বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > বাংলাদেশে হিন্দু শিক্ষককে স্কুলের মধ্যে পিটিয়ে খুন করল দশম শ্রেণির ছাত্র
নিহত উৎপল কুমার সরকার।

বাংলাদেশে হিন্দু শিক্ষককে স্কুলের মধ্যে পিটিয়ে খুন করল দশম শ্রেণির ছাত্র

  • RAB-এর এক আধিকারিক দাবি করেছেন, দিন কয়েক আগে বান্ধবীর সামনে জিতুকে বকাবকি করেছিলেন উৎপলবাবু। পালটা বান্ধবীর সামনে নিজের বীরত্ব দেখাতে শিক্ষককে মারধর করে জিতু।

বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকা লাগোয়া সাভারে হিন্দু কলেজ শিক্ষককে পিটিয়ে খুনের অভিযোগে দশম শ্রেণির ছাত্রকে গ্রেফতার করল সেদেশের নিরাপত্তা বাহিনী। গত ২৫ জুন সাভারের হাজি ইউনুস আলি স্কুল অ্যান্ড কলেজে ঘটনাটি ঘটে। অভিযুক্ত আসরাফুল অহসান জিতুকে (১৯) রিম্যান্ডে নিয়েছে বাংলাদেশের র্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটেলিয়ন। প্রাথমিক তদন্তে তাদের দাবি, বান্ধবীর সামনে বীরত্ব প্রমাণ করতে শিক্ষক উৎপল কুমার সরকারকে (৩৫) ক্রিকেটের স্ট্যাম্প দিয়ে পিটিয়ে খুন করেছে জিতু।

সেদেশের সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা গিয়েছে, গত ২৫ জুন স্কুলের মাঠে ক্রিকেট খেলা চলছিল। মাঠের পাশে দাঁড়িয়ে খেলা দেখছিলেন উৎপলবাবু। তখন হঠাৎই স্ট্যাম্প তুলে তাঁকে পেটাতে শুরু করে জিতু। তাঁর মাথায় আঘাত করে। তার জেরে শিক্ষক মাটিতে পড়ে গেলে স্ট্যাম্পের সূচাল দিক দিয়ে বার বার পেটে আঘাত করতে থাকে সে। এর জেরে গুরুতর আহত হন শিক্ষক। তাঁকে স্থানীয় হাসপাতালের ভর্তি করে স্কুল কর্তৃপক্ষ। বুধবার সেখানে মৃত্যু হয় উৎপলবাবুর।

এর পর জিতুর খোঁজে শুরু হয় তল্লাশি। বুধবার রাতে তাকে গাজিপুরের শ্রীপুর এলাকা থেকে গ্রেফতার করে RAB. তার আগে বুধবার সকালে কুষ্টিয়া থেকে গ্রেফতার করা হয় জিতুর বাবা উজ্জ্বল হোসেনকে। তিনি ওই স্কুলটির মালিক।

শিক্ষকের মৃত্যুর পর অভিযুক্ত ছাত্রের গ্রেফতারির দাবিতে, জাতি ধর্ম নির্বিশেষে পথে নামে ছাত্রছাত্রীরা। বৃহস্পতিবার অভিযুক্তকে আদালতে পেশ করা হলে ৫ দিনের পুলিশ হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছেন বিচারক।

ওদিকে RAB-এর এক আধিকারিক দাবি করেছেন, দিন কয়েক আগে বান্ধবীর সামনে জিতুকে বকাবকি করেছিলেন উৎপলবাবু। পালটা বান্ধবীর সামনে নিজের বীরত্ব দেখাতে শিক্ষককে মারধর করে জিতু।

 

বন্ধ করুন