বাংলা নিউজ > টুকিটাকি > Dry Skin Remedies: অকারণেই হাত-পায়ের ত্বক, ঠোঁট শুষ্ক হয়ে যাচ্ছে? কী করে কমাবেন এই সমস্যা
শুষ্ক ত্বকের সমস্যা কমাবেন কী করে?

Dry Skin Remedies: অকারণেই হাত-পায়ের ত্বক, ঠোঁট শুষ্ক হয়ে যাচ্ছে? কী করে কমাবেন এই সমস্যা

  • বয়স বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে অনেকের শুষ্ক ত্বকের সমস্যা বাড়ে। এই সমস্যা কমাবেন কী করে?

বয়স বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে আপনার ত্বক ক্রমশ আর্দ্রতা হারাবে। তাই বিশেষ যত্নআত্তি না পেলেই দেখা দেবে শুষ্কতা ও বলিরেখা। বয়সের আগেই ত্বকে ভাঁজ পড়বে, তা কুঁচকে যেতেও পারে।ত্বকের শুষ্কতা খুবই ভোগাবে।শুষ্কত্বকেরতাই যত্ন নেওয়াপ্রয়োজন।

কিছু ঘরোয়া পদ্ধতিতে আপনি শুষ্কত্বকেরযত্ন নিতেপারেন।এবংবাড়িতেই অনায়াসেমিলবেএমনকিছুউপকরণ,যা দিয়েহবে আপনারচিন্তাদূর।

  • অ্যালো ভেরা: একটি অ্যালো ভেরা পাতা নিন, মাঝখান থেকে কেটে ফেলুন সেটিকে। শাঁসটা বের করে নিয়ে ত্বকে লাগিয়ে নিন। ত্বকের রুক্ষতা, জ্বালাভাব মুহূর্তে কমে যাবে। সেরে যায় ছোটখাটো ইনফেকশনও। আর ত্বকের আর্দ্রতা ধরে রাখতে সাহায্য করার পাশাপাশি আপনার ত্বককে দূষণ থেকেও রক্ষা করবে।
  • অলিভ অয়েল: শুষ্ক ত্বকের মোকাবিলা করতে চাইলে সবচেয়ে বড় অস্ত্র হল অলিভ অয়েল। অল্প অলিভ অয়েল মুখে লাগান। তার পরে একটা ভেজা গরম তোয়ালে মুখে আলতো করে লাগান। বাড়তি তেল মুছে নিন। অলিভ অয়েল শুধু যে ত্বকে আর্দ্রতা জোগায় তা নয়, এটি প্রাকৃতিক ক্লেনজারেরও কাজ করে।
  • নারকেল তেল:মুখ ও শরীরের ত্বকের পাশাপাশি গোড়ালি, হাঁটু, কনুইয়েরও বিশেষ খেয়াল রাখা প্রয়োজন। বিশেষ করে শীতকালে। না হলে এগুলি রুক্ষ ও কালো হয়ে যায়। প্রথমে এই অংশের ত্বক ভিজিয়ে রাখুন জলে।তারপর নারকেল তেলের মোটা প্রলেপ লাগিয়ে নিন আর্দ্র ত্বকে। লম্বা হাতা টপ বা পাজামা পরে ঘুমোতে যান। শুতে যাওয়ার আগে ফাটা ঠোঁটেও নারকেল তেল লাগাতে পারেন। টানা বেশ কয়েক দিন করলে নিজেই তফাৎ বুঝতে পারবেন।
  • দুধ/ দই: রুক্ষ, শুষ্ক, ফাটা ত্বকে অনেক সময়েই জ্বালা বা চুলকানির মতো সমস্যাও দেখা যায়। তেমন হলেকিছুটাঠান্ডা দই বা দুধে নরম কাপড় বা তুলো ভিজিয়েনিয়ে সর্বাঙ্গে লাগান। অন্ততপাঁচ থেকে সাত মিনিট এই প্রলেপটি ব্যবহার করুন। তাতে ত্বকের জ্বালাভাব দূর হবেও ত্বক আর্দ্রতা পাবে। দই বা দুধে উপস্থিত ল্যাকটিক অ্যাসিডের প্রভাবে ঝলমলিয়ে উঠবে আপনার ত্বক। কাঁচা দুধের সঙ্গে মধুওহলুদমিশিয়েনিতে পারেন।তার পর সেটি আপনার গোটা শরীরে লাগিয়ে নিন স্নানেরআগে।তার কিছুক্ষণপর স্নান করে নিন।আপনারত্বক নরমও উজ্জ্বলহয়ে উঠবে।

বন্ধ করুন