বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Mahua Moitra Controversy: বিতর্কিত মন্তব্য নিয়ে নাম না করে মহুয়াকে আক্রমণ অভিষেক মনু সিংভির
অভিষেক মনু সিংভি। ছবি সৌজন্যে এএনআই।

Mahua Moitra Controversy: বিতর্কিত মন্তব্য নিয়ে নাম না করে মহুয়াকে আক্রমণ অভিষেক মনু সিংভির

  • এ বিষয়ে নির্দিষ্টভাবে কোনও দল বা ব্যক্তির নাম করেননি সিংভি। তিনি বলেন, ‘আমরা অন্য কোনও দল নিয়ে মন্তব্য করতে চাই না। তবে আমি মনে করি যে আমাদের বিশ্বাসের প্রতীক এবং সারমর্মে ভারসাম্য বজায় রাখতে হবে। এই ধরনের প্রতীক ও সংস্কৃতি বিশ্বাসে প্রতিফলিত হয়।’

বিতর্কিত পোস্টারকে কেন্দ্র করে তোলপাড় গোটা দেশ। তারই মধ্যে তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্রের মন্তব্যকে কেন্দ্র করে তৈরি হওয়া বিতর্ক যেন থামছেই না। এবার এনিয়ে নাম না করে কড়া সমালোচনা করলেন কংগ্রেস নেতা অভিষেক মনু সিংভি। তিনি বলেন, ‘ভারতীয় সংস্কৃতির হৃদয় এবং আত্মাকে এভাবে তুচ্ছ করার অধিকার কারও নেই। জনগণের আবেগ নিয়ে সবসময় সতর্ক থাকতে হবে।’

এ বিষয়ে নির্দিষ্টভাবে কোনও দল বা ব্যক্তির নাম করেননি সিংভি। তিনি বলেন, ‘আমরা অন্য কোনও দল নিয়ে মন্তব্য করতে চাই না। তবে আমি মনে করি যে আমাদের বিশ্বাসের প্রতীক এবং সারমর্মে ভারসাম্য বজায় রাখতে হবে। এই ধরনের প্রতীক ও সংস্কৃতি বিশ্বাসে প্রতিফলিত হয়।’ প্রসঙ্গত,গোটা দেশ যখন মহুয়া মৈত্রের সমালোচনায় সরব তখন অবশ্য উল্টো পথে হেঁটে তাঁকে সমর্থন করেছিলেন কংগ্রেস সাংসদ শশী থারুর। তিনি বলেছিলেন ‘আমাদের উপাসনার ধরন পরিবর্তিত হয়েছে।’

তিরুবনন্তপুরমের এই সাংসদের মন্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় কংগ্রেসের মুখপাত্র রাগিনী নায়ক অবশ্য বলেছিলেন, ‘শশী থারুর নিজের বিশ্বাস থেকেই এই সব বলেছিলেন। কংগ্রেস বিশ্বাস করে যে ধর্ম ব্যক্তিগত বিশ্বাসের বিষয়। কিন্তু আমাদের নিশ্চিত করতে হবে যে আমাদের কার্যকলাপ যেন অন্য ধর্মকে আঘাত না করে।’

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার মহুয়া মৈত্র বিতর্কিত মন্তব্য করার পরেই যখন সারা দেশ তাঁর সমালোচনায় সরব তখন দলের কাছ থেকেও সমর্থন পাননি তিনি। এর পরে দেখা যায় তিনি তৃণমূলের টুইটার পেজকে আনফলো করে দেন। অন্যদিকে, মহুয়া মৈত্রের বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় এফআইআর দায়ের হয়েছে। যদিও প্রতিক্রিয়ায় তিনি টুইট করে জানিয়ে দেন যে তিনি কিছুতেই ভয় পান না।

বন্ধ করুন