বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Students arrested for Pak Zindabad Slogan: মজাচ্ছলে ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’ স্লোগান তুলে ধৃত ৩ পড়ুয়া, শোরগোল বেঙ্গালুরুতে

Students arrested for Pak Zindabad Slogan: মজাচ্ছলে ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’ স্লোগান তুলে ধৃত ৩ পড়ুয়া, শোরগোল বেঙ্গালুরুতে

মজাচ্ছলেই ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’ স্লোগান তুলেছিল বেঙ্গালুরুর কলেজের তিন পড়ুয়া।

অভিযুক্তরা ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’ স্লোগান তোলার পরই তাদের দিয়ে ‘জয় হিন্দ’ এবং ‘জয় কর্ণাটক মাতে’ স্লোগান তোলানো হয়।

মজাচ্ছলেই নাকি ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’ স্লোগান তুলেছিল তিন নাবালক ইঞ্জিনিয়ারিং পড়ুয়া। এর জেরে বেঙ্গালুরুর কলেজ কর্তৃপক্ষ তাদের সাসপেন্ড করল। এদিকে পুলিশও তাদের গ্রেফাতর করেছিল। যদিও বর্তমানে তিনজনই জামিনে মুক্ত। পুলিশের কাছে অভিযুক্তরা দাবি করেন, মজাচ্ছলে ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’ স্লোগান তুলেছিলেন তারা। পুলিশেরও দাবি, এর সঙ্গে আন্তর্জাতিক যোগ নেই। তবে অভিযুক্ত পড়ুয়াদের অভিভাবকদের জবাবদিহি করতে বলা হয়েছ ঘটনার প্রেক্ষিতে।

জানা গিয়েছে, অভিযুক্ত পড়ুয়াদের নাম - আরিয়ান, দিনাকর এবং রিয়া। তাদের বয়স ১৭ থেকে ১৮ বছরের মধ্যে। ঘটনাটি ঘটে বেঙ্গালুরুর নিউ হরিজন কলেজ অফ ইঞ্জিনিয়ারিং। কলেজের বাৎসরিক অনুষ্ঠানের জন্য অনুশীল চলছিল। তখন বিভিন্ন পড়ুয়া নিজেদের পছন্দের আইপিএল দলের জয়জকার করে স্লোগান তুলতে থাকেন। আচমকাই আরিয়ান, দিনাকর এবং রিয়া ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’ বলে ওঠে। সেই সময় গোটা ঘটনার ভিডিয়ো করছিলেন অন্য এক পড়ুয়া। ভিডিয়োটি মুহূর্তে ভাইরাল হয়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়। ভিডিয়োতে দেখা যায়, অভিযুক্তরা ‘পাকিস্তান জিন্দাবাদ’ স্লোগান তোলার পরই তাদের দিয়ে ‘জয় হিন্দ’ এবং ‘জয় কর্ণাটক মাতে’ স্লোগান তোলানো হয়।

এদিকে ভিডিয়ো ভাইরাল হতেই আরিয়ান, দিনাকর এবং রিয়াতে সাসপেন্ড করে নিউ হরিজন কলেজ কর্তৃপক্ষ। পড়ুয়াদের অভিভাবকদের হাতে নোটিশ ধরানো হয়। এদিকে অভিযুক্তদের পুলিশ গ্রেফতারও করে। পরে অবশ্য জামিনে মুক্তি পায় তিনজনই। তিন পড়ুয়া দাবি করেছে, মজা করেই এই স্লোগান তুলেছিলেন তারা। এর নেপথ্যে অন্য কোনও উদ্দেশ্য ছিল না তাদের। এদিকে পুলিশ জানিয়েছে, অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে একাধিক ধারায় মামলা রুজু করা হয়েছে। তবে পুলিশ মেনে নিয়েছে, এই ঘটনার সঙ্গে আন্তর্জাতিক জঙ্গি যোগ খুঁজে পাওয়া যায়নি প্রাথমিক তদন্তে। তবে ঘটনার প্রেক্ষিতে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানান পুলিশের উচ্চ পদস্থ এক কর্তা।

বন্ধ করুন