তিনি অন্তত মুগ্ধ। তাই তো 'বার্থডে বয়' এর উদ্দেশে তিনি লিখেছেন, 'দেব, তোর এ বছরের জন্মদিনে আমিও যে আবার জন্ম নিলাম রে!

একেবারে শেষে এই জনপ্রিয় বর্ষীয়ান অভিনেতা জানিয়েছেন যেভাবে দেব তাঁর মনের মধ্যে চাপা পড়ে থাকা ইচ্ছেগুলো জাগিয়ে দিয়েছেন, তা দেখে তিনি মুগ্ধ। কখনও ‘কাকা’ বলে ডেকে। কখনও বা ছলে-বলে-কৌশলে। 'টনিক' এর গোটা শ্যুটিংটাই তিনি দারুণ উপভোগ করেছেন তা জানানোর পাশাপাশি ছবির কিছু কিছু দৃশ্যের কথাও তিনি উল্লেখ করেছেন। বিশেষ করে একটি দৃশ্যে দেব যেখানে তাঁকে পাঁজকোলা করে তুলে ধরেন। সেই দৃশ্যে অভিনয় করাকালীন তিনি নিজেও যে আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিলেন তা ফাঁস করলেন পরাণ বন্দ্যোপাধ্যায় নিজেই। সঙ্গে লিখলেন ঈশ্বরের কাছে তিনি প্রার্থনা করেছিলেন এই প্রাণপ্রাচুর্য, অসীম শক্তি নিয়ে দেব যেন শতজীবী হয়। পরাণবাবুর কথায়, ' আমার মতো অনেককেই হয়তো নবজন্ম দিতে হবে হবে ওকে।'

‘টনিক’ প্রযোজনায় অতনু রায়চৌধুরী এবং প্রণব কুমার গুহ। সহযোগী প্রযোজকের ভূমিকায় রয়েছেন দেব নিজে। দেব, পরাণ বন্দ্যোপাধ্যায় এবং শকুন্তলা বড়ুয়া- তিন জনকে ঘিরেই এগিয়েছে ছবির গল্প। এছাড়াও রয়েছেন সুজন মুখোপাধ্যায়, কণীনিকা বন্দ্যোপাধ্যায়, বিশ্বজিৎ চক্রবর্তী, রজতাভ দত্ত, বিশ্বনাথ বসু প্রমুখ।

বন্ধ করুন