বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > গলায় মালা, বিয়ের সাজে তড়িৎগতিতে মার্শাল আর্ট নববধূর, ভাইরাল ভিডিয়ো
গলায় মালা, বিয়ের সাজে তড়িৎগতিতে মার্শাল আর্ট নববধূর। (ছবি সৌজন্য ভিডিয়ো)
গলায় মালা, বিয়ের সাজে তড়িৎগতিতে মার্শাল আর্ট নববধূর। (ছবি সৌজন্য ভিডিয়ো)

গলায় মালা, বিয়ের সাজে তড়িৎগতিতে মার্শাল আর্ট নববধূর, ভাইরাল ভিডিয়ো

  • নববধূর পারদর্শিতায় মুগ্ধ হয়ে গিয়েছেন নেটিজেনরা।

সদ্য বিয়ে করেছেন। গলায় মালাও আছে। বিয়ের সাজেই তামিলনাড়ুর নিজস্ব মার্শাল আর্টের একের পর এক কসরত দেখিয়ে চলেছেন এক নববধূ। সেই ভিডিয়ো সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে গিয়েছে। নববধূর পারদর্শিতায় মুগ্ধ হয়ে গিয়েছেন নেটিজেনরা।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়া ৩২ সেকেন্ডের সেই ভিডিয়োয় দেখা গিয়েছে, হাতে বেতের মতো কিছু নিয়ে লাগাতার ঘুরিয়ে চলেছেন তামিলনাড়ুর থুথুকুড়ি জেলার বাসিন্দা নিশা। তাতে ঢাকঢোল পিটিয়ে উৎসাহ দিয়ে চলেছেন স্থানীয়ারা। কিছুক্ষণ পর আবার দু'হাতে দুটি লাঠি নিয়ে তড়িৎগতিতে ঘোরাতে থাকেন। সেই সময়ও উচ্ছ্বাসে ফেটে পড়েন স্থানীয়রা। শুধু স্থানীয়রা নন, নিশার পারদর্শিতায় মুগ্ধ হয়েছেন নেটিজেনরাও। এক নেটিজেন লেখেন, ‘সত্যিকারের মহিলা।’ অপর একজন লেখেন, ‘অসাধারণ’। কেউ কেউ আবার বলেন, ‘এটা সচেতনতা নয়, বিয়ের জন্য বরের কী হতে চলেছে, সেই ইঙ্গিত।’ সেই মন্তব্যের পালটাও দিয়েছেন অনেকে।

সংবাদসংস্থা এএনআই জানিয়েছে, গত ২৮ জুন বিয়ে করেছেন নিশা। বিয়ের পর ব্যক্তিগত সময় না কাটিয়ে গ্রামবাসীদের মধ্যে সচেতনতা প্রচারে চলে আসেন যুবতী। ‘সিলামভট্টম’-এ মাতিয়ে তোলেন সকলকে। যা তামিলনাড়ুর একেবারে নিজস্ব মার্শাল আর্টের ধরন। লক্ষ্য ছিল একটাই, আত্মরক্ষা নিয়ে গ্রামবাসীদের মধ্যে সচেতনতার প্রসার। বিশেষত মহিলাদের সচেতন করা। পরে স্বামীর পাশে বসে এএনআইকে নববধূ নিশা বলেন, 'মহিলাদের আত্মরক্ষার গুরুত্ব বোঝাতে বিয়ের পরপরই গ্রামবাসীদের সামনে ঐতিহ্যবাহী মার্শাল আর্ট করেছি আমরা। গত তিন বছর ধরে আমি শিখছি। আমি চাই যে আরও মহিলা সেই মার্শাল আর্টি শিখতে থাকুক।'

বন্ধ করুন