বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > জেফ বেজোসই হতে পারেন বিশ্বের প্রথম লক্ষকোটিপতি, ১৩ বছর পরে সম্ভাবনা মুকেশের
অ্যামাজন সিইও বছর বাষট্টি বেজোস এখনও পর্যন্ত বিশ্বের ধনীতম ব্যক্তি। (AP)
অ্যামাজন সিইও বছর বাষট্টি বেজোস এখনও পর্যন্ত বিশ্বের ধনীতম ব্যক্তি। (AP)

জেফ বেজোসই হতে পারেন বিশ্বের প্রথম লক্ষকোটিপতি, ১৩ বছর পরে সম্ভাবনা মুকেশের

  • বছর বাষট্টি বেজোস এখনও পর্যন্ত বিশ্বের ধনীতম ব্যক্তি। গত ৫ বছরে তাঁর মোট বাজারমূল্য বছরে গড়ে ৩৪% হারে বৃদ্ধি পেয়েছে।

সাম্প্রতিক বিবাহবিচ্ছেদের জন্য ৩৮০০ কোটি ডলার খরচ করা সত্ত্বেও অ্যামাজন সিইও জেফ বেজোস-এর বিত্তের পরিমাণ ক্রমেই বেড়ে চলেছে। মনে করা হচ্ছে, এই হারে বিত্ত বাড়তে থাকলে ২০২৬ সালের মধ্যে তিনিই বিশ্বের প্রথম ১৩ সংখ্যা ক্লাবের উদ্বোধন করে ফেলবেন। 

বছর বাষট্টি বেজোস এখনও পর্যন্ত বিশ্বের ধনীতম ব্যক্তি। গত ৫ বছরে তাঁর মোট বাজারমূল্য বছরে গড়ে ৩৪% হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। সম্প্রতি এই তথ্য জানিয়েছে বিশ্বের বিত্তবান সংস্থাগুলির বাণিজ্যিক পণ্য তুলনাকারী সংস্থা ‘কম্প্যারিসান’।

সংস্থার বিচারে, বেজোসের স্থানে পৌঁছতে হলে ফেসবুক প্রতিষ্ঠাতা মার্ক জুকেরবার্গের লেগে যাবে ২০২৬ সালের পরে আরও এক দশক। সব ঠিক চললে জুকেরবার্গের বর্তমান বাজারমূল্য বেড়ে সেই জায়গায় পৌঁছবে তাঁর ৫১ বছর বয়সে।

ভারতের সবচেয়ে বিত্তবান ব্যক্তি মুকেশ অম্বানির বার্ষিক আয় এক লক্ষ কোটি ডলারে পৌঁছতে লাগবে আরও বেশি সময়, অর্থাৎ ২০৩৩ সাল। সেই সময় মুকেশের বয়স হবে ৭৫ বছর। 

আলিবাবা সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা চিনের শিল্পপতি জ্যাক মা বছরে লাখ কোটি ডলার আয় করতে পারবেন ২০৩০ সালে, যখন তাঁর বয়স হবে ৬৫ বছর। 

মনে রাখা দরকার, এই সমস্ত পূর্বাভাসই করা হয়েছে সংশ্লিষ্ট ধনকুবেরদের বর্তমান আয়বৃদ্ধির গতিবেগের ভিত্তিতে। 

বন্ধ করুন