বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > সন্তানদের স্কুলে পাঠিয়ে 'ওয়ার্ক ফ্রম হোমে' পর্ন শুট দম্পতির,উপার্জন ৫ লাখ পাউন্ড
জেস ও মাইক
জেস ও মাইক

সন্তানদের স্কুলে পাঠিয়ে 'ওয়ার্ক ফ্রম হোমে' পর্ন শুট দম্পতির,উপার্জন ৫ লাখ পাউন্ড

  • পর্নোগ্রাফি শুট করে কোটিপতি হল ইংল্যান্ডের দম্পতি।

পর্নোগ্রাফি শুট করে কোটিপতি হল দম্পতি। ইংল্যান্ডের সাউথ এন্ড অন সি-র বাসিন্দা ওই দম্পতি জেস এবং মাইক মিলার গত কয়েক মাসে পর্ন শুট করে ৫ লক্ষ পাউন্ড উপার্জন করে। ভারতীয় মুদ্রায় যা প্রায় ৫ কোটি টাকা। সন্তানদের স্কুলে পাঠিয়ে দিয়ে বাড়িতে 'ওয়ার্ক ফ্রম হোম' চলত দম্পতির।

৩২ বছর বয়সী জেস একজন মেক আপ আর্টিস্ট ছিলেন। এদিকে বিভিন্ন ইভেন্ট বা অনুষ্ঠানে চুক্তি ভিত্তিক সহকারী হিসেবে কাজ করতেন ৩৩ বছর বয়সী মাইক। এই করে তাঁদের হাতে প্রতি মাসে আসত ২ হাজার পাউন্ড। আর এখন প্রাপ্তবয়স্কদের ভিডিয়ো বানিয়ে তাঁদের মাসিক উপার্জন ৩০ হাজার পাউন্ড। এর ফলে গত কয়েক মাসে পাঁচ লক্ষ পাউন্ডেরও বেশি আয় করেছেন দুই জনে। ওই দম্পতি একটি মার্সিডিজ এবং একটি ফিয়াট গাড়ি কিনেছেন সম্প্রতি।

এদিকে জেস ও মাইকের সন্তানরা যেই স্কুলে পড়েন, সেই স্কুলেন অন্যান্য পড়ুয়াদের অভিভাবকরা বিষয়টিকে ভালো চোখে দেখছেন না। জেস অবশ্য জানিয়েছেন, পেশার স্বার্থে যে তাঁরা প্রাপ্তবয়স্কদের ভিডিয়ো বানাচ্ছেন, তা তাঁর সন্তানেরা জানে। জেসের প্রথম পক্ষের স্বামীর ঔরসেই দুই সন্তান। তাদের এক জনের বয়স ৭। অন্যজন ১১। জেস জানিয়েছেন, ছোট সন্তানের এখনও বোঝার বয়স না হলেও তাকে ইঙ্গিত দেওয়া হয়েছে। বড় সন্তান অবশ্য বেশ পরিপক্ক। সে ইঙ্গিত বুঝে নিয়ে মাকে জানিয়েছে, জেস যদি এতে ভালো থাকেন, তবে সে-ও খুশি।

জেস জানিয়েছেন, স্কুলে গেলেই তাঁরা লক্ষ করেন প্রত্যেকে নিজেদের কাজ থামিয়ে তাঁদের দিকে তাকিয়ে আছেন। ওই থমথমে পরিবেশে অস্বস্তি বোধ করছিলেন জেস এবং মাইক। কিন্তু প্রথমটায় পাত্তা দেননি। পরে স্কুলে গেলে চাপা গুঞ্জন ওঠে তাঁদের ঘিরে। এমনকি কোনও কোনও পড়ুয়ার মা জেসকে একান্তে ডেকে জিজ্ঞাসাও করেছেন এই বিষয়ে।

 

বন্ধ করুন