বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Amit Shah-Suvendu Adhikary Meeting: ‘‌দলের মধ্যে উপদল বরদাস্ত নয়’‌, শুভেন্দুকে আন্দোলনে নামার পরামর্শ শাহের
শুভেন্দু অধিকারী বৈঠক করেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে। (ANI)

Amit Shah-Suvendu Adhikary Meeting: ‘‌দলের মধ্যে উপদল বরদাস্ত নয়’‌, শুভেন্দুকে আন্দোলনে নামার পরামর্শ শাহের

  • এদিন জগদীপ ধনখড়ের সঙ্গে দেখা করেন শুভেন্দু অধিকারী। বঙ্গভবনে তাঁর সঙ্গে মধ্যাহ্নভোজ সারেন নন্দীগ্রামের বিধায়ক। এরপর মেদিনীপুরের সাংসদ দিলীপ ঘোষকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানাতে তাঁর বাড়ি যান। সেখান থেকে দলের রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদারের সঙ্গে।

একুশের নির্বাচন এবং তার পর যতগুলি নির্বাচন হয়েছে তাতে বিজেপি গোহারা হয়েছে। শুভেন্দু অধিকারী যত চেঁচিয়েছে তত বড় ব্যবধানে হেরেছে বিজেপি। তার নেপথ্যে রয়েছে গোষ্ঠীকোন্দল। এখন রাজ্যে শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগে পার্থ চট্টোপাধ্যায় গ্রেফতার হয়েছেন। এই পরিস্থিতিকে কাজে লাগাবার পরামর্শ শুভেন্দুকে দিলেন অমিত শাহ। নিজেদের মধ্যে গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব ভুলে আন্দোলন কর্মসূচি চালিয়ে যেতে নির্দেশ দেন শাহ। একইসঙ্গে জনসংযোগ বৃদ্ধি করতেও পরামর্শ দেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। ব্লক থেকে শুরু করে সর্বত্র আন্দোলন ছড়িয়ে দিতে বলেছেন তিনি বলে সূত্রের খবর।

ঠিক কী বলেছেন অমিত শাহ?‌ নয়াদিল্লিতে গিয়ে শুভেন্দু অধিকারী বৈঠক করেছেন অমিত শাহের সঙ্গে। সেখানে সিএএ এবং একশো জনের নামের তালিকা তুলে দিয়েছেন বিরোধী দলনেতা। সূত্রের খবর, শুভেন্দু অধিকারীর যাবতীয় কথা শোনার পর কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ শুভেন্দুকে বলেন, ‘‌শিক্ষক দুর্নীতিতে রাজ্যের প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় গ্রেফতার হওয়ার পর ভারতীয় জনতা পার্টির রাজনৈতিক অস্ত্র হিসেবে বিষয়টিকে নিয়ে সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছনোর প্রয়োজন ছিল। সেটা হয়নি। দলের রাজ্য নেতৃত্বের মধ্যে সমন্বয়ের অভাব রয়েছে। দলের মধ্যে উপদল বরদাস্ত করা হবে না।’‌

ঠিক কী বলেছেন রাজ্য সভাপতি?‌ বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার এই বিষয়ে বলেন, ‘‌আমরা একটানা কর্মসূচি ঘোষণা করেছি। কিন্তু রাজ্য সরকার কর্মসূচির অনুমতি দিচ্ছে না। তা সত্ত্বেও জেলাস্তরে মহকুমা স্তরে এবং ব্লক স্তরে স্বতঃপ্রণোদিত বিক্ষোভ হচ্ছে। আগামী দিনে শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি নিয়ে আরও বড় আন্দোলন করবে বিজেপি।’‌

আর কী জানা যাচ্ছে?‌ এদিন জগদীপ ধনখড়ের সঙ্গে দেখা করেন শুভেন্দু অধিকারী। বঙ্গভবনে তাঁর সঙ্গে মধ্যাহ্নভোজ সারেন নন্দীগ্রামের বিধায়ক। এরপর মেদিনীপুরের সাংসদ দিলীপ ঘোষকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানাতে তাঁর বাড়ি যান। সেখান থেকে দলের রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদারের সঙ্গে। দেখা করার কথা রয়েছে অসামরিক বিমান পরিবহন মন্ত্রী জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়ার সঙ্গেও। তারপর রাতেই কলকাতায় ফিরেছেন শুভেন্দু অধিকারী। আবার ১১ অগষ্ট নয়াদিল্লি যাবেন তিনি।

বন্ধ করুন