বাংলা নিউজ > টুকিটাকি > এবার থেকে চায়ে নিয়ম করে দিন তেজপাতা, উপকারিতা জানলে ভুলেও মিস করবেন না
তেজপাতা চায়ের উপকারিতা। 
তেজপাতা চায়ের উপকারিতা। 

এবার থেকে চায়ে নিয়ম করে দিন তেজপাতা, উপকারিতা জানলে ভুলেও মিস করবেন না

  • তেজপাতা চা-র নানা উপকারিতা রয়েছে। ঠান্ডা লাগা থেকে বদহজম, মিটবে সবকিছু। 

মশলা চা বানানোর সময় আমরা মাঝেমধ্যেই তাতে গোটা গরম মশলার সঙ্গে তেজপাতা দিয়ে থাকি। মূলত চায়ের স্বাদ আর গন্ধ বাড়ানোর জন্যই ঘরে ঘরে এমন করা হয়ে থাকে। তবে, জানেন কি তেজপাতা চা কত উপকারী! এই জাদুকরী পাতায় রয়েছে কপার, সেলেনিয়াম, আয়রন, জিংক, ম্যাঙ্গানিজ, ম্যাগনেসিয়াম, পটাসিয়াম ও ক্যালসিয়ামের মতো উপকারী নানা উপাদান। সঙ্গে পেয়ে যাবেন ভিটামিন সি, ভিটামিন এ ও ফলিক অ্যাসিডও। 

চলুন চট করে দেখে নেই তেজপাতা চা পান করার কিছু উপকারী দিক-- 

  • তেজপাতার চায়ে থাকা প্রদাহরোধকারী উপাদান আর্থ্রাইটিসের ব্যথা কমাতে উপকারী। 
  • সিজন চেঞ্জের এই সময় অনেকেই ঠান্ডা লাগার সমস্যায় ভোগেন। তেজ পাতার অ্যান্টি-ব্যাক্টেরিয়াল গুণ ঠান্ডা লাগতে দেয় না। সঙ্গে এটি বুকে জমা কফ বের করতেও সাহায্য করে।
  • তেজপাতায় থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট রক্তে শর্করার পরিমাণ নিয়ন্ত্রণে রাখে। ফলে ডায়াবেটিসের রোগীদের জন্যও এই চা বিশেষ উপকারি। 
  • উচ্চ রক্তচাপ কমাতে ও শরীর থেকে ব্যাড কোলেস্টেরল দূর করতে সাহায্য করে তেজপাতার চা।
  • তেজপাতার চা হজমক্ষমতা বৃদ্ধি করে। তাই যারা বদহজমের সমস্যায় ভুগছেন তারাও এই চা অবশ্যই খান। 

কীভাবে বানাবেন?

৩-৪টি তেজপাতা নিয়ে প্যানে দিন। এবার তাতে ১ কাপ জল দিয়ে পাঁচ মিনিট কম আঁচে ফুটিয়ে নিন। এবার তা নামিয়ে ঠান্ডা অথবা গরম দু'ভাবেই পান করতে পারেন।

রোজের বানানো দুধ চায়েও তেজপাতা যোগ করতে পারেন। 

 

 

বন্ধ করুন