বাংলা নিউজ > টুকিটাকি > Red Meat Eating: কিছুটা রেডমিট খেতে পারেন, কিন্তু কীভাবে খাওয়া উচিত? পরামর্শ দিলেন বিশেষজ্ঞ

Red Meat Eating: কিছুটা রেডমিট খেতে পারেন, কিন্তু কীভাবে খাওয়া উচিত? পরামর্শ দিলেন বিশেষজ্ঞ

কোরবানি ইদের সময় রেড মিট বা লাল মাংস খাওয়ার মাত্রা বেড়ে যায় বাংলাদেশে৷ (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্যে Pixabay)

কোরবানি ইদের সময় রেড মিট বা লাল মাংস খাওয়ার মাত্রা বেড়ে যায় বাংলাদেশে৷ কোরবানির মাংসকে অনেকে পবিত্রও মনে করেন৷ এই গরুর মাংসের অনেক উপকারিতা আছে। কিন্তু বেশি খাওয়ার ঝুঁকিও রয়ে গিয়েছে৷ মাংসের ক্ষতিকারক দিক মূলত চর্বি৷

কোরবানি ইদের সময় রেড মিট বা লাল মাংস খাওয়ার মাত্রা বেড়ে যায় বাংলাদেশে৷ এর স্বাস্থ্যঝুঁকি নিয়ে ডয়চে ভেলের সঙ্গে কথা বলেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পুষ্টি ও খাদ্য বিজ্ঞান ইনস্টিটিউটের প্রাক্তন পরিচালক অধ্যাপক ড. খুরশিদ জাহান৷

ডয়চে ভেলে: কোরবানির ইদে বাংলাদেশের মানুষ প্রচুর মাংস খেয়ে থাকেন৷ বিষয়টি আপনি কীভাবে দেখেন?

ড. খুরশিদ জাহান: কোরবানির ইদ হল মুসলমানদের ধর্মীয় উৎসবগুলোর মধ্যে অন্যতম৷ এই সময়ে বিভিন্ন পশু যেমন, গরু, ছাগল, মহিষ, উট, দুম্বা জবাই করার মাধ্যমে উৎসবটা পালন করা হয়৷ এগুলো কিন্তু রেড মিটের উৎস৷ আমি বলব, গরুর মাংস বা রেড মিট খাওয়ার আগে অবশ্যই নিজের স্বাস্থ্যগত দিক চিন্তা করে নিতে হবে৷ বছরে একটা দিন আমরা কোরবানির মাংস খাব, এটা অনেকে আশা করে থাকে৷ কোরবানির মাংসকে অনেকে পবিত্রও মনে করেন৷ এই গরুর মাংসের অনেক উপকারিতা আছে। কিন্তু বেশি খাওয়ার ঝুঁকিও রয়ে গিয়েছে৷ মাংসের ক্ষতিকারক দিক মূলত চর্বি৷ খাওয়ার পর এই চর্বি বাসা বাঁধে রক্তে এবং এটা ক্ষতিকারক কোলস্টেরল বাড়িয়ে দেয়৷ যার কারণে হৃদরোগ, উচ্চ রক্তচাপের ঝুঁকি বেড়ে যায়৷ আরও অনেক সমস্যা শরীরে হতে পারে৷

মানবদেহের জন্য লাল মাংসের প্রয়োজনীয়তার দিকটি নিয়ে কী বলবেন?

পুষ্টির দিক থেকে রেড মিট কিন্তু অনেক গুণে গুণান্বিত৷ এটা হাই কোয়ালিটির প্রোটিনের উৎস৷ এরমধ্যে অনেক ভিটামিন, মিনারেল রয়ে গিয়েছে৷ আয়রন আছে, যেটা রক্তশূন্যতা দূর করে৷ রেড মিট আমাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়, হাড় ও দাঁতের গঠনে ভূমিকা রাখে, চুল-নখের স্বাস্থ্য ভালো রাখে৷ তারপর বাচ্চা বয়স থেকে শুরু করে সবারই শরীরের বৃদ্ধি ও বুদ্ধি বাড়াতে সাহায্য করে৷ আমাদের দৃষ্টিশক্তি ভালো রাখে, অতিরিক্ত অসারতা দূর করতে সহায়তা করে৷ এসব স্বাস্থ্যগত দিক বিবেচনায় ভালো উৎস হল রেড মিট৷

যাঁদের কোষ্ঠকাঠিন্য আছে, কোলেস্টরেল বেশি, উচ্চ রক্তচাপ আছে- তাঁদের জন্য আপনার পরামর্শ কী?

তাঁরা রেড মিট খেতে পারবেন কিনা, কতটুকু খেতে পারবেন- এর জন্য অবশ্যই তাঁদের বিশেষজ্ঞ বা পুষ্টিবিদের পরামর্শ নিতে হবে৷ কোরবানির ইদে সবাই মাংসটা খেতে চায়৷ যাঁদের কোনও সমস্যা নেই, তাঁরা দিনে ৭০ গ্রাম পর্যন্ত খেতে পারবে, যেটা সপ্তাহে সবমিলিয়ে ৩০০-৫০০ গ্রাম হতে পারে৷ কিন্তু যাঁরা অসুস্থ: বিশেষ করে হৃদপিণ্ডে সমস্যা আছে, যাদের কিডনির সমস্যা আছে, যাদের ওজন অনেক বেশি, আর্থারাইটিস আছে- তাঁদের বুঝেশুনে খেতে হবে, পরামর্শ নিয়ে খেতে হবে৷ তবে অনেক বিশেষজ্ঞ বলেন, কোরবানির ইদের সময় পাওয়া পশুর পাঁজর বা সিনার মাংসে চর্বি কম থাকে, সেখান থেকে কিছুটা হয়তো খাওয়া যাবে৷ কিন্তু বেশি খাওয়া যাবে না, সীমিত আকারে- সেটা বিশেষজ্ঞের পরামর্শ অনুযায়ী৷

গরু ও খাসির মাংস যাঁদের বারণ, তাঁরা সাধারণত মুরগির মাংস খেয়ে থাকেন৷ এই বিকল্প ঠিক কিনা?

হাই কোলেস্টরেলের কারণে যাদের গরুর মাংস খাওয়া নিষেধ, তারা ঝুঁকি কমাতে মুরগির মাংস খেয়ে থাকেন৷ মুরগির মাংসেও কিন্তু গরুর মাংসের মতোই হাই কোয়ালিটির প্রোটিন থাকে৷ যাদের সমস্যা তাদের প্রোটিন কম খাওয়া উচিত, কিডনি রোগীদের এমনিতেই কম খাওয়া উচিত৷ ফুড ডাইভারসিফিকেশন বলে কিন্তু একটা কথা আছে৷ আমরা প্রতিদিন যে খাবারগুলো খাই, তারমধ্যে অনেক ধরনের খাবার যুক্ত করা উচিত৷ এই খাবারের সঙ্গে আমরা যদি শাকসবজি, ফলমূল, দানাদার খাবার যুক্ত করি- তাহলে আমাদের মাংসের পরিমাণটা কম হয়ে যায়৷ সব খাবার মিলিয়ে খেলে সমস্যা কমে যায়৷

আরও পড়ুন: World Famous Indian Dips: বিশ্ব সেরা কাঁচা আম ও ধনে পাতার চাটনি! এইভাবে বানালে হাত চাটবেন ১০ বার

আমিষের চাহিদা পূরণে মাছ, মাংস ছাড়া আর কোন কোন খাবার গ্রহণ করা যায়?

দু'রকম উৎস থেকে আমরা আমিষ পেতে পারি৷ একটা হল, প্রাণিজ উৎস যেমন, মাছ-মাংস৷ আরেকটা হল ভেজিটেবল৷ দেশে আমরা যত সমীক্ষা করেছি, সেখানে আমরা বেশিরভাগই পেয়েছি সিরিয়াল প্রোটিন৷ বিভিন্ন ধরনের ডাল হলো আমিষের ভালো উৎস৷ ডাল ও চাল মিলিয়ে যদি আমরা খাবার খাই, তাহলে কিন্তু হাই কোয়ালিটির প্রোটিনের চাহিদা পূরণ হয়ে যায়৷ ডালে যে অ্যামিনো অ্যাসিড কম থাকে, সেটা চালে থাকে৷ আবার চালে যে অ্যামিনো অ্যাসিড কম থাকে, সেটা ডালে থাকে৷ এখন যদি মিলিত খাবারটা খাই, তাহলে এটা পরিপূর্ণ হাই ক্লাস অ্যামিনো অ্যাসিড যুক্ত খাবার হয়৷

ছোটবেলা থেকেই শাকসবজি খাওয়ার প্রতি কিছু অনীহা দেখা যায়৷ এর কারণ কী? সমাধান কীভাবে হতে পারে?

বাচ্চাদের যখন সাপ্লিমেন্ট ফুড দেওয়া হয়, তখন থেকে যদি আমরা এমন খাবারে অভ্যস্ত করি, যেটা তাদের উপযোগী এবং তাদের টেস্ট অনুযায়ী, যা ভেজিটেবলস ও অ্যানিমেল সোর্সের মিলিত খাবার- এভাবে দিলে বাচ্চারা এভাবেই অভ্যস্ত হয়ে উঠবে৷ কিন্তু অনেক মাকেই দেখি, তাঁরা এত ঝামেলার মধ্যে যায় না৷ 

আরও পড়ুন: Instant Noodles: চটজলদি পেট ভরে, তবু এই পাঁচটি কারণে রোজ খাওয়া যায় না ইনস্ট্যান্ট নুডুলস

তাঁরা বাচ্চাদের সিরিয়াল জাতীয় খাবার দেন, যেটাতে হয়তো অনেক ভিটামিন মিক্সড থাকে৷ একটু বড় হতে হতেই দেখি, তাদের বাইরে থেকে প্রসেস ফুড কিনে এনে দেন৷ তারা আর কখনোই শাকসবজি খেতে চায় না৷ তারা প্রসেস ফুডেই ঝুঁকে যায়৷ আমাদের বড় পড়ুয়াদের মধ্যে দেখেছি একই অবস্থা৷ খাবারের তো একটা অভ্যেস গড়ে তুলতে হয় ছোটবেলা থেকে, সেটা বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই হয় না৷

কোরবানির ইদের সময় খাবার গ্রহণ নিয়ে আপনার পরামর্শ কী থাকবে?

ধর্মীয় উৎসব তো আমরা পালন করবই৷ যেভাবেই খাই, কিছু হলেও মাংস খাব৷ তবে এই সময়ে মাংস খাওয়ার ব্যাপারে আমাদের সতর্ক থাকা উচিত৷ প্রয়োজন বুঝে খেতে হবে৷ বেশি মাংস থাকলে, বেশি রান্না হলে অতিরিক্ত খাওয়া হয়৷ আমি বলব, মাংস রান্না করার আগে চর্বিযুক্ত অংশগুলো ফেলে দেওয়া উচিত৷ মাংস রান্নার সময় অতিরিক্ত তেল বা ঘি ব্যবহার না করাই ভালো৷ কোরবানির সময় মাংসটাই মেইন মিল হিসেবে না খেয়ে সঙ্গে যদি শাকসবজি, দানাদার খাবার, বিভিন্ন ধরনের স্যালাড খাই, তাহলে কিন্তু মাংসের পরিমাণ কম হয়ে যায়৷ 

আরও পড়ুন: Avian flu: ভারতে বার্ড ফ্লু নিয়ে ভয় কতটা? দুশ্চিন্তার কারণ আছে কি? বলে দিলেন চিকিৎসকরা

এছাড়া আঁশযুক্ত খাবার অতিরিক্ত খাওয়া উচিত৷ কারণ এই সময় দেখা যায় অতিভোজনে কোষ্ঠকাঠিন্য, গ্যাসট্রিক সমস্যা, ডায়েরিয়া অনেক ধরনের সমস্যা হতে পারে৷ যাঁদের স্বাস্থ্যগত সমস্যা আছে, তাঁদের আরও বেশি সতর্ক থাকতে হবে৷ ইদের আগে তাদের বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে আলাপ করে নিতে হবে৷ যেহেতু রেড মিট হৃদরোগ, স্ট্রোক, আর্থ্রাইটিসের ঝুঁকি বাড়ায়- সেজন্য আমাদের অনেক বেশি সতর্ক থাকতে হবে৷

(বিশেষ দ্রষ্টব্য : প্রতিবেদনটি ডয়চে ভেলে থেকে নেওয়া হয়েছে। সেই প্রতিবেদনই তুলে ধরা হয়েছে। হিন্দুস্তান টাইমস বাংলার কোনও প্রতিনিধি এই প্রতিবেদন লেখেননি।)

টুকিটাকি খবর

Latest News

যদি প্রথমবার শ্রাবণ সোমবারের উপবাস করেন, তাহলে জেনে নিন কী খাবেন আর কী খাবেন না প্রস্তুতি সেরে রাখল বিধানসভা, রাত পোহালেই চার বিধায়কের শপথ হতে চলেছে রানাঘাটের কাছে বেলাইন হল মালগাড়ি, ফের দুর্ঘটনা ট্রেন পথে সোম থেকে দক্ষিণবঙ্গে বাউন্ডারি হাঁকানোর মেজাজে বর্ষা!বৃষ্টি হতে পারে কোথায় কোথায় 'গরীব থাকুন, লোভ করার দরকার নেই...' ২১ শের মঞ্চ থেকে কড়া বার্তা মমতার রাজ্যের এক্তিয়ারই নেই! বাংলাদেশিদের আশ্রয় নিয়ে মমতার কথায় পাত্তা দিল না কেন্দ্র হার্দিকের সঙ্গে প্রেমচর্চা তুঙ্গে! কার ছবি খোদাই করা ব্রেসলেট অনন্যার হাতে? ‘ঘরে ঘরে গিয়ে বলবেন আমাদের ক্ষমা করবেন...’২১ শের মঞ্চ থেকে মমতার বার্তা Champions Trophy-এর ঠিক নেই,ভারতের সঙ্গে T20I সিরিজ খেলার খোয়াব দেখছে পাকিস্তান 'উদ্ধব ঠাকরে ঔরঙ্গজেব ফ্যান ক্লাবের নেতা', খোঁচা দিলেন অমিত শাহ

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.