বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Amit Shah on Armed revolution: ব্রিটিশদের বিরুদ্ধে সশস্ত্র বিপ্লবই কংগ্রেসের অহিংস আন্দোলনের সাফল্যের ভিত: শাহ

Amit Shah on Armed revolution: ব্রিটিশদের বিরুদ্ধে সশস্ত্র বিপ্লবই কংগ্রেসের অহিংস আন্দোলনের সাফল্যের ভিত: শাহ

অমিত শাহ (HT_PRINT)

অমিত শাহ বুধবার বলেন, যদি সমান্তরাল ভাবে সশস্ত্র আন্দোলন না চলত, তাহলে দেশের স্বাধীনতা অর্জন করতে আরও কয়েক দশক সময় লেগে যেত ভারতের।

ভারতে ব্রিটিশদের বিরুদ্ধে সশস্ত্র বিপ্লবই কংগ্রেসের অহিংস আন্দোলনের সাফল্যের ভিত্তি তৈরি করেছিল বলে মত প্রকাশ করলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। বুধবার তিনি এই মন্তব্য করেছেন। তিনি আরও যোগ করেছেন, লক্ষ লক্ষ ভারতীয়দের হৃদয়ে দেশপ্রেমের শিখা জ্বালিয়ে তাদের স্বাধীনতা সংগ্রামে যোগদানের জন্য উদ্বুদ্ধ করেছিলেন সশস্ত্র বিপ্লবীরা। তবে তা সত্ত্বেও ভারতের স্বাধীনতা আন্দোলনের প্রেক্ষাপটে এই বিপ্লবীরা সেভাবে গুরুত্ব পাননি ইতিহাসের পাতায়। ভারতের স্বাধীনতা সংগ্রামের উপর একটি বই - 'রেভোলিউশনারিস- দ্য আদার স্টোরি অফ হাউ ইন্ডিয়া ওয়ান ইটস ফ্রিডম' প্রকাশের অনুষ্ঠানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বক্তব্য রাখছিলেন বুধবার। অর্থনীতিবিদ তথা প্রধানমন্ত্রীর অর্থনৈতিক উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য সঞ্জীব সান্যাল এই বইটি লিখেছেন। সেখানেই দেশের স্বাধীনতায় বিপ্লবীদের ভূমিকা নিয়ে কথা বলেন অমিত শাহ। (আরও পড়ুন: 'বিদ্বেষ ছড়ায় রামচরিতমানস', বিস্ফোরক মন্তব্য করে বিতর্কে বিহারের শিক্ষামন্ত্রী)

অমিত শাহ বুধবার বলেন, যদি সমান্তরাল ভাবে সশস্ত্র আন্দোলন না চলত, তাহলে দেশের স্বাধীনতা অর্জন করতে আরও কয়েক দশক সময় লেগে যেত ভারতের। অমিত শাহ বলেন, 'এটা সত্য যে, ভারত স্বাধীন করতে ব্রিটিশদের বিরুদ্ধে অহিংস আন্দোলনের নিজস্ব তাৎপর্য ও অবদান ছিল। কিন্তু বলতে গেলে সশস্ত্র বিপ্লব নগণ্য ছিল না। সশস্ত্র বিপ্লবকে বিক্ষিপ্ত, অসংগঠিত বলে অভিহিত করে অহিংস আন্দোলনের গুরুত্ব কমিয়ে দেখানো ঠিক নয়।' এদিকে শাহের কথায়, ব্রিটিশরা চলে গেলেও এখনও তাদের দৃষ্টিভঙ্গিতেই ইতিহাস লেখা হয় দেশে। তাঁর অভিযোগ, দেশের ইতিহাসচর্চা নিয়ে বহু বিভ্রান্তি রয়েছে এখনও।

এদিকে এক শ্রেণির ইতিহাসবিদকে বিঁধে শাহ বলেন, 'যেই ইতিহাসবিদদের কাছ ছিল ভারতীয় দৃষ্টিভঙ্গি দিয়ে দেশের ইতিহাস লেখা, তাঁরা ঠিক ভাবে কাজ করতে পারেননি। তারা জানে না, যেদিন ভগৎ সিংকে ফাঁসি দেওয়া হয়েছিল, লাহোর থেকে কন্যাকুমারী পর্যন্ত প্রতিটি পরিবার এতটাই শোকে স্তব্ধ হয়ে গিয়েছিল যে তারা খাবার খেতে পারেনি। ভগৎ সিং-এর সর্বোচ্চ আত্মত্যাগের ঠিক পরপরই স্বাধীনতা আসেনি বলে এই না যে তাঁর আত্মত্যাগ কম গুরুত্বপূর্ণ। এটা শুধু ভগৎ সিং সম্পর্কেই নয়, সশস্ত্র বিপ্লবের সঙ্গে যুক্ত সবার ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য।'

এদিকে ভারতের ইতিহাস নিয়ে প্রধানমন্ত্রী মোদীর দৃষ্টিভঙ্গির উল্লেখ করে শাহ বলেন, 'প্রধানমন্ত্রী ব্রিটিশ ঔপনিবেশিকতা থেকে আমাদের ইতিহাসকে মুক্ত করার কথা বলেছেন। সে কাজে এ বার আমাদের সচেষ্ট হওয়া উচিত।' বীর সাভারকর নিয়েও এদিন মুখ খোলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। তাঁর বক্তব্য, 'বীর সাভারকরই প্রথম ১৮৫৭ সালের মহাবিদ্রোহকে ভারতের প্রথম স্বাধীনতাযুদ্ধ বলে উল্লেখ করেছিলেন।'

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

 

বন্ধ করুন