বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ওমিক্রনের পর কোভিডের আরও প্রজাতির জন্য় তৈরি থাকুন, তিনটি বিষয়ে জোর দিলেন মোদী
কোভিড পরিস্থিতি নিয়ে মুখ্য়মন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী (ANI Photo) (ANI)
কোভিড পরিস্থিতি নিয়ে মুখ্য়মন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী (ANI Photo) (ANI)

ওমিক্রনের পর কোভিডের আরও প্রজাতির জন্য় তৈরি থাকুন, তিনটি বিষয়ে জোর দিলেন মোদী

  • তিনি বলেন, ওমিক্রন নিয়ে প্রাথমিকভাবে সংশয় ছিল। তবে এখন পরিস্থিতিটা অনেকটাই পরিষ্কার। বর্তমানে প্রতিদিন আমেরিকায় ১৪ লাখ করে আক্রান্ত হচ্ছেন ওমিক্রনে।

যে প্রজাতির ভাইরাসই হোক না কেন, আতঙ্কিত হবেন না, লড়াই করার একটাই পথ টিকাকরণ। বৃহস্পতিবার একথা জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এদিন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী রাজ্য়ের মুখ্য়মন্ত্রী ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলির মুখ্য়মন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করেন। মুখ্য়মন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, অতিমারি পরিস্থিতির মোকাবিলায় এনিয়ে তৃতীয় বছর আমরা লড়াই চালাচ্ছি। ভারতের জয় নিশ্চিত। এদিন মোদী তিনটি বিষয়ের উপর মূলত জোর দেন। স্থানীয় স্তরে কনটেইনমেন্ট, ব্যাপক টিকাকরণ, ও সক্রির পদক্ষেপ গ্রহণের কথা উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী। পাশাপাশি এদিন প্রধানমন্ত্রী বিশেষ ধরনের ভেষজ পাণীয় 'কড়া' খাওয়ার উপর জোর দেন। তিনি বলেন, এটা কোনও ওষুধ নয়। তবে ভারতের দীর্ঘদিনের পরীক্ষিত চিরাচরিত একটি বিষয়।

যে প্রজাতির ভাইরাসই হোক না কেন, আতঙ্কিত হবেন না, লড়াই করার একটাই পথ টিকাকরণ। বৃহস্পতিবার একথা জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এদিন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী রাজ্য়ের মুখ্য়মন্ত্রী ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলগুলির মুখ্য়মন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করেন। মুখ্য়মন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী জানিয়েছেন, অতিমারি পরিস্থিতির মোকাবিলায় এনিয়ে তৃতীয় বছর আমরা লড়াই চালাচ্ছি। ভারতের জয় নিশ্চিত। এদিন মোদী তিনটি বিষয়ের উপর মূলত জোর দেন। স্থানীয় স্তরে কনটেইনমেন্ট, ব্যাপক টিকাকরণ, ও সক্রির পদক্ষেপ গ্রহণের কথা উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রী। পাশাপাশি এদিন প্রধানমন্ত্রী বিশেষ ধরনের ভেষজ পাণীয় 'কড়া' খাওয়ার উপর জোর দেন। তিনি বলেন, এটা কোনও ওষুধ নয়। তবে ভারতের দীর্ঘদিনের পরীক্ষিত চিরাচরিত একটি বিষয়।

|#+|

অন্য়দিকে তিনি বলেন, ওমিক্রন নিয়ে প্রাথমিকভাবে সংশয় ছিল। তবে এখন পরিস্থিতিটা অনেকটাই পরিষ্কার। বর্তমানে প্রতিদিন আমেরিকায় ১৪ লাখ করে আক্রান্ত হচ্ছেন ওমিক্রনে। দুবছর ধরে অতিমারির বিরুদ্ধে লড়াই করার অভিজ্ঞতা আমাদের রয়েছে। কোনও পদক্ষেপ নেওয়ার আগে সাধারণ মানুষের কাজকর্মের বিষয়টি আমাদের খেয়াল রাখতে হচ্ছে। তিনি বলেন, সমস্ত ভ্যারিয়ান্টের বিরুদ্ধে আমরা লড়াই করার জন্য প্রস্তুত। ওমিক্রনের এই ঢেউ চলে যাওয়ার পরে, আমাদের অন্য প্রজাতির ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্যও প্রস্তুত থাকতে হবে। রাজ্যগুলিও একে অপরকে সহযোগিতা করবে। 

টিকারকণ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, বলা হচ্ছে ফের সংক্রমণ কেন আটকাতে পারছে না টিকা। কিন্তু এটা আমরা বলছি না টিকাকরণই অতিমারি থেকে বাঁচার একমাত্র পথ। 

 

বন্ধ করুন