বাড়ি > ঘরে বাইরে > করোনায় মারা গেলেন AIIMS হাসপাতালের অভিজ্ঞ সাফাইকর্মী, প্রশ্নে নিরাপত্তা
কর্মীদের স্বাস্থ্য নিরাপত্তাৈ নিয়ে প্রশ্নের মুখে দিল্লির AIIMS কর্তৃপক্ষ। 
কর্মীদের স্বাস্থ্য নিরাপত্তাৈ নিয়ে প্রশ্নের মুখে দিল্লির AIIMS কর্তৃপক্ষ। 

করোনায় মারা গেলেন AIIMS হাসপাতালের অভিজ্ঞ সাফাইকর্মী, প্রশ্নে নিরাপত্তা

  • কোনও রকম নিরাপত্তা ব্যবস্থা ছাড়াই এইমস হাসপাতালের গোটা সাফাই বিভাগের দায়িত্ব সামলাতেন হীরা লাল।

করোনা সংক্রমণে মৃত্যু হল নাদিল্লির এইমস হাসপাতালের সাফাই দফতরের প্রধান সুপারভাইজার হীরা লালের। সোমবার তাঁর মৃত্যু প্রশ্নের মুখে ঠেলে দিয়েছে হাসপাতালের স্বাস্থ্য নিরাপত্তা ব্যবস্থাকে।

গত মঙ্গলবার অসুস্থ হয়ে পড়লে এক সপ্তাহের ছুটি নিয়েছিলেন হীরা লাল। 

এইমস হাসপাতালের তফসিলি জাতি ও উপজাতি অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক কুলদীপ সিং দ্য ট্রিউন সংবাদসংস্থাকে জানিয়েছেন, প্রাথমিক অসুস্থ হওয়ার পরে হীরা লালের শারীরিক পরিস্থিতি নির্ণয় করতে শুধুমাত্র রক্ত পরীক্ষা করা হয়েছিল। দুই দিন আগে তাঁর শারীরিক পরিস্থিতির চরম অবনতি দেখা দিলে তড়িঘড়ি তাঁকে হাসপাতালের এমার্জেন্সি বিভাগে ভরতি করা হয় এবং ভেন্টিলেশন সাপোর্টে রাখা হয়। তখনই তাঁর প্রথম Covid-19 পরীক্ষা করা হয় ও পজিটিভ ধরা পড়ে। সোমবার ভোরে তাঁর মৃত্যু হয়। 

কুলদীপের দাবি, কোনও রকম নিরাপত্তা ব্যবস্থা ছাড়াই এইমস হাসপাতালের গোটা সাফাই বিভাগের দায়িত্ব সামলাতেন হীরা লাল। করোনা অতিমারি দেখা দেওয়ার পরে নিজে হাতেও হাসপাতাল সাফাইয়ে কাজ করেছেন তিনি। কাজের সময় কখনও তাঁর মুখ থেকে হাসি মুছে যেতে দেখেননি সহকর্মীরা।

কুলদীপ সিং জানিয়েছেন, ‘যাঁরা কাজের সূত্রে সব রকম সংক্রমণের সংস্পর্শে আসতে পারেন, তাঁদের স্বাস্থ্য সুরক্ষার স্বার্থে নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা নেওয়ার ক্ষেত্রে অগ্রাধিকার দেওয়া উচিত।’

হীরা লালের মৃত্যু ভিড়েঠাসা হাসপাতালে কর্মরত সাফাইকর্মীদের নিরাপত্তার বিষয়টি আরও একবার চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল।  

বন্ধ করুন