বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > সলমনের সঙ্গে ঝগড়ার পর সন্তানদের সামনে লজ্জায় পরেন শাহরুখ, কীভাবে বুঝিয়েছিলেন?
সলমন ও শাহরুখ (ফাইল ছবি)
সলমন ও শাহরুখ (ফাইল ছবি)

সলমনের সঙ্গে ঝগড়ার পর সন্তানদের সামনে লজ্জায় পরেন শাহরুখ, কীভাবে বুঝিয়েছিলেন?

  • ২০০৮ সালে ক্যাটরিনার জন্মদিনের পার্টিতে 'হাতাহাতি' জড়ান দুই খান। পরবর্তী ৬ বছর প্রায় মুখ দেখাদেখি বন্ধ ছিল দুজনের। 

শাহরুখ খান ও সলমন খান- বলিউড ‘খানদান’-এর দুই অবিচ্ছেদ্য অঙ্গ। তাঁদের ‘পেশাদার রেষারেষি’টা বরাবরে, তবে এই দুই সুপারস্টারের বন্ধুত্বের সম্পর্টা নব্বইয়ের দশকে অটুট ছিল। কিন্তু নতুন শতাব্দীতে এসে সেই সম্পর্কে কিছুটা ছন্দপতন ঘটে। ২০০৮ সালে ক্যাটরিনার জন্মদিনের পার্টিতে শাহরুখ-সলমনের ‘ঝগড়া’ বলিউডের এক না-ভোলা আখ্যান। যদিও শাহরুখ-সলমনের সম্পর্কের তিক্ততা শুরু হয় ২০০২ সালে ‘চলতে চলতে’ ছবির শ্যুটিং চলাকালীন। শুরুতে এই ছবির অংশ ছিলেন ঐশ্বর্য, তাঁর সঙ্গে কথা বলতে ছবির সেটে চড়াও হয়েছিলেন সলমন। শোনা যায়, সেখানে গিয়ে রীতিমতো লোকজনকে ধাক্কাধাক্কি করেন সল্লু মিঁয়া। সলমনের বন্ধুত্বের খাতিরেই নাকি ঐশ্বর্যকে ছবি থেকে বাদ দিয়েছিলেন শাহরুখ, সেই নিয়ে দেবদাস-এর পার্বতীর সঙ্গে চিড় ধরেছিল শাহরুখের সম্পর্কে। যদিও মুখে কোনওদিন শাহরুখের কাছ থেকে এর জন্য জবাবদিহি চাননি বচ্চন বধূ। 

২০০৮ সালে ক্যাটরিনার জন্মদিনের পার্টিতে শাহরুখ-গৌরীকে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন সলমন নিজেই। শোনা যায়, পার্টি চলাকালীন নানাভাবে শাহরুখকে অপদস্থ করেন সলমন। ‘ম্যায় অউর মিসেস খান্না’ ছবিতে শাহরুখ ক্যামিও চরিত্রে অভিনয় না করায় সলমন প্রকাশ্যে শাহরুখকে কটাক্ষ করেন। এরপর নাকি রীতিমতো কথা কাটাকাটিতে জড়িয়ে পরেন দুই খান। পরিস্থিতি একটা সময় হাতাহাতিতে পৌঁছায়, গৌরী ও ক্যাটরিনা এরপর পরিস্থিতি সামাল দেন, এবং কোনওভাবে দুইজনকে শান্ত করেন। 

ক্যাটরিনার বার্থ ডে পার্টি থেকে বেরিয়ে যাচ্ছেন সলমন-ক্যাট ও শাহরুখ-গৌরী
ক্যাটরিনার বার্থ ডে পার্টি থেকে বেরিয়ে যাচ্ছেন সলমন-ক্যাট ও শাহরুখ-গৌরী

এক দশক পর ২০১৮ সালে এসআরকে সলমনের সঙ্গে তাঁর এই ঝামেলা নিয়ে মুখ খুলেছিলেন। তিনি জানান, ওই ঝগড়াটা নিতান্তই ব্যক্তিগত। তার সঙ্গে কর্ম জগতের কোনও সম্পর্ক ছিল না। এখন ফের দুজনে দারুণ বন্ধুত্ব। অতীতের তিক্ত স্মৃতি মুছে ফেলে বন্ধুত্বের নতুন অধ্যায় শুরু করেছেন তাঁরা। জিকিউ ম্যাগাজিনকে দেওয়া সাক্ষাত্কারে শাহরুখ জানিয়েছিলেন কেমনভাবে নিজের সন্তানদের কাছে সলমনের সঙ্গে এই ঝামেলার বিষয়টি বুঝিয়ে বলেছিলেন তিনি। 

বাদশা জানান, ‘আমি খুব লজ্জিত ছিলাম সলমনের সঙ্গে এই ঘটনা নিয়ে। আশা করি, এমনটা জীবনে কখনও আমার সঙ্গে না ঘটে। আমি তো ভেবেই উঠতে পারছিলাম না কীভাবে আমি সন্তানদের বিষয়টা বোঝাব, অবশেষে বলেছিলাম যে কিছু মানুষ থাকে যারা একসঙ্গে মানিয়ে চলতে পারে না’। শাহরুখ যোগ করেন, ‘সৌভাগ্যবশত সন্তেরা খবরের কাগজ পড়ত না, তাই তাঁরা জানতে পারেনি ঝগড়াটা কত বড় ছিল’। তিনি ওই দিনের ঘটনা প্রসঙ্গে বলেন, আমি সেদিন চলে যাওয়ার জন্য প্রায় উঠে পড়েছিলাম। কোনওরকম মারামারি বা মৌখিক ঝগড়ার জন্য আমি দাঁড়ায়নি। আমি ক্লান্ত, বিধ্বস্ত ছিলাম, আমচাকই মেজাজ হারাই'। তার আচরণও সেদিন ঠিক ছিল না, অন্তত ওই জায়গায় নিজেকে সামলে নেওয়া উচিত ছিল জানান শাহরুখ। পরে নিজের ভুল বুঝেছিলেন শাহরুখ। 

অর্পিতার বিয়ের অনু্ষ্ঠানের ফাঁকে একফ্রেমে দুই খান
অর্পিতার বিয়ের অনু্ষ্ঠানের ফাঁকে একফ্রেমে দুই খান

২০০৮ সালের ওই ঘটনার পর দীর্ঘদিন শাহরুখ-সলমনের মধ্যে কোনওরকম সম্পর্ক না থাকলেও দুই পরিবারের মধ্যে সুসম্পর্ক বজায় ছিল। সলমনের বোন অর্পিতা খানের বিয়েতে ফের জোড়া লাগে দুই খানের সম্পর্ক। অর্পিতাকে ছোট বোনের চোখেই দেখেন শাহরুখ। আবদার করে শাহরুখকে নিজের বিয়েতে আমন্ত্রণ জানিয়েছিল অর্পিতা। এবং সেখানেই দুই দাদার মধ্যে সব ভুল বোঝাবুঝি দূর করান অর্পিতা। অর্পিতার বিয়ের অনুষ্ঠানের ফাঁকে সলমন-শাহরুখের সঙ্গে কনের ছবি ভাইরাল হয়েছিল সোশ্যালে। 

বন্ধ করুন