বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > উত্তরপ্রদেশের পঞ্চায়েত ভোটে করোনায় মৃত্যু ১৩৫ ভোটকর্মীর, কমিশনকে নোটিশ হাইকোর্টের
উত্তরপ্রদেশের পঞ্চায়েত ভোটে করোনায় মৃত্যু ১৩৫-এর বেশি ভোটকর্মী, কমিশনকে নোটিশ হাইকোর্টের। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
উত্তরপ্রদেশের পঞ্চায়েত ভোটে করোনায় মৃত্যু ১৩৫-এর বেশি ভোটকর্মী, কমিশনকে নোটিশ হাইকোর্টের। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

উত্তরপ্রদেশের পঞ্চায়েত ভোটে করোনায় মৃত্যু ১৩৫ ভোটকর্মীর, কমিশনকে নোটিশ হাইকোর্টের

  • উত্তরপ্রদেশে পঞ্চায়েত ভোটের ডিউটিতে গিয়ে ১৩৫ জন ভোটকর্মীর মৃত্যু হয়েছে।

উত্তরপ্রদেশে পঞ্চায়েত ভোটের ডিউটিতে গিয়ে ১৩৫ জন ভোটকর্মীর মৃত্যু হয়েছে। সেই ঘটনায় রাজ্য নির্বাচন কমিশনকে শোকজ নোটিশ দিল এলাহাবাদ হাইকোর্ট। ডিভিশনের বেঞ্চের তরফে বলা হয়েছে, 'ভোটের কাজে থাকা আধিকারিকরা যাতে মারণ ভাইরাসে সংক্রমিত না হন, তার জন্য পুলিশ বা নির্বাচন কমিশন কিছুই করেনি বলে মনে হচ্ছে।'

করোনাভাইরাস পরিস্থিতির মধ্যেই উত্তরপ্রদেশ পঞ্চায়েত ভোটের তিন দফার ভোটগ্রহণ হয়ে গিয়েছে। আগামিকাল (বৃহস্পতিবার) হবে চতুর্থ দফার ভোটগ্রহণ। তারইমধ্যে গত ২৬ এপ্রিল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ওই ভোটকর্মীদের মৃত্যু হয়েছে বলে একটি হিন্দি দৈনিকের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছিল। সেই প্রতিবেদনের সত্যতা যাচাই করে রাজ্য নির্বাচন কমিশনকে শোকজ নোটিশ দিয়েছে হাইকোর্ট। জানতে চাওয়া হয়েছে, কেন পঞ্চায়েত ভোটের সময় করোনা সুরক্ষাবিধি পালন করতে ব্যর্থ হয়েছে কমিশন। তার ভিত্তিতে ডিভিশন বেঞ্চ কমিশনের থেকে জানতে চেয়েছে, নিয়ম লঙ্ঘনের জন্য কী কারণে কমিশন এবং কমিশনের আধিকারিকদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেওয়া যেতে পারে।

সেইসঙ্গে কড়া ভাষায় ডিভিশন বেঞ্চ বলেছে, কী কী পদক্ষেপ করা হয়েছে এবং তাঁর যথার্থতা প্রমাণে কোনও কাগজপত্র বা জনসমক্ষে ঘোষণা যে আমার বরদাস্ত করব না, তা আগে থেকে স্পষ্ট করে দিচ্ছি। কারণ এটা গোপন নয় যে গত বছরের শেষেরদিকে রাজ্যে ভাইরাসের প্রকোপ কমে যাওয়ায় সরকার আত্মতুষ্ট হয়ে পড়েছিল এবং পঞ্চায়েত নির্বাচন-সহ অন্যান্য কাজে বেশি জড়িয়ে গিয়েছিল।'

বন্ধ করুন