বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > পেট্রোপণ্যে কর কমার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে, ইঙ্গিত মুখ্য অর্থনৈতিক পরামর্শদাতার
অর্থ মন্ত্রকের মুখ্য অর্থনৈতিক পরামর্শদাতা কৃষ্ণমূর্তি সুব্রহ্মণ্যম। ছবি : মিন্ট (MINT_PRINT)
অর্থ মন্ত্রকের মুখ্য অর্থনৈতিক পরামর্শদাতা কৃষ্ণমূর্তি সুব্রহ্মণ্যম। ছবি : মিন্ট (MINT_PRINT)

পেট্রোপণ্যে কর কমার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে, ইঙ্গিত মুখ্য অর্থনৈতিক পরামর্শদাতার

  • তিনি জানান, সূচকে এই করের প্রভাব যত্সামান্য। তাই এটি কমিয়েও সেভাবে মূল্যবৃদ্ধিতে কোনও পরিবর্তন হবে না।

সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছে পেট্রোল। তবে এখনও করের হার হ্রাসের পরিকল্পনা নেই কেন্দ্রের। এমনটাই ইঙ্গিত দিলেন অর্থ মন্ত্রকের মুখ্য অর্থনৈতিক পরামর্শদাতা কৃষ্ণমূর্তি সুব্রহ্মণ্যম। তিনি জানান, সূচকে এই করের প্রভাব যত্সামান্য। তাই এটি কমিয়েও সেভাবে মূল্যবৃদ্ধিতে কোনও পরিবর্তন হবে না।

মঙ্গলবার সাংবাদিক সম্মেলনে কৃষ্ণমূর্তি বলেন, 'জ্বালানি নয়, আমাদের খাদ্যদ্রব্যের মূল্যবৃদ্ধি নিয়ে বেশি মাথা ঘামানো প্রয়োজন।' এর কারণ ব্যাখ্যা করতে গিয়ে তিনি বলেন, 'গত ৬-৭ বছরের পরিসংখ্যান ঘাঁটলে দেখা যাবে, মোট রিটেইল মূল্যবৃদ্ধির ৩৫-৬০%-ই আসছে খাদ্যদ্রব্যের থেকে।'

তাহলে কি পেট্রোল-ডিজেলে কর কমানোর কথা একেবারেই ভাবা হচ্ছে না? এর উত্তরে তিনি জানান, 'আমরা যদি মূল্যবৃদ্ধির দিক দিয়ে ভাবি, সেক্ষেত্রে দেশের সার্বিক মূল্যবৃদ্ধির ক্ষেত্রে পেট্রোপণ্যের প্রভাব কতটা দেখতে হবে। প্রতিটা দিক খতিয়ে সেই তথ্য বিশ্লেষণ করে তবেই আমাদের এই নিয়ে আলোচনা করা উচিত্।'

কৃষ্ণমূর্তি বলেন, পেট্রোপণ্যের দাম বৃদ্ধি শুধু করের ফলে নয়। গত বছর আন্তর্জাতিক বাজারে এক ব্যারেল ক্রুড অয়েলের দাম ছিল ৩০ ডলার। এখন সেটা কিনতে ব্যারেল প্রতি ৭৮ ডলার খরচ করতে হচ্ছে। অর্থাত্ এক বছরেই দ্বিগুণ দাম হয়েছে।

তেল সরবরাহকারী সংস্থাগুলি ক্রমাগত দাম বৃদ্ধি করার ফলেই পেট্রোপণ্যের দামে প্রভাব পড়ছে বলে জানান তিনি। এর ফলে দেশে যাতায়াত, মাল সরবরাহ ইত্যাদি ক্ষেত্রেও খরচ বাড়ছে বলে জানান তিনি। আর সেই প্রভাব যে প্রায় সব বস্তুর দামেই পড়ছে, তা বলাই বাহুল্য।

বন্ধ করুন