বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > এই দুই ছবির শ্যুট চলাকালীন ‘ঘুমের ঘোরে হেঁটেছিলেন’, এতদিনে ফাঁস বিদ্যার!
বিদ্যা বালন।(ছবি সৌজন্যে - টুইটার)

এই দুই ছবির শ্যুট চলাকালীন ‘ঘুমের ঘোরে হেঁটেছিলেন’, এতদিনে ফাঁস বিদ্যার!

  • কেরিয়ারে মাত্র দু'বার এমন হয়েছিল যখন নিজের অভিনীত ছবি ও চরিত্র নিয়ে হীনমন্যতায় ভুগেছিলেন বিদ্যা বালন। 

নিজের অভিনীত ছবি ও চরিত্র নিয়ে বরাবরই আত্মবিশ্বাসে টইটুম্বুর বিদ্যা বালন। তবে নিজের কেরিয়ারে মাত্র দু'বার এমন হয়েছিল যে যখন তিনি তা হননি। নিজের দু'টি সিনেমার উপরে বিদ্যারই আস্থা ছিল না। ছবি দু'তীর নাম? হে বেবি এবং কিসমত কানেকশন। 'হে বেবি' ছবিতে বিদ্যার বিপরীতে দেখা গিয়েছিল অক্ষয় কুমারকে এবং 'কিসমত কানেকশন'-এ ছিলেন শাহিদ কাপুর। উল্লেখ্য, দু'টি ছবিই কিন্তু বক্স অফিসে বেশ ভালোভাবেই উৎরে গিয়েছিল। যদিও বিদ্যা জানিয়েছেন, এই দুই ছবিতে কাজ করার জন্য তাঁর কোনও আফসোস নেই যেমন তেমন দারুণ আনন্দও কিন্তু নেই।

সিদ্ধার্থ কন্নন-এর ইউটিউব চ্যানেল-এর সেই সাক্ষাৎকারে বিদ্যা বলেছেন, 'হে বেবি এবং কিসমত কানেকশন, আমার কেরিয়ারে এই দুই ছবির ব্যাপারে নিজেরই আস্থা ছিল না। যখন এই দুই ছবির শ্যুটিং সারছিলাম, তখনও বুঝে উঠতে পারিনি যে ঠিক কী করছি, কেন করছি। জলের বাইরে মাছের যে অবস্থা হয়, আমারও অবস্থা কতকটা সেরকমই হয়েছিল। তা সত্বেও বক্স অফিসে এই দু'টি ছবিই ভালো ব্যবসা করেছিল। এরপর থেকে বুঝেছিলাম এরকম ধরণের চরিত্র একেবারেই আমার জন্য নয়।'

তাহলে কী পরবর্তী সময়ে এই ছবি দু'টি দেখতে বেশ অস্বস্তিই হয়েছে বিদ্যার? অভিনেত্রীর সরাসরি জবাব, না, না ঠিক অস্বস্তি নয়। আমি মন দিয়েই দেখিনি এই দু'টি ছবি। অনেকটা যেন ঘুমের ঘোরে হেঁটে যাওয়ার মত এইসব ছবির শ্যুট সেরেছিলাম। কারণ গোটা ব্যাপারটাই আমার বোধগম্য হয়নি। আমি মজাই পাইনি।' সামান্য থেমে তাঁর সংযোজন, 'এই দুই ছবির ক্ষেত্রে আমার সিদ্ধান্ত যে অন্যরকম ছিল তাতে কোনও সন্দেহ নেই। তবে জানেন তো, অন্যরকম রাস্তায় বা সিদ্ধান্তে চলার উপযুক্ত মানুষ নই আমি। এটুকুই।'

বন্ধ করুন