বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ২ মন্ত্রীর ছেলেকে চাকরি দেওয়া নিয়ে বিতর্ক, দলের অন্দরে তোপের মুখে ‘ক্যাপ্টেন’
পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং
পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং

২ মন্ত্রীর ছেলেকে চাকরি দেওয়া নিয়ে বিতর্ক, দলের অন্দরে তোপের মুখে ‘ক্যাপ্টেন’

  • ২০২২ সালে বিধানসভা নির্বাচনের আগে নিজের দলের একাংশের তোপের মুখে পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং। 

২০২২ সালে বিধানসভা নির্বাচন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা পঞ্জাবে। কৃষক আইন নিয়ে বিক্ষোভের আবহে সেই নির্বাচনে কংগ্রেসকে এগিয়ে রেখেছেন অনেক রাজনৈতিক বিশ্লেষক। তবে নিক্বাচেনর আগে নিজের দলের ক্ষোভের মুখে পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং। আর এই ঘটনার নেপথ্যে রয়েছে দুই বিধায়কের ছেলেকে চাকরি দেওয়ার প্রসঙ্গ।

উল্লেখ্য, শুক্রবার পঞ্জাব সরকারের তরফে ঘোষণা করা হয় বিধায়ক অর্জুন প্রতাপ সিং বাজওয়া ও ভীষ্ম পাণ্ডের ছেলেকে নাইব তহসিলদারে পুলিশ ইন্সপেকটর হিসাবে নিয়োগ করা হবে। দুই জনের পিতামহ জঙ্গিদের হাতে খুন হওয়াতে এই 'ক্ষতিপূরণ' বলে জানানো হয়। তবে অনৈতিকতার দোহাই দিয়ে সেই সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করারআবেদন জানিয়ে ক্যাপ্টেনের দ্বারস্থ হয়েছেন কংগ্রেসের একাধিক নেতা। যদিও ক্যাপ্টেন অনড়। তাঁর বক্তব্য, দুই বিধায়কের পরিবারকে সম্মান ও ক্ষতিপূরণ দিতেই চাকরি দেওয়া হয়েছে। এতে কোনও অনৈতিকতা নেই।

এদিকে মুখ্যমন্ত্রীকে এই সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের আবেদন জানান পঞ্জাব কংগ্রেসের প্রধান সুনীল জাখরও। সুনীল জাখর জানানের দাবি, এই পদক্ষেপ কংগ্রেসের নীতির বিরুদ্ধে। তাই মুখ্যমন্ত্রীকে এই সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করতেই হবে। এদিকে এই বিষয়ে সরব হয়েছে বিরোধী শিরোমণি আকালি দলও।

এদিকে এই প্রসঙ্গে অমরিন্দর সিংয়ের পরামর্শদাতা রবীন ঠুকরালের ভায়া বলেন, ‘দুই কংগ্রেস বিধায়কের ছেলেকে চাকরি দেওয়ার সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের কোনও প্রশ্ন নেই। তাঁদের পরিবার যে বলিদান দিয়েছে, তার প্রতিদান ও ক্ষতিপূরপণ স্বরূপ এই সামান্য সাহায্যটুকু করা হচ্ছে। এই সিদ্ধান্তেও যে কিছু মানুষ রাজনীতির রঙ লাগাচ্ছেন, তা অত্যন্ত দুঃখজনক।’

বন্ধ করুন