বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > গো-সুরক্ষা আইন পাশের চারমাসের মধ্যেই সংশোধনী আনছে অসম সরকার, কী বদল হবে আইনে?
অসমের মুখ্যমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্বশর্মা। (ফাইল ছবি, সৌজন্য এএনআই)

গো-সুরক্ষা আইন পাশের চারমাসের মধ্যেই সংশোধনী আনছে অসম সরকার, কী বদল হবে আইনে?

  • অগস্টে পাস হওয়া আইনটির সমালোচনায় মুখর হয়েছিল বিরোধী দলগুলি।

অসমে গো-রক্ষার স্বার্থে নয়া বিল পাশ হওয়ার চারমাসের মাথাতেই এই আইন সংশোধন করার পথে হাঁটতে চলেছে অসম সরকার। বিধানসভার বাজেট অধিবেশনে অগস্টে পাস হওয়া আইনটির সমালোচনায় মুখর হয়েছিল বিরোধী দলগুলি। এই আবহে সোমবার শুরু হওয়া রাজ্য বিধানসভার শীতকালীন অধিবেশনে আইনটির জন্য একটি সংশোধনী বিল পেশ করবে সরকার।

এই বিষয়ে অসমের মুখ্যমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্ব শর্মা বলেন, ‘প্রথম সংশোধনীতে আদালতের অনুমতি নিয়ে বাজেয়াপ্ত গাড়িগুলোকে নিলামে তোলার অনুমতি দেওয়া হবে। এটি কর্মকর্তাদের হাতে আরও ক্ষমতা দেবে এবং অতিরিক্ত রাজস্বও আদায়ে সরকারকে সাহায্য করবে। দ্বিতীয় সংশোধনীটি বাংলাদেশ ও ভুটানের সীমান্তবর্তী ৮টি জেলা ছাড়া বাকি জেলাগুলিতে কৃষি ও পশুপালনের উদ্দেশ্যে গবাদি পশুর আন্তঃজেলা পরিবহনের অনুমতি দেবে। বর্তমান আইনে উপযুক্ত কর্তৃপক্ষের পারমিট ছাড়া আন্তঃজেলা পরিবহণ নিষিদ্ধ করে।’

গো-রক্ষার স্বার্থে লাগু হওয়া আইন অনুযায়ী, হিন্দু, জৈন, শিখ এবং যেসব সম্প্রদায় গোমাংস খায় না, সেই সম্প্রদায়ের যেই এলাকায় বসবাস, সেখানে গোমাংস বিক্রি ও খাওয়ার উপর নিষেধাজ্ঞা জারি হয়েছে। তাছাড়া যে কোনও মন্দিরের পাঁচ কিলোমিটারের মধ্যেও গোমাংস বিক্রি করা যাবে না। গোহত্যা, গোমাংস খাওয়া এবং গরু পাচার নিয়ন্ত্রণ করার ক্ষেত্রে কড়া পদক্ষেপ করার কথা প্রথম থেকেই বলে এসেছে অসমের বিজেপি সরকার। এই পরিস্থিতিতে এই আইন ভাঙলে ৩ লক্ষ টাকা জরিমানা করা হবে। তাছাড়া ৮ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড হতে পারে দোষীর। এদিকে কেউ একই অপরাধ দ্বিতীয়বার করলে জরিমানা দ্বিগুণ হয়ে যাবে।

বন্ধ করুন