বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > মর্মান্তিক লঞ্চডুবি পদ্মাপারে, এখনও পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা ৩০, তদন্ত কমিটি গঠন
যাত্রীবাহী লঞ্চডুবি। স্বজন হারানো কান্না। ছবি সৌজন্য–এএনআই।
যাত্রীবাহী লঞ্চডুবি। স্বজন হারানো কান্না। ছবি সৌজন্য–এএনআই।

মর্মান্তিক লঞ্চডুবি পদ্মাপারে, এখনও পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা ৩০, তদন্ত কমিটি গঠন

  • এই ঘটনায় প্রায় ৩০ জনের মৃত্যু হয়েছে। উদ্ধার হওয়া বেশ কয়েকজনের দেহ পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে।

বাংলাদেশের নারায়ণগঞ্জ শহরের কয়লাঘাট এলাকায় শীতলক্ষ্যা নদীতে কার্গো জাহাজের ধাক্কায় যাত্রীবাহী লঞ্চডুবির ঘটনা ঘটেছে। জাহাজের সঙ্গে ধাক্কা লাগার ফলেই এই ঘটনা ঘটেছে বলে খবর। এই ঘটনায় প্রায় ৩০ জনের মৃত্যু হয়েছে। উদ্ধার হওয়া বেশ কয়েকজনের দেহ পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে। যার মধ্যে অজ্ঞাত পরিচয়ের এক মহিলার দেহ নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের (ভিক্টোরিয়া) মর্গে রাখা হয়েছে।

প্রশাসন সূত্রে খবর, ২৫০ জন যাত্রী নিয়ে একটি লঞ্চ বাংলাদেশের নারায়ণগঞ্জ থেকে মুন্সিগঞ্জের দিকে যাচ্ছিল। রবিবার সন্ধ্যেবেলা লঞ্চটি রওনা দিয়েছিল। লঞ্চটি মদনগঞ্জ এলাকায় শীতলক্ষ্যা নদীর সেতুর কাছাকাছি আসতেই এসকেএল–৩ নামে একটি পণ্যবাহী জাহাজের সঙ্গে তার ধাক্কা লাগে যায়। তার জেরেই ডুবে যায় লঞ্চটি। দুর্ঘটনার পর অনেক যাত্রীই সাঁতরে তীরে উঠলেও অনেকেই এখনও নিখোঁজ। এখনও পর্যন্ত জানা গিয়েছে, ৩০ জনের মৃত্যু হয়েছে।

উপজেলা প্রশাসনের তালিকায় নিখোঁজ রয়েছেন—এমন ২৮ জনের নাম জানা গিয়েছে। নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাহিদা বারিক বলেন, ‘শেষকৃত্যের ‌জন্য ২০ হাজার টাকা করে হস্তান্তর করা হয়েছে নিহতদের পরিবারের কাছে। লঞ্চডুবির ঘটনায় জেলা প্রশাসন অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট খাদিজা তাহেরী–সহ সাত সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। তদন্ত কমিটিতে বিআইডব্লিউটিএ, কোস্টগার্ড, ফায়ার সার্ভিস এবং নৌ পুলিশের প্রতিনিধি এবং সদরের ইউএনওকে রাখা হয়েছে।’‌

বন্ধ করুন