বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > তিরুপতি দর্শনে জানুয়ারিতেই ৪.৬ লাখ 'স্লট' বুক, সেবা টিকিটের দাম 'কোটি'-এর ঘরে
 তিরুপতিতে সেবা টিকিটের দাম কোটির অঙ্কে পৌঁছল। 
 তিরুপতিতে সেবা টিকিটের দাম কোটির অঙ্কে পৌঁছল। 

তিরুপতি দর্শনে জানুয়ারিতেই ৪.৬ লাখ 'স্লট' বুক, সেবা টিকিটের দাম 'কোটি'-এর ঘরে

  • শুক্রবার বাদ দিয়ে সপ্তাহের বাকি দিনে সেবা টিকিটের দাম ১ কোটি টাকা  ধার্য হয়েছে। শুক্রবারের টিকিটের দাম ১.৫ কোটি টাকা।

অন্ধ্রপ্রদেশের তিরুমালা তিরুপতি দেবস্থানম দর্শনের জন্য জানুয়ারি মাসের 'স্লট' বুক করার প্রক্রিয়া চালু করেছে মন্দির কর্তৃপক্ষ। শুক্রবার এই টিকিট বুকিং করার জন্য স্লট-গুলি সাধরাণ মানুষের জন্য খুলে দেওয়া হয়। দেখা গিয়েছে, এই স্লট খুলতেই তা হু হু করে বিক্রি হতে থাকে অনলাইনে। টিকিট বুকিং এর জেরে তিরুপতি তিরুমালা কর্তৃপক্ষের ওয়েবসাইটে ১৪ লাখ 'হিট' এসেছে বলেও খবর।

জানা গিয়েছে, জানুয়ারি মাসের জন্য তিরুমালা তিরুপতি দেবস্থানম কর্তৃপক্ষ ৪ লাখ ৬০ হাজার টিকিট অনলাইনে আনে। কর্তৃপক্ষের দাবি, মাত্র ৫৫ মিনিটের মাথায় সেই স্লটের টিকিটগুলি বিক্রি হয়ে যায়। জানুয়ারি মাসে তিরুপতিতে বিশেষ প্রবেশাধিকার সম্পর্কিত যে কোটা তা সম্পূর্ণ রূপে বুকিং হয়ে গিয়েছে। ফলে সেক্ষেত্রে কোনও স্লট আর পড়ে নেই বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ। অনলাইন ও অফলাইন দুই ঘরানাতেই এই টিকিট বিক্রির কাজ শুরু হতেই তা নিমেষে শেষ হয়ে যায়। জানুয়ারির প্রথম দিনের জন্য ২০ হাজার টিকিটের বন্দোবস্ত করে মন্দির কর্তৃপক্ষ। তবে তা বিক্রি শুরু হতেই চোখের নিমেষে শেষ হয়ে যায়। প্রসঙ্গত, তিরুমালাতে শ্রী ভেঙ্কটেশ্বর দর্শনের যাবতীয় ভার বহন করে 'তিরুমালা তিরুপতি দেবস্থানম' কর্তৃপক্ষ। কোভিড পরিস্থিতিতে এই দর্শনীয় স্থানে প্রবেশ করতে গেলে পূণ্যার্থীদের ভ্যাকসিন সার্টিফিকেট প্রয়োজন বলে জানিয়েছে বোর্ড। এছাড়াও যাঁরা ভ্যাকসিনেটেড নন, তাঁদের আরটিপিসিআর টেস্টের রিপোর্ট নিয়ে মন্দিরে প্রবেশের কথা বলা হয়েছে।

উল্লেখ্য়, এই দেবভূমির 'সেবা' টিকিটও অনলাইন বা অফলাইনে বিক্রি হতে শুরু করেছে। শুক্রবার বাদ দিয়ে সপ্তাহের বাকি দিনে এই টিকিটের দাম ১ কোটি টাকা হয়েছে। শুক্রবারের জন্য এই সেবা টিকিটের দাম ধার্য করা হয়েছে ১.৫০ কোটি টাকা। জানা যাচ্ছে, তিরুপতির 'উদয়াস্থামনা সেবা' থেকে ফান্ড তৈরির পরিকল্পনায় রয়েছে কর্তৃপক্ষ। এই ফান্ড থেকে মন্দিরে তিনটি বড়সড় প্রজেক্ট হওয়ার কথা জানা যাচ্ছে। তারমধ্যে অন্যতম হল শিশুদের জন্য সুপার স্পেশ্যালিটি হাসপাতাল। সেবা টিকিট বিক্রি থেকে প্রাপ্ত আয়ের হাত ধরে ৬০০ কোটি টাকার ফান্ড তৈরির পথে হাঁটতে চাইছে তিরুপতি কর্তৃপক্ষ।

বন্ধ করুন