বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > Assam to be flood-free: আট বছরে তরতরিয়ে এগিয়েছে অসম, আগামী পাঁচ বছরে বন্যা মুক্ত হবে রাজ্য-অমিত শাহ

Assam to be flood-free: আট বছরে তরতরিয়ে এগিয়েছে অসম, আগামী পাঁচ বছরে বন্যা মুক্ত হবে রাজ্য-অমিত শাহ

গুয়াহাটিতে শাহ, নড্ডা ও হিমন্ত (Amit Shah Twitter)

Amit Shah slams Congress- কংগ্রেস আমলের বিভিন্ন ব্যর্থতার কথাও তুলে ধরেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। 

গত আট বছরে অসম সহ সমগ্র উত্তরপূর্ব তরতর করে উন্নয়নের পথে এগিয়েছে বলে দাবি করলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। একই সঙ্গে আগামী পাঁচ বছরে অসমকে বন্যা মুক্ত করার প্রতিশ্রুতিও দিলেন তিনি। অসম সফরে এসে যেমন ভাবে মোদী সরকারের নানান কাজ তুলে ধরলেন শাহ, সেভাবেই কংগ্রেসকে অতীতের শাসনের জন্য বিঁধেছেন তিনি। তাঁর দাবি, উত্তরপূর্বকে কার্যত ভুলেই গিয়েছিল কংগ্রেস। এনডিএ আমলেই সেটা মূলস্রোতে ফিরেছে। 

এদিন গুয়াহাটিতে বিজেপির নতুন পার্টি অফিসের উদ্বোধন করেন তিনি। এরপর তিনি বলেন যে কংগ্রেস আমলে শান্তি, উন্নয়ন ছিল না। গত আট বছরে উন্নয়ন হয়েছে মোদীর অধীনে। ছাত্র হিসেবে রাজ্যে এসে অনেকবার মারও খেয়েছেন বলে এদিন জানান অমিত শাহ। বিভিন্ন পরিসংখ্যান দিয়ে তিনি বলেন যে উগ্রপন্থী কার্যকলাপ অনেকটা কমেছে। ধীরে ধীরে ৬০ শতাংশ অঞ্চল থেকে আফস্পা প্রত্যাহার করা হয়েছে। ধাপে ধাপে পুরো অঞ্চলই আফস্পা মুক্ত হবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন। 

এদিন অসমের জনগণের কাছে বেশ কিছু প্রতিশ্রুতিও দেন অমিত শাহ। তবে তার মধ্যে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হল পাঁচ বছরের মধ্যে বন্যামুক্ত করার আশ্বাস। তিনি বলেন প্রাকৃতিক বিপর্যয় যাতে ইতিহাসের পাতায় চলে যায়, তার জন্য পদক্ষেপ নিচ্ছেন তাঁরা। বিজেপির ইস্তেহারে সন্ত্রাস, দুর্নীতি ও বন্যা মুক্তির কথা বলা হয়েছে। এর মধ্যে প্রথম দুটি হয়ে গেলেও পাঁচ বছরের মধ্যে বন্যাও নির্মূল হয়ে যাবে বলে তাঁর আশা। ইতিমধ্যেই উত্তর পূর্ব পরিষদের বৈঠকে এই নিয়ে বড়সড় প্রকল্প চালু করা নিয়ে আলোচনা হয়েছে বলে তিনি জানান। অসম যাতে বন্যামুক্ত হয়, সেটা সুনিশ্চিত করতে চান প্রধানমন্ত্রী বলে জানান অমিত শাহ। 

এদিন অসম প্রসঙ্গে কংগ্রেসের ভারত জোড়ো যাত্রাকেও কটাক্ষ করেন শাহ। তাঁর দাবি, ১৯৬২-র চিন যুদ্ধের সময় অসমকে কার্যত ভুলেই গিয়েছিলেন নেহরু। মোদীর আমলেই উত্তরপূর্বে ভারত জোড়ো হয়েছে বলে দাবি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর। ডাবল ইঞ্জিন সরকার অসমের জন্য কী কী করেছে, তারও বিস্তারিত ফিরিস্তি দেন অমিত শাহ। 

বন্ধ করুন