বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > কাকার সঙ্গে অন-স্ক্রিন রোম্যান্স! 'হিনা'র সুযোগ হাতছাড়া হয় করিশ্মার
হিনা-র সঙ্গে কেরিয়ার শুরু করতে চেয়েছিলেন করিশ্মা
হিনা-র সঙ্গে কেরিয়ার শুরু করতে চেয়েছিলেন করিশ্মা

কাকার সঙ্গে অন-স্ক্রিন রোম্যান্স! 'হিনা'র সুযোগ হাতছাড়া হয় করিশ্মার

  • হিনা-র সঙ্গে রুপোলি সফর শুরুর ইচ্ছা ছিল করিশ্মার, তবে রাজ কাপুরের একটা সিদ্ধান্তের জেরে তা সম্ভবপর হয়নি। 

বলিউডের ফার্স্ট ফ্যামিলি হিসাবে পরিচিত কাপুর পরিবার। প্রজন্মের পর প্রজন্ম ধরে পৃথ্বীরাজ কাপুরের পরিবার হিন্দি ছবির ভাঁড়ারে অজস্র মণিমুক্তো উজাড় করে দিয়েছে। তবে এই পরিবারের পুরুষরাই একমাত্র রুপোলি পর্দার অংশীদার ছিলেন করিশ্মা কাপুরের বলিউডে পা রাখার আগে পর্যন্ত। বি-টাউনে কাপুরের পরিবারের চতুর্থ প্রজন্মের প্রথম সদস্য করিশ্মা। অভিনয় তাঁর রক্তে বইছে। রাজ কাপুরের নাতনি, রণধীর কাপুরের কন্যা করিশ্মার সিলভার স্ক্রিন জার্নি শুরু হয়েছিল ১৯৯১ সালে। ছবির নাম ছিল ‘প্রেম কয়েদি’। তখন তাঁর বয়স মাত্র ১৭ বছর!

তবে করিশ্মার ইচ্ছা ছিল ঠাকুরদা রাজ কাপুরের ছবির সঙ্গেই নিজের অভিনয় জীবন শুরু করার। তবে অল্পের জন্য রাজ কাপুরের ‘হিনা’ ছবিতে কাজের সুযোগ হাতছাড়া হয় নায়িকার। করিশ্মা যখন ডেব্যিউ করেন, সেইসময়ই ‘হিনা’ ছবি তৈরি করছিলেন রাজ কাপুর। কেন এই ছবি থেকে বাদ পড়েন করিশ্মা? জবাব খুব সহজ এবং যুক্তিসম্মত। এই ছবির নায়ক ছিলেন রাজ কাপুর পুত্র ঋষি কাপুর। সেই কারণেই ছবিতে ‘হিনা’র ভূমিকায় অভিনয় করা সম্ভবপর ছিল না করিশ্মার পক্ষে। 

সেই সময় এই কারণের ব্যাখ্যাও দিয়েছিলেন করিশ্মা। প্রায় তিন দশক পুরোনো এক সাক্ষাত্কারের ক্লিপিংস সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেছেন বলিউড ছবির এক অন্ধভক্ত। 

করিশ্মা বলেছিলেন, ‘আমি অবশ্যই চেয়েছিলাম হিনা’য় আমার বাবার সঙ্গে কাজ করতে। কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত আমার চাচা ওই ছবির হিরো। এটা খুব স্বাভাবিক যে আমি ওঁনার বিপরীতে নায়িকা হতে পারব না। আর কী বলি বলুন…'। 

অভিনেত্রী আরও যোগ করেন, ‘আমার ঠাকুরদা চিন্টু আঙ্কেলকে আগেই বেছে নিয়েছিলেন, তাই আপনি তো আর এটা আশা করবেন না যে কাকা-ভাইঝি অন-স্ক্রিন রোম্যান্স করবে। এতটা আনফেয়ার হওয়া উচিত নয়। উনি (রাজ কাপুর) সবসময় বলতেন, লোলো বেবি আমি নিশ্চিত তুমি অভিনেত্রী হবে। তবে এইটুকুই তোমাকে বলব, যদি অভিনেত্রী হও, তাহলে সেরা অভিনেত্রী হও, না হলে হওয়ার দরকার নেই'। 

হিনা ছবির শ্যুটিং চলাকালীনই মৃত্যু হয় রাজ কাপুরের। পরবর্তী সময়ে রণধীর কাপুর পরিচালক হিসাবে বাবার অসমাপ্ত কাজ শেষ করেন। এই ছবিতে ঋষি কাপুরের পাশাপাশি অভিনয় করেছিলেন জেবা বখতিয়ার এবং অশ্বিনী ভাবে।  

বন্ধ করুন