বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > Sidharth Malhotra on his relationship: ‘মহিলারা বিদ্রুপ করেছে’, গঞ্জনা শুনে সিদ্ধার্থ ভেবেছিলেন তাঁর জন্য প্রেম নয়!

Sidharth Malhotra on his relationship: ‘মহিলারা বিদ্রুপ করেছে’, গঞ্জনা শুনে সিদ্ধার্থ ভেবেছিলেন তাঁর জন্য প্রেম নয়!

সিদ্ধার্থ ভেবেছিলেন তাঁর জন্য প্রেম নয়!

Sidharth Malhotra on his relationship: বলিউডের বর্তমান হার্টথ্রব সিদ্ধার্থ মালহোত্রাকে নাকি একটা সময় মহিলারা তিরস্কার করেছেন! আর সেই কারণে তিনি কী ভেবেছিলেন জানেন?

এই জন্যই বোধহয় বলে খেলাতে পাশার দান কখন পাল্টে যাবে কেউ জানে না! ভাবছেন হঠাৎ এমন প্রসঙ্গ কেন? সিদ্ধার্থ মালহোত্রার কারণে। আজ যাঁর কারণে অসমুদ্র হিমাচলের বহু নারী পাগল, যাঁদের কাছে তিনি হার্টথ্রব, একদা সেই সিদ্ধার্থ মালহোত্রাকেই নাকি মহিলারা হ্যাটা করেছিল! তাঁকে তিরস্কার করেছিল। ভাবা যায়! একটি সাক্ষাৎকারে তিনি জানিয়েছিলেন তিনি বিদ্রুপের সম্মুখীন হয়েছেন যখন তিনি প্রেমিকার সঙ্গে ঘুরতে যাওয়ার বদলে জিমে গিয়ে শরীরচর্চায় মন দিতে চেয়েছেন। একই সঙ্গে তিনি সেই সাক্ষাৎকারে জানিয়েছিলেন যে আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা করার মতো যখন কিছু হবে তখন তিনি ঘোষণা করবেন। তবে তিনি ঘোষণা না করলেও বি-টাউনের খবর অনুযায়ী তিনি বেশ কিছুদিন ধরেই অভিনেত্রী জিয়ার আদবানির সঙ্গে সম্পর্কে রয়েছেন।

সিদ্ধার্থ-কিয়ারার সম্পর্ক বেশ কয়েক বছরের। মাঝে মধ্যেই তাঁদের একসঙ্গে দেখা যায়। পাপারাজ্জিদের ক্যামেরায় ধরা পড়েন তাঁরা। এই বলি জুটিকে প্রথমবার শেরশাহ ছবিতে প্রথমবার একসঙ্গে দেখা গিয়েছিল। ২০২১ সালের অগস্ট মাসে ছবিটি মুক্তি পেয়েছিল অ্যামাজন প্রাইম ভিডিয়োতে। এবং পরবর্তীকালে ছবিটিকে ব্লকব্লাস্টার হিট ঘোষণা করা হয়। আর বলাই বাহুল্য সেই ছবিতে তাঁদের রসায়ন এবং জুটি সকলেরই বেশ পছন্দ হয়েছিল। শোনা যাচ্ছে খুব শীঘ্রই তাঁরা বিয়ের পিঁড়িতে বসতে চলেছে।

হিন্দুস্তান টাইমসকে দেওয়া ২০১৪ সালের একটি সাক্ষাৎকারে সিদ্ধার্থ জানিয়েছিলেন, 'মনে হয় আমার প্রেম করার বা কোনও সম্পর্কে যাওয়ার কোনও চান্স নেই। কিন্তু তার মানে এটা নয় যে আমি ডেট করিনি বা কারও সঙ্গে বেরোইনি। কিন্তু আমার এখন একটাই লক্ষ্য এই ইন্ডাস্ট্রিতে নিজের একটা জায়গা তৈরি করা। এর আগে আমাকে মহিলাদের থেকে গঞ্জনা শুনতে হয়েছে তাঁদের সঙ্গে ঘুরতে যাওয়ার বদলে জিমে যাওয়ার কারণে। আমার যখন কিছু বলার থাকবে, আমি নিশ্চয় জানাব।'

সম্পর্কের বিষয়ে বলতে গিয়ে সিদ্ধার্থ জানিয়েছিলেন যে, 'অবশ্যই আমাদের সবার জীবনে প্রেম বন্ধুত্ব থাকেই। আমি একজন পূর্ণবয়স্ক ছেলে যে মুম্বইয়ে একা থাকে। ফলে আমাদের সবার যার যার জীবনে নিজের মতো করে বন্ধুত্ব, সম্পর্ক, সমীকরণ আছে।'

অভিনেতাকে শীঘ্রই একটি স্পাই থ্রিলার ঘরানার ছবিতে দেখা যেতে চলেছে। শান্তনু বাগচী পরিচালিত মিশন মজনু জলদি ওটিটি প্ল্যাটফর্মে মুক্তি পাবে। এটি সত্য ঘটনার উপর ভিত্তি করে বানানো হয়েছে। এখানে সিদ্ধার্থকে একজন ভারতীয় ইন্টেলিজেন্স অফিসারের ভূমিকায় দেখা যাবে, নাম অমনদীপ অজিতপাল সিং। কিন্তু সেটা পাকিস্তানে একটি মিশনে যাবে ছদ্মনাম নিয়ে, তারিক। আগামী ২০ জানুয়ারি ছবিটি নেটফ্লিক্সে মুক্তি পাবে। তাঁর সঙ্গে এই ছবিতে রশ্মিকা মন্দানাকে দেখা যেতে চলেছে। এছাড়া থাকবেন কুমুদ মিশ্র, শারিব হাশমি, প্রমুখ।

এছাড়া আগামীদিনে দিশা পাটানির সঙ্গে তাঁকে অ্যাকশন থ্রিলার ছবি যোদ্ধায় দেখা যাবে। ছবিটি চলতি বছরের ৭ জুলাই বড়পর্দায় মুক্তি পাবে।

বন্ধ করুন