বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ভারতে গুদামেই নষ্ট হয়েছে ৪০৬ কোটি টাকার শস্য, রিপোর্ট সংসদীয় স্থায়ী কমিটির

ভারতে গুদামেই নষ্ট হয়েছে ৪০৬ কোটি টাকার শস্য, রিপোর্ট সংসদীয় স্থায়ী কমিটির

ছবি : টুইটার  (Twitter)

২০১৭ থেকে ২০২১ সালের মধ্যে প্রায় ১.৩৯ কোটি টাকার শস্য চুরি হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

স্রেফ গুদামে সঠিক সংরক্ষণ পরিকল্পনার অভাব। সেই কারণেই নষ্ট হয়েছে ভারত সরকারের প্রায় ৪০৬ কোটি টাকা মূল্যের শস্য। গত তিন বছরে সরকারি শস্যাগারগুলির পরিসংখ্যান এমনটাই বলছে। এ বিষয়ে উল্লেখ করা হয়েছে সংসদীয় স্থায়ী কমিটির রিপোর্টে।

শুধু তাই নয়। ২০১৭ থেকে ২০২১ সালের মধ্যে প্রায় ১.৩৯ কোটি টাকার শস্য চুরি হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। বিপুল পরিমাণে খাদ্যশস্য মজুত করার সময়ে তার কিছুটা হবে বলেই ধরে নেওয়া হয়। কিন্তু সংসদীয় প্রতিবেদনে উল্লেখ করা তথ্য অনুযায়ী, এই নষ্ট হওয়ার শস্যের পরিমাণ সরকারি লক্ষ্যমাত্রার তুলনায় অনেকটাই বেশি।

caloriecontrol.org- এর টুল ব্যবহার করে একটি প্রাথমিক হিসাব করেছে হিন্দুস্তান টাইমস। সেই অনুযায়ী দেখা যাচ্ছে, ৪০৬ কোটি টাকার শস্যে ভারতের প্রায় সাড়ে ৮ লক্ষ গৃহহীন মানুষকে তিন মাস ধরে রোজ এক বেলা পেটভরে খাবার (১,২০০ ক্যালোরি) দেওয়া যাবে। খাদ্য মন্ত্রক জানিয়েছে, খাদ্যশস্য সংরক্ষণের সময়ে বৈজ্ঞানিক আচরণবিধি অনুসরণ করা হয়। সমস্ত সতর্কতা অবলম্বন করা সত্ত্বেও, কিছু পরিমাণ খাদ্যশস্য ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে। এর বিভিন্ন কারণ থাকতে পারে। যেমন স্টোরেজে কীটপতঙ্গের আক্রমণ, গোডাউনে ফুটো, খারাপ মানের শস্য, শস্যাগারে বৃষ্টির জল প্রবেশ, বন্যা, নজরদারির গাফিলতি ইত্যাদি হতে পারে বলেই ধরে নেওয়া হয়,' উল্লেখ করা হয়েছে রিপোর্টে।

এই শস্যগুলি মূলক কৃষকদের থেকে ন্যূনতম দাম দিয়ে (MSP) কেনে সরকার। তারপর তা বন্টনের উদ্দেশ্যে সংরক্ষণ করা হয়।

বন্ধ করুন