বাংলা নিউজ > টুকিটাকি > শারীরিক সম্পর্কের সময় নারকেল তেল ব্যবহার করা কি নিরাপদ? আসুন জেনে নেওয়া যাক
শারীরিক সম্পর্কের সময় নারকেল তেল ব্যবহার করা কি নিরাপদ?
শারীরিক সম্পর্কের সময় নারকেল তেল ব্যবহার করা কি নিরাপদ?

শারীরিক সম্পর্কের সময় নারকেল তেল ব্যবহার করা কি নিরাপদ? আসুন জেনে নেওয়া যাক

  • বেশ কিছু সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে মহিলারা শারীরিক সম্পর্কের সময় ব্যথা পান। তাঁদের ক্ষেত্রে নারকেল তেলের ব্যবহার আদৌ কি উচিত?

প্রতিটা ঘরেই নারকেল তেল সারা বছর মজুত থাকে। শুধু রান্না করায় নয়, চুল স্বাস্থ্যোজ্জ্বল রাখতে ও শরীরে ময়েশ্চারাইজারের বদলেও আমরা নারকেল তেল ব্যবহার করে থাকি। এছাড়া দাঁত ভালো রাখতেও অয়েল পুলিংয়ের পরামর্শ দিয়ে থাকেন দন্ত চিকিৎসকরা। কিন্তু জানেন কি, শারীরিক সম্পর্কের সময়তেও আপনারা নারকেল তেল ব্যবহার করতে পারেন। এটি আপনাকে শারীরিক সম্পর্কের চরমে পৌঁছতে এবং যৌনআনন্দ উপভোগ করতে সাহায্য করে। বেশ কিছু বৈজ্ঞানিক পরীক্ষাতেও একথা প্রমাণিত হয়েছে। 

২০১৫ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের একটি গবেষণা অনুসারে, ৩০ শতাংশ নারী শারীরিক সম্পর্কের সময় ব্যথা পান। তাঁরা জানিয়েছেন এই সময় নারকেল তেলের ব্যবহার শুধু যে ভ্যাজাইনার শুষ্কতা প্রতিরোধ করে তাই না, সঙ্গে সংবেদনশীলতা ও উত্তেজনা বাড়ায়। অন্যদিকে, গুজরাটের ইন্টারন্যাশনাল জার্নাল অফ লাইফ সায়েন্স রিসার্চের এক গবেষণা অনুসারে নারকেল তেল ময়েশ্চারাইজার হিসাবে নিরাপদ ও কার্যকর। এবং ব্যবহারের গোপনাঙ্গে জন্য ক্লিনিকালি প্রমাণিত। এটির ব্যবহারের ফলে শারীরিক সম্পর্ক দীর্ঘস্থায়ী হয়। দেখে নিন কোন কোন সময় নারকেল তেল কাজে আসে--

মেনোপজের পর যোনির আশেপাশের ফ্যাটি টিস্যুগুলো সাধারণত শুষ্ক হয়ে পড়ে। তাই শারীরিক সম্পর্কের সময় অনেক মহিলাই ব্যথা পান। এক্ষেত্রে নারকেল তেল ব্যবহার করতে পারেন। 

অনেকেই বাজারে প্রচারিত লুব্রিকেন্ট ব্যবহার করতে পারে না, ত্বকে অ্যালার্জি বা সংবেদনশীলতার কারণে। তাঁদের ক্ষেত্রেও নারকেত তেল বেশ উপকারী। তবে, নারকেল তেল কেনার সময় তা যাতে খাঁটি হয় সেদিকে খেয়াল রাখুন। এক্সট্রা ভারজিন কোকোনাট অয়েল ব্যবহার করতে পারলে সবচেয়ে ভালো।

বন্ধ করুন