বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের বিলগ্নিকরণের প্রতিবাদ, দেশে ২ দিন ব্যাঙ্ক ধর্মঘটের ডাক
রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের বিলগ্নিকরণের প্রতিবাদ, দেশে ২ দিন ব্যাঙ্ক ধর্মঘটের ডাক। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের বিলগ্নিকরণের প্রতিবাদ, দেশে ২ দিন ব্যাঙ্ক ধর্মঘটের ডাক। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)

রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের বিলগ্নিকরণের প্রতিবাদ, দেশে ২ দিন ব্যাঙ্ক ধর্মঘটের ডাক

  • এবারের বাজেটে দুটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের বিলগ্নিকরণের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।

বাজেটে দুটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের বিলগ্নিকরণের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। সেই প্রস্তাবের বিরোধিতায় আগামী ১৫ মার্চ থেকে দেশজুড়ে দু'দিনের ব্যাঙ্ক ধর্মঘটের ডাক দিল ইউনাইটেড ফোরাম অফ ব্যাঙ্ক ইউনিয়নস (ইউএফবিইউ)। যে সংগঠনের অধীনে ন'টি ব্যাঙ্ক ইউনিয়ন আছে।

অল ইন্ডিয়া ব্যাঙ্ক এমপ্লয়িজ অ্যাসোসিয়েশনের (এআইবিইএ) সি এইচ বেঙ্কটচলম জানান, মঙ্গলবার আলোচনায় বসেছিল ইউএফবিইউ। রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের বিলগ্নিকরণের বিরুদ্ধে প্রতিবাদের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। কেন্দ্রের সেই সিদ্ধান্তের ফলে দেশকে পিছনের দিকে ঠেলে দেওয়া হচ্ছে। তিনি বলেন, ‘আইডিবিআই ব্যাঙ্ক এবং দুটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের বিলগ্নিকরণ, অনাদায়ী ব্যাঙ্ক তৈরি, এলআইসির বিলগ্নিকরণ, একটি সাধারণ বিমা সংস্থার বেসরকারিকরণ, বিমাক্ষেত্রে ৭৪ শতাংশ পর্যন্ত প্রত্যক্ষ বিদেশি বিনিয়োগের ছাড় এবং রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থার বিক্রি ও আগ্রাসী বিলগ্নিকরণের মতো বাজেটে যে বিভিন্ন সংস্কারমূলক পদক্ষেপের ঘোষণা করেছে কেন্দ্রীয় সরকার, সেগুলি নিয়ে বৈঠকে আলোচনা হয়েছে।’

দীর্ঘ আলোচনার পর অল ইন্ডিয়া ব্যাঙ্ক অফিসার্স কনফেডারেশনের (এআইবিওসি) সাধারণ সম্পাদক সৌম্য দত্ত জানিয়েছেন, আগামী ১৫ এবং ১৬ মার্চ ব্যাঙ্ক ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে ইউএফবিইউ। যে সংগঠনের ছাতার তলায় আছে এআইবিইএ, এআইবিওসি, ন্যাশনাল কনফেডারেশন ফর ব্যাঙ্ক এমপ্লয়িজ (এনসিবিই), ব্যাঙ্ক এমপ্লয়িজ কনফেডারেশন অফ ইন্ডিয়া (বিইএফআই), ইন্ডিয়ান ন্যাশনাল ব্যাঙ্ক এমপ্লয়িজ ফেডারেশন (আইএনবিইএফ), ইন্ডিয়ান ন্যাশনাল ব্যাঙ্ক অফিসার্স কংগ্রেস (আইএনবিওসি), ন্যাশনাল অর্গানাইজেশন অফ ব্যাঙ্ক ওয়ার্কার্স (এনওবিডব্লুউ) এবং ন্যাশনাল অর্গানাইজেশন অফ ব্যাঙ্ক অফিসার্স (এনওবিও)।

গত সপ্তাহে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন জানিয়েছিলেন, আগামী অর্থবর্ষে দুটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক, একটি বিমা সংস্থা-সহ একাধিক রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা এবং আর্থিক প্রতিষ্ঠানের বিলগ্নিকরণের মাধ্যমে বাজার থেকে ১.৭৫ লাখ কোটি টাকা তোলার পরিকল্পনা করেছে কেন্দ্র। দুটি ব্যাঙ্ক এবং বিমা সংস্থার নাম উল্লেখ করেননি সীতারামন। বাজেট-পরবর্তী সাংবাদিক বৈঠকেও সে বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে নাম প্রকাশ করেননি। বরং জানিয়েছিলেন, সাংবাদিক বৈঠকে যদি নাম বলেই দেন, তাহলে বাজেট বক্তৃতায় সংসদেও নাম প্রকাশ করতে পারতেন।

বন্ধ করুন