বাংলা নিউজ > টুকিটাকি > Easy Home Remedies for Piles: শীতে বাড়তে পারে অর্শের সমস্যা, কমাবেন কী করে

ভারতের বহু মানুষেরই অর্শের সমস্যা রয়েছে। কারও ক্ষেত্রে সমস্যাটি মারাত্মক। কারও ক্ষেত্রে বিষয়টি অতটাও কষ্টদায়ক নয়। খাবারে ফাইবারের অভাব, শরীর শুকিয়ে যাওয়ার মতো কারণে সহজেই এই সমস্যা দেখা দেয়। এই সমস্যা আরও বাড়তে পারে শীতকালে।

সমস্যা বাড়াবাড়ি জায়গা গেলে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে। কিন্তু তার আগে কয়েকটি বিষয়ে সচেতন হলে এই সমস্যা কিছুটা নিয়ন্ত্রণ করা যায়।

কীভাবে পাইলস বা অর্শের সমস্যা কমাবেন? রইল কয়েকটি সহজ রাস্তার সন্ধান।

  • খাবারে ফাইবারের পরিমাণ বাড়ান: অর্শের অন্যতম কারণ খাবারে ফাইবার জাতীয় উপাদানের অভাব। এই সমস্যা কমাতে যত বেশি সম্ভব ফাইবার-সমৃদ্ধ খাবার খান। ফল-সবজি খান বেশি করে। জলও খান পর্যাপ্ত।
  • নিয়মিত শরীরচর্চা: অর্শের সমস্যা কমানোর সবচেয়ে ভালো রাস্তা। এমনটাই বলেন চিকিৎসকরা। নিয়মিত শরীরচর্চা বা এক্সারসাইজ করলে শরীরে রক্ত চলাচল বাড়ে। পেশি নমনীয়তা বাড়ে। শরীরে জলের পরিমাণও বাড়ে। তাতে অর্শের সমস্যা কমে। দেখা গিয়েছে, নিয়মিত শরীরচর্চা করলে এই সমস্যা প্রায় ৭০ শতাংশ পর্যন্ত কমে যেতে পারে।
  • মল চেপে না রাখা: পেটে চাপ পড়েছে? মল চেপে বসে থাকবেন না। তাতে কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা বাড়তে পারে। তাতেই বেড়ে যাবে অর্শের সমস্যাও। পেটে চাপ পড়ার সঙ্গে সঙ্গে বাথরুমে যান। অর্শের কষ্ট কমবে।
  • পা উঁচু করে বসা: মলত্যাগ করার সময়ে যদি ওয়েস্টার্ন টয়লেট ব্যবহার করেন, তাহলে পায়ের নীচে ছোট টুল রাখুন। চিকিৎসকরা বলেন ওয়েস্টার্ন টয়লেটের কমোড অর্শের সমস্যা বাড়িয়ে দেয়। তুলনায় অনেক নিরাপদ ইন্ডিয়ান টয়লেট। যদি ওয়েস্টার্ন টয়লেটই ব্যবহার করতে হয়, তাহলে পায়ের পাতার নীচে টুল রাখলে হাঁটু দুটো উঁচু হয়ে যায়। তাতে মলদ্বারে কম চাপ পড়ে। অর্শের সমস্যা কমে।
  • গরম জলের সেঁক: হাল্কা উষ্ণ জল গামলায় অল্প পরিমাণে নিয়ে এর মধ্যে বসুন। তাতে মলদ্বারে রক্ত চলাচল বাড়বে। ব্যথা কমবে। অর্শের সমস্যাও অনেক খানি কমে যেতে পারে এর ফলে।

বন্ধ করুন