বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > ৪০ বছর পরে চার্লস-ডায়নার বিয়ের কেক বিক্রি প্রায় ২ লাখ টাকায়
চার্লস-ডায়নার বিয়ের কেক বিক্রি প্রায় দুই লাখ টাকায়। (ছবি সৌজন্য, ক্লেয়ার হেহার্স্ট/পিএ ওয়ার/পিকচার অ্যালায়েন্স/ডয়চে ভেলে)
চার্লস-ডায়নার বিয়ের কেক বিক্রি প্রায় দুই লাখ টাকায়। (ছবি সৌজন্য, ক্লেয়ার হেহার্স্ট/পিএ ওয়ার/পিকচার অ্যালায়েন্স/ডয়চে ভেলে)

৪০ বছর পরে চার্লস-ডায়নার বিয়ের কেক বিক্রি প্রায় ২ লাখ টাকায়

  • নিলামে উঠেছিল চার্লস ও ডায়নার বিয়ের সময় তৈরি একটা কেক।

নিলামে উঠেছিল চার্লস ও ডায়নার বিয়ের সময় তৈরি একটা কেক। বিক্রি হল দুই হাজার ৫৫৬ ডলারে (এক লাখ ৯০ হাজার টাকা)।

৪০ বছর আগে প্রিন্স চার্লস ও প্রিন্সেস ডায়নার বিয়েতে তৈরি হয়েছিল এই কেক। কেকের উপরে রাজকীয় প্রতীক রয়েছে। রানির বাড়িতে কাজ করা ময়রা স্মিথ এই কেকটি পেয়েছিলেন। তিনি মারা যাওয়ার পর তাঁর পরিবার তা বিক্রি করেন এক হাজার ডলারে। যিনি কিনেছিলেন, তিনিই এখন তা নিলামে চড়ালেন।

মজার ঘটনা হল, গত ৪০ বছরে টেমস দিয়ে কত জল বয়ে গেছে। কত পরিবর্তন হয়েছে। চার্লস ও ডায়নার ছাড়াছাড়ি, গাড়ি দুর্ঘটনায় ডায়নার মৃত্যু, চার্লসের আবার বিয়ে করা, যুবরাজ হ্যারির রাজপরিবার থেকে আলাদা হয়ে যাওয়ার ঘটনা। কিন্তু বিয়ের কেক অবিকৃত আছে। দেখলে মনে হবে, এখনই কেটে খাওয়া যায়।

নিলামে এই কেক কিনেছেন একজন ব্রিটিশ। তার নাম গেরি লেটন। তিনি নিজেকে বলেন রাজতন্ত্রপন্থি। রাজপরিবারের স্মৃতিবিজড়িত জিনিস সংগ্রহ করতে ভালোবাসেন। কেনার পর তিনি বলেছেন, তার এস্টেটের সংগ্রহশালায় কেকটি যোগ হবে। তার মৃত্যুর পর চ্যারিটির জন্য সংগ্রহশালার সব জিনিস বিক্রি করা হবে। লেটন বলেছেন, ‘কেকটি দেখে তার খেয়ে ফেলতে ইচ্ছে করছে।’

কেকটিকে নিলামে চড়িয়েছে ডমিনিক উইন্টার অকশনিয়ার। তাঁরা আগে থেকে সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, যদিও কেকটি অবিকৃত আছে, তবে কেউ যেন সেটি খেতে না যান। তারা জানিয়েছেন, বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে মানুষ নিলামে অংশ নিয়েছিলেন। নির্ধারিত দামের তিনগুণ দিয়ে কেকটি কিনেছেন লেটন।

বন্ধ করুন