বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Sandy-Sritama: ‘আমার সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করলে আমিও তাই করব’, শ্রীতমার সঙ্গে ঝামেলা নিয়ে আনকাট স্যান্ডি

Sandy-Sritama: ‘আমার সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করলে আমিও তাই করব’, শ্রীতমার সঙ্গে ঝামেলা নিয়ে আনকাট স্যান্ডি

থামছে না তর্জা

সিনিয়র অভিনেত্রী বলে সুর নরম করবেন না, সাফ জানিয়ে দিলেন স্যান্ডি। ইউটিউবারের কোন ইয়ার্কির জেরে মেজাজ হারান শ্রীতমা, তাও খোলসা করলেন স্যান্ডি সাহা। 

সবে বাংলা সিরিয়ালের দুনিয়ায় পা দিয়েছেন স্যান্ডি সাহা। আর শুরুতেই চর্চার কেন্দ্রবিন্দুতে ‘কাদা কাদা’ খ্যাত এই সোশ্যাল মিডিয়া ইনফ্লুয়েনশার। আপতত ‘কালার্স বাংলা’র ‘বসন্ত বিলাস মেসবাড়ি’তে আগমন ঘটেছে স্যান্ডির। বিবসের চরিত্রে অভিনয় করছেন তিনি। আর সেখানে প্রবেশ করেই ‘সিনিয়র’ অভিনেত্রী শ্রীতমা ভট্টাচার্যর সঙ্গে বচসায় জড়িয়ে 'কেলোর কীর্তি' ঘটান স্যান্ডি। যার জেরে মঙ্গলবার দিনভর চর্চায় থাকল ‘বসন্ত বিলাস মেসবাড়ি’।

এমনতিতে স্যান্ডির সঙ্গে শ্রীতমার বন্ডিং বেশ মজবুত। তবে এমন কী ঘটল বা স্যান্ডি এমন কী বলে বসলেন যে শ্যুটিং সেট ছেড়ে গটগটিয়ে বেরিয়ে যেতে হল শ্রীতমাকে? পরিস্থিতি এতটাই জটিল হয়ে দাঁড়ায় যে শ্যুটিং থমকে যায় ‘বসন্ত বিলাস মেসবাড়ি’র।

কী নিয়ে সমস্যা? কেন শ্রীতমা রেগে গেলেন? এই প্রসঙ্গে এক সংবাদমাধ্যমকে স্যান্ডি বলেন, ‘ওইদিন আমার শ্যুটিংয়ে ঢুকতে দেরি হয়েছিল। শ্রীতমা প্রশ্ন করে কেন দেরি হল? আমি ইয়ার্কি মেরে বলি, শ্রীতমার জন্য'। এইটুকু শুনেই সেট ছাড়েন শ্রীতমা?

স্যান্ডি জানান, এমনিতে শ্রীতমার সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক ভালো। তবে হয়ত ওইদিন শ্রীতমার মুড খারাপ ছিল, যা তার পক্ষে বোঝা সম্ভব নয়। তিনি খুব সাধারণ ইয়ার্কি মেরেছিলেন। স্যান্ডি বলেন, ‘ওই মুহূর্তে দাঁড়িয়ে শ্রীতমা আমার কথায় রিঅ্যাক্ট করেছে। আমার সঙ্গে যে টোনে কথা বলবে, আমিও সেইভাবেই উত্তর দেব। নম্রভাবে জবাব দেব না। কেউ খারাপ কথা বললে আমিও খারাপ ব্যবহার করব। সিনিয়র অভিনেত্রী বলে আমি চুপ থাকব না। পরে যদিও আমরা বিষয়টা মিটিয়ে নিয়েছি, কিন্তু আমার মনে হয় বিষয়টা ও হালকাভাবে নিতে পারত’।

এই প্রসঙ্গে বেশি কিছু বলতে না-রাজ শ্রীতমা। তিনি জানিয়েছেন, শ্যুটিং সেটে অন্তত কাজের সময়টুকু নির্দিষ্ট কিছু ডেকোরাম মেনটেন করা দরকার। সেটা না করলে মুশকিল, হয়ত নতুন বলে স্যান্ডি জানে না। সঙ্গে শ্রীতমা আরও যোগ করেন, ‘পুরোটা বাড়িয়ে বলা হচ্ছে’।

‘ছেলেধরা’ হয়ে ‘বসন্ত বিলাপ মেসবাড়ি’তে স্যান্ডির আগমন ঘটেছিল। হিরো-হিরোইনের মধ্যে ফাটল ধরিয়ে হিরো-কে নিজের করে নেওয়াই তাঁর লক্ষ্য। স্যান্ডি ওরফে ‘বিবস’-কে ব্রহ্মাস্ত্র বানিয়ে হাজির করেছেন শ্রীতমা নিজে (বাস্তবে নয় পর্দায়) কিন্তু এবার ছ্যাঁকা খেতে হল তাঁকেই!

বন্ধ করুন