বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > 'উভয় পক্ষ মেনেছিল বলে... নয়ত অযোধ্যা নিয়ে সুপ্রিম রায় সঠিক না', দাবি চিদম্বরমের
কংগ্রেস নেতা পি চিদম্বরম (ছবি সৌজন্যে এএআই) (Ishant Kumar)
কংগ্রেস নেতা পি চিদম্বরম (ছবি সৌজন্যে এএআই) (Ishant Kumar)

'উভয় পক্ষ মেনেছিল বলে... নয়ত অযোধ্যা নিয়ে সুপ্রিম রায় সঠিক না', দাবি চিদম্বরমের

  • অযোধ্যা নিয়ে সুপ্রিম রায় নিয়ে লেখা সালমান খুরশিদের বই প্রকাশের অনুষ্ঠানে এসেছিলেন পি চিদম্বরম।

কংগ্রেস নেতা পি চিদম্বরম বুধবার বলেন যে উভয় পক্ষই অযোধ্যা নিয়ে সুপ্রিম কোর্টের রায় মেনে নেওয়ার কারণে এটি একটি সঠিক রায় হয়ে উঠেছে এর উল্টোটা নয়। অযোধ্যা নিয়ে সুপ্রিম রায় নিয়ে লেখা সালমান খুরশিদের বই প্রকাশের অনুষ্ঠানে এসেছিলেন পি চিদম্বরম। অনুষ্ঠানে ছিলেন কংগ্রেস নেতা দিগ্বিজয় সিংও।

দিগ্বিজয় সিং এদিন বলেন, 'দেশের ইতিহাসে ইসলামের আগমনের আগেও মন্দির ভাঙচুর ও ধ্বংসযজ্ঞের ঘটনা ঘটেছে। কিন্তু এমন একটি পরিবেশ তৈরি করা হয়েছে যেখানে বলা হয়েছে যে এই ধরনের কাজ মুসলিম শাসকদের সঙ্গে এসেছে এবং সে কারণেই তারা এর জন্য দায়ী।' দিগ্বিজয় সিং আরও অভিযোগ করেন যে এলকে আডবানির 'রথযাত্রা' সমাজকে একত্রিত করার জন্য নয়, বরং সমাজকে বিভক্ত করার জন্য। দিগ্বিজয়ের অভিযোগ, আডবানি যেখানেই গিয়েছিলেন সেখানে তিনি ঘৃণার বীজ বপণ করেছিলেন এবং দেশে সাম্প্রদায়িকতার পরিবেশ তৈরি করেছিলেন। তিনি আরও অভিযোগ করেছেন যে বীর সাভারকর ধর্মীয় ব্যক্তি ছিলেন না কারণ তিনি গরুকে 'মা' বলা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছিলেন এবং তিনি গরুর মাংসও খেয়েছিলেন।

এদিকে চিদম্বরম দুঃখ প্রকাশ করেন যে স্বাধীনতার ৭৫ বছর পরেও একজনকে এই উপসংহারে আসতে হবে যে কেউ বাবরি মসজিদ ভেঙে দেয়নি কারণ এই মামলায় অভিযুক্ত প্রত্যেকেই সুপ্রিম কোর্টের রায়ের এক বছরের মধ্যে খালাস পেয়েছিলেন। তিনি বলেন, 'সেই গল্পটি ১৯৯২ সালে শুরু হয়েছিল এবং ঠিক দুই বছর আগে ৯ নভেম্বর ২০১৯-এ সম্পূর্ণ অপ্রত্যাশিত ভাবে সেটি শেষ হয়েছিল। উভয় পক্ষই এই রায় গ্রহণ করেছে, সেই কারণেই এটি সঠিক রায় হয়ে উঠেছে। অন্যভাবে নয়। এটি একটি সঠিক রায় নয়, যা উভয় পক্ষই গ্রহণ করেছে।'

বন্ধ করুন