বাংলা নিউজ > টুকিটাকি > National Flag: স্বাধীনতা দিবসে জাতীয় পতাকা তো তুলবেন, কিন্তু এটি ভাঁজ করার নিয়ম জানেন কি
সঠিক পদ্ধতি জানেন জাতীয় পতাকা রাখার? (ফাইল ছবি)

National Flag: স্বাধীনতা দিবসে জাতীয় পতাকা তো তুলবেন, কিন্তু এটি ভাঁজ করার নিয়ম জানেন কি

  • অনেকের বাড়িতেই জাতীয় পতাকা থাকে। কিন্তু সবাই কি সঠিক পদ্ধতি জানেন এই পতাকা রাখার? না জানলে, জাতীয় পতাকার প্রতি সম্মান দেখানো হয় না। তাই জেনে নিন, সেই নিয়ম।

আর কিছুদিন বাকি, তারপরেই গোটা দেশ জুড়ে সাড়ম্বরে পালিত হবে স্বাধীনতা দিবস। এবার দেশের স্বাধীনতার ৭৫ বছর পূর্ণ হচ্ছে। তাই এই দিনটি বিশেষভাবে পালন করা হবে। আর সেই উপলক্ষ্যে ইতিমধ্যেই কেন্দ্রীয় সরকার একাধিক অনুষ্ঠানসূচি শুরু করে দিয়েছে। ‘আজাদি কা অমৃত মহোৎসব’-এর একটি বিশেষ অনুষ্ঠান হচ্ছে ‘হর ঘর তেরঙা’ অভিযান। সেখানে সবাইকে জাতীয় পতাকাকে সম্মান জানিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ার প্রোফাইল পিকচার অথবা ঘরে লাগিয়ে ছবি তুলতে বলা হচ্ছে।

কিন্তু এই যে ঘরে জাতীয় পতাকা রাখা হয় সেটা কি আমরা সঠিক উপায়ে রাখি? যথাযথ সম্মান দিয়েই কি বাড়িতে জাতীয় পতাকা রাখেন সকল দেশবাসী? অনেকে জানেনই না, কী করে জাতীয় পতাকা ভাঁজ করতে হয়, বা কী করে সেটা রাখতে হয়।

তাই এবার কেন্দ্রীয় সরকারের পক্ষ থেকে যে ‘হর ঘর তেরঙা’ অভিযান চালু করা হয়েছে, সেখানে শেখানো হল কী করে জাতীয় পতাকা ভাঁজ করা উচিত এবং রাখা উচিত। আসুন দেখে নেওয়া যাক সেই ধাপগুলি।

  • প্রথমে পতাকাটি অনুভূমিক এবং সমান কোনও জায়গায় রাখুন।
  • তারপর গেরুয়া এবং সবুজ অংশটিকে ভাঁজ করে সাদার নীচে ঢুকিয়ে দিন।
  • এরপর বাকি অংশটাকে এমন করে ভাঁজ করুন যাতে, অশোক চক্রটি সম্পূর্ণ ভাবে দেখা যায়।
  • তারপর হাতে তুলে নিন এই ভাঁজ করা পতাকাটিকে। 
  • এরপর যথাস্থানে এটাকে তুলে রাখুন সসম্মানে।

অনেকের বাড়িতেই জাতীয় পতাকা রাখা থাকে। কিন্তু সঠিক উপায়ে নয়। এখন যখন জেনে গেলেন, তখন পূর্ণ সম্মান দিয়ে সঠিক ভাবে ভাঁজ করে রাখবেন।

‘হর ঘর তেরঙা’ অভিযান শুরু করার পর মঙ্গলবার ২ অগস্ট, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী দেশবাসীকে আহ্বান জানায় এই অভিযানে সামিল হতে। তারপর তিনি নিজেই তাঁর সমস্ত সোশ্যাল মিডিয়া প্রোফাইলে ডিসপ্লে পিকচার বদলে জাতীয় পতাকার ছবি রাখেন। তাঁকে দেখে অমিত শাহ থেকে শুরু করে একাধিক বিজেপি নেতা এবং মন্ত্রীরা তাঁদের প্রোফাইল পিকচারে জাতীয় পতাকার ছবি রেখেছেন। শুধু নেতা মন্ত্রীরা নন, সাধারণ মানুষও এই উদ্যোগে অংশ নিয়েছেন।

বন্ধ করুন