বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Amazon: টানা কাজ করতে হত, কথাও শোনাত, আমাজন কর্তার বিরুদ্ধে বর্ণবৈষম্যের অভিযোগ

Amazon: টানা কাজ করতে হত, কথাও শোনাত, আমাজন কর্তার বিরুদ্ধে বর্ণবৈষম্যের অভিযোগ

আমাজন কর্তা জেফ বেজোস। (AP Photo/Charlie Riedel, File) (AP)

সিয়াটেল স্টেট কোর্টে তিনি একটি অভিযোগ দায়ের করেন। তাঁর অভিযোগ, কখনও তাঁকে ১০-১৪ ঘণ্টা কাজ করে যেতে হয়েছে। ৫-৬জন হাউজকিপার্সকে নিয়ে কাজ করতে হত। স্টাফেদের কোনও ব্রেকরুম ছিল না। লন্ড্রিরুমে খেতে হত।

মল্লিকা সোনি

আমাজনের প্রতিষ্ঠাতা জেফ বেজোসের বিরুদ্ধে বর্ণবৈষম্যতার অভিযোগ তুলে সরব তাঁরই সংস্থার এক প্রাক্তন হাউসকিপিং স্টাফ। ওই প্রাক্তন মহিলা স্টাফের দাবি ওই সংস্থায় কাজ করার সময় তিনি বর্ণবৈষম্যের শিকার হয়েছিলেন। তাঁদের দীর্ঘক্ষণ ধরে কাজ করতে হত। ব্লুমবার্গের রিপোর্টে তেমনটাই উল্লেখ করা হয়েছে।

২০১৯ সালে জেফ বেজোসের স্টাফ হিসাবে নিযুক্ত হয়েছিলেন মার্সিডিজ ওয়েডা নামে ওই মহিলা। তাঁর অভিযোগ ওই সংস্থার কর্মসংস্কৃতি একেবারেই ঠিকঠাক নয়। কোনও মিল ব্রেক দেওয়া হত না। কোনও বিশ্রামও নেই। টানা কাজ করে যেতে হত।

সিয়াটেল স্টেট কোর্টে তিনি একটি অভিযোগ দায়ের করেন। তাঁর অভিযোগ, কখনও তাঁকে ১০-১৪ ঘণ্টা কাজ করে যেতে হয়েছে। ৫-৬জন হাউজকিপার্সকে নিয়ে কাজ করতে হত। স্টাফেদের কোনও ব্রেকরুম ছিল না। লন্ড্রিরুমে খেতে হত।

তাঁর আরও অভিযোগ, কাছেই সিকিউরিটি রুমেও স্টাফেদের বাথরুম ব্যবহার করতে দিত না। একটি জানালা বেয়ে উঠে বাথরুমে যেতে হত। এমনকী জেফ বেজোসের এক হাউসহোল্ড ম্য়ানেজার তাঁর সঙ্গে অত্যন্ত অপমানজনক ব্যবহার করতেন বলেও তিনি অভিযোগ তোলেন।

মার্সিডিজ ওয়েডার পক্ষের আইনজীবী প্যাট্রিক ম্য়াকগুইগান জানিয়েছেন, লেবার অ্যান্ড এমপ্লয়মেন্ট আইন অনুসারে এটা বলা হয় যে কর্মীদের উপযুক্ত পারিশ্রমিক দিতে হবে ও কাজের পরিবেশটি নিরাপদ ও স্বাস্থ্যকর হতে হবে।

 

বন্ধ করুন