বাংলা নিউজ > টুকিটাকি > Foods for Dengue Patient: ডেঙ্গিতে থেকে তাড়াতাড়ি সেরে উঠতে কী কী খাবেন? দেখে নিন তালিকা

Foods for Dengue Patient: ডেঙ্গিতে থেকে তাড়াতাড়ি সেরে উঠতে কী কী খাবেন? দেখে নিন তালিকা

দুগ্ধজাত খাবার ডেঙ্গির সময় জরুরি (iStock)

Dengue foods diet: সামান্য কয়েকটি খাবার ডায়েটে রাখলেই ডেঙ্গি দ্রুত সেরে যেতে পারে। দেখে নিন এই সময়ে কোন কোন খাবার খাওয়া উচিত। আর কোন কোন খাবার এড়িয়ে চলা ভালো।

সম্প্রতি ডেঙ্গিতে জেরবার কলকাতা ও পশ্চিমবঙ্গ। সংক্রমণের সংখ্যা ছাড়িয়ে গিয়েছে প্রায় ৪০০০০। বেশ কয়েকজনের মৃত্যুও হয়েছে। সরকারের তরফে ডেঙ্গি প্রতিরোধে নেওয়া হচ্ছে নানা পদক্ষেপ। বাড়ির চারপাশে জল জমতে না দিলে এই রোগ সহজে ঠেকানো যেতে পারে। এছাড়া মশার কামড় এড়াতে ঠিকঠাক ব্যবস্থা নিলে ডেঙ্গির কবল থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।

প্রচন্ড জ্বর ও ঠান্ডা লাগা ডেঙ্গির উপসর্গ। ডেঙ্গিতে আক্রান্ত হলে শরীরে রক্তে প্লেটলেটের সংখ্যা অনেকটাই কমে যায়। প্লেটলেট কোনও কাঁটাছেড়া স্থান থেকে রক্তক্ষরণ আটকাতে সাহায্য করে। এছাড়াও শরীরে জলের পরিমাণ কমে যায়। ক্লান্তিভাব দেখা দেয় সারা শরীরে। ওষুধের পাশাপাশি সঠিক ডায়েট এই সময় রোগীর জন্য একান্ত প্রয়োজন।

বিশেষজ্ঞদের মতে, এই সময় ডায়েটে প্রোটিন, প্রোবায়োটিক ও আয়রনযুক্ত খাবার থাকা জরুরি।

  • দুধ, দই ও দুগ্ধজাত খাবার প্রোবায়োটিকসের সমৃদ্ধ উৎস। দইয়ে থাকা ল্যাকটোব্যাসিলাস নামক ব্যাকটেরিয়া আমাদের অন্ত্রের উপকার করে। ডেঙ্গিতে আক্রান্ত হলে দুগ্ধজাত খাবার শরীরে পটাশিয়াম, ফসফরাস ও সোডিয়ামের পরিমাণ ঠিক রাখতে সাহায্য করে।
  • প্রোটিনজাতীয় খাবার তাড়াতাড়ি রোগ সারাতে মুখ্য ভূমিকা নেয়। তাই এই সময় খাবারে মাছ, মাংস, ডাল, ডিম, বাদাম ইত্যাদি থাকা একান্ত জরুরি।
  • প্লেটলেটের সংখ্যা বাড়ানোর জন্য সবচেয়ে পরিচিত হল পেঁপেঁপাতার রস। তেতো লাগলেও এই রস ডেঙ্গির মোকাবিলায় ভীষণ উপকারী।
  • জ্বরে আক্রান্ত রোগীর ক্ষেত্রে তরল খাবার খাওয়া তুলনায় সহজ। তাই এই সময় শক্ত খাবারের পরিবর্তে তরল খাবার যেমন মাংসের স্যুপ,দইয়ের লস্যি ইত্যাদি খাওয়ানো উচিত। এক্ষেত্রে খাবার দু-আড়াই ঘন্টা অন্তর পরিবেশন করা ভালো।
  • সবুজ শাকসবজি ভিটামিন কে ও আই-এর সমৃদ্ধ উৎস। এই দুটি ভিটামিনই রক্ত জমাট বাঁধার জন্য প্রয়োজনীয় ভিটামিন। পার্সলে পাতা, পালং শাক, পুদিনা, বাধাকপি, শতমূলী ইত্যাদি রক্তে প্লেটলেটের সংখ্যা বাড়াতে সাহায্য করে।
  • ভিটামিন সি ও ফোলেটও প্লেটলেটের সংখ্যা বাড়াতে সাহায্য করে। কমলালেবু, পাতিলেবু, জলপাই, আনারস, বেরি ও কিউই ফল এই ভিটামিনের সমৃদ্ধ উৎস।
  • ডেঙ্গিতে আক্রান্ত হলে চিকিৎসক কুমড়ো খাওয়ার পরামর্শ দেন। কুমড়ো ভিটামিন এ-এর সমৃদ্ধ উৎস যা রক্ত জমাট বাঁধতে সাহায্য করে।
  • ডায়েটে যেমন কিছু খাবার না রাখলে নয়, তেমনই কিছু খাবার এই সময় এড়িয়ে চলার পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা।
  • মশলাদার ও বেশি তেলযুক্ত খাবার এই সময় না খাওয়াই ভালো।
  • সফট ড্রিঙ্কস্ , উচ্চ ফ্যাটযুক্ত খাবারও এই সময় এড়িয়ে চলা দরকার।

 

 

বন্ধ করুন