বাংলা নিউজ > টুকিটাকি > Viral: ‘হক থু করে থুতু ফেলুন’, মজার প্রশ্নে অদ্ভুত উত্তর শিক্ষিকার! স্কুলের চাকরিটা কি তাহলে গেল? ভাইরাল ভিডিয়ো

Viral: ‘হক থু করে থুতু ফেলুন’, মজার প্রশ্নে অদ্ভুত উত্তর শিক্ষিকার! স্কুলের চাকরিটা কি তাহলে গেল? ভাইরাল ভিডিয়ো

বিছানায় মজার প্রশ্নে অদ্ভুত উত্তর শিক্ষিকার (Hindustan Times)

Viral: রিপোর্ট অনুযায়ী, জেডি মোটরস্পোর্টস, এনএএসসিএআর এক্সফিনিটি সিরিজ টিম, 'হক থু' মিম ব্যবহার করার জন্য তার সোশ্যাল মিডিয়া ম্যানেজারকে বরখাস্ত করেছে।

নাম তাঁর হেইলি ওয়েলচ। পেশাগতভাবে নাকি শিক্ষিকা। পড়ান প্রাক-বিদ্যালয়ে। তাঁর মুখে এমন ভাষা, আশাই করতে পারছেন না নেটিজেনরা। কেউ কেউ আবার প্রশংসাও করছেন। সম্প্রতি, হেইলির একটি ভিডিয়ো ভাইরাল হওয়ার পর থেকে রীতিমত শোরগোল পড়ে গিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

শিক্ষিকার চাকরি খোয়ালেন নাকি

ভিডিয়োটি ভাইরাল হওয়ার পর একটি মিম পেজ জাল দাবি করেছিল যে মেয়েটিকে স্কুল থেকে বিতাড়িত করা হয়েছে। জর স্কুলে তিনি কোন করেন, সেই স্কুলের একটি হাস্যকর নামও দিয়েছিল পেজটি, 'এপস্টাইন ডে স্কুল'। লিখেছিল, আমরা বাচ্চারা একে অপরের উপর এবং অন্য সব কিছুর উপর থুথু ফেলেছি, যেহেতু প্রিয় মিস হেইলি হক থু করে থুতু ফেলতে বলেছেন। কিন্তু চাকরি হারানোর এই দাবিকে ভুয়ো বলে জানানো হয়েছে যে, মেয়েটিকে আসলে তাঁর চাকরি থেকে বরখাস্ত করা হয়নি, বরং অন্য কাউকে সেই মেম ব্যবহার করার জন্য কাজ করে বের করে দেওয়া হয়েছে।

রিপোর্ট অনুযায়ী, জেডি মোটরস্পোর্টস, এনএএসসিএআর এক্সফিনিটি সিরিজ টিম, 'হক থু' মিম ব্যবহার করার জন্য তার সোশ্যাল মিডিয়া ম্যানেজারকে বরখাস্ত করেছে। মিমটি যদিও অবিলম্বে সরিয়ে নেওয়া হয়েছিল। ডোরম্যান (@RDorman19) একটি পোস্টে দাবি করেছেন যে তাঁকে জেডি সোশ্যাল থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে এবং মেমটি মুছতে হয়েছে।

আরও পড়ুন: (Bangla Jokes Collection: হাসতে হাসতে কাটিয়ে ফেলুন সব চাপ! সকাল সকাল পড়ুন দিনের সেরা ৫ জোকস, থাকুন মজায়)

আসল ঘটনাটা কী

মেয়েটি হলেন হেইলি ওয়েলচ, ন্যাশভিলের বাসিন্দা। ভাইরাল হয়েছিলেন কয়েকদিন আগেই। তিনিই থুতু ফেলার কথা বলেছিলেন। হেইলির ভাইরাল হওয়া ভিডিয়োতেই দেখা গিয়েছিল, বন্ধুদের সঙ্গে রাতের রাস্তায় পার্টি করছিলেন তিনি। এমন সময়, একজন ইন্টারভিউআর তাঁকে জিজ্ঞাসা করেছিলেন, বিছানায় এমন একটি কৌশল বলুন, যা ছেলেদের প্রতিবার পাগল করে দেয়, এরপর মহিলা নিজের দক্ষিণী উচ্চারণে উত্তর দিয়েছিলেন, হক থু করে থুতু দিয়ে দেখুন। স্বাভাবিকভাবেই, ভিডিয়োটি শেয়ার হওয়ার পর থেকে লাফিয়ে ভাইরাল হয়েছে।

একজন টিকটোকার লিখেছেন, আমি আশা করছিলাম যে আমিই একমাত্র তাঁর প্রেমে পড়েছি কিন্তু আমার মনে হয় পুরো বিশ্বই পড়েছে। যেহেতু মেয়েটি হক থু গার্ল হিসাবে কয়েক সপ্তাহ ধরে শীর্ষস্থানীয় গুগল সার্চে স্থান পেয়েছে, অনেকেই হক থু গার্ল পণ্যদ্রব্যও বিক্রি করতে শুরু করেছেন৷ একজন ব্যক্তি এমনকি ট্যাটুও করেছিলেন।

টুকিটাকি খবর

Latest News

সুপ্রিম কোর্টের নির্দের পরই শহর ও সেন্টার ধরে ধরে NEET UG-র ফল প্রকাশ NTA-র কৃষ্ণনগরে মাছ ব্যবসায়ীরকে গুলি করে টাকা ছিনতাই, ধৃত তৃণমূল ছাত্র পরিষদ নেতাসহ ২ হাতে জয়ন্তর ট্যাটু! আড়িয়াদহকাণ্ডে গ্রেফতার আরেক কালপ্রিট রাহুল গুপ্ত 'সাহস থাকলে…' হাসিনের সঙ্গে সুখের হয়নি বিয়ে, সানিয়াকে সত্যিই বিয়ে করছেন শামি প্রথমেই সূর্যের কথা বলেননি গম্ভীর, হার্দিক ক্যাপ্টেন না হওয়ার কারণ একেবারেই অন্য ‘তোর বাপ আমি ***’, ‘চোর’ শুনে বললেন শুভেন্দু, জুতো দেখিয়ে বললেন ‘নোংরা কালচার’ ভিকি-তৃপ্তির নতুন ছবি ‘ব্যাড নিউজ’-এর সঙ্গে বিশেষ যোগ সুস্মিতা সেনের! কী বলুন তো জেনে নিন শ্রাবণ মাসে ভোলেনাথের আশীর্বাদ পেতে কী করবেন আর কী করবেন না শক্তি বাড়াল নিম্নচাপ, দক্ষিণবঙ্গের কোথায় কবে ভারী বৃষ্টি হতে চলেছে? শীর্ষ নেতৃত্বের শিলমোহর নিয়ে বসেছিলেন মসনদে, কালনার সেই পুরপ্রধানকে শোকজ করল TMC

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.