বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > কোভিশিল্ডের প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজের মধ্যে ব্যবধান বাড়ানোর নির্দেশ কেন্দ্রের
কোভিশল্ড নেওয়ার পর বিশ্রাম নিচ্ছেন নাগরিকরা (REUTERS)
কোভিশল্ড নেওয়ার পর বিশ্রাম নিচ্ছেন নাগরিকরা (REUTERS)

কোভিশিল্ডের প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজের মধ্যে ব্যবধান বাড়ানোর নির্দেশ কেন্দ্রের

  • এর আগে মহারাষ্ট্র সরকারের তরফে কেন্দ্রের কাছে চিঠি লিখে আর্জি জানানো হয়েছিল, কোভিশিল্ডের প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজের মধ্যে সময়সীমা যেন বাড়ানো হয়

করোনার ভ্যাকসিন কোভিশিল্ডের প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজের মধ্যে ব্যবধান বাড়ানোর নির্দেশ দিল কেন্দ্র। কেন্দ্রের তরফে সব রাজ্য ও কেন্দ্রীয় শাসিত এলাকার প্রশাসনকে এই বিষয়ে চিঠি পাঠানো হয়েছে। সম্প্রতি দেশের কিছু জায়গায় ভ্যাকসিনের দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার পর ফের করোনা আক্রান্ত হওয়ার খবর মেলে ।এরপর বিশেষজ্ঞরা নিজেদের মধ্যে আলোচনায় বসেন। আলোচনার পরই ভ্যাকসিনের প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজের মধ্যে ব্যবধানের সময়সীমা বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

এদিন ন্যাশনাল টেকনিক্যাল অ্যাডভাইসারি গ্রুপ ও ভ্যাকসিন দেওয়ার ব্যাপারে বিশেষজ্ঞদের একটি প্রতিনিধি দল বৈঠকে বসে। আগে করোনার কোভশিল্ডের ক্ষেত্রে প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজের মধ্যে ব্যবধানের সময়সীমা ছিল ৪ থেকে ৬ সপ্তাহ। এদিনের বৈঠকে সেই সময়সীমা বাড়িয়ে করা হয়েছে ৪ থেকে ৮ সপ্তাহ। তবে বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছে, এটা কেবলমাত্র কোভিশিল্ডের ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য। কোভ্যাকসিনের জন্য নয়।বিশেষজ্ঞদের মত অনুযায়ী, পরীক্ষা নিরিক্ষার করে দেখা গেছে, প্রথম ডোজ নেওয়ার ৬ থেকে ৮ সপ্তাহের মধ্যে দ্বিতীয় ডোজ নিলে পরবর্তীকালে করোনায় আক্রান্ত হওয়ার প্রবণতা কম। তবে বিশেষজ্ঞরা এও জানিয়ে দিয়েছে, দ্বিতীয় ডোজ নেওয়ার সময়সীমা যেন প্রথম ডোজের থেকে ৮ সপ্তাহ পেরিয়ে না যায়।

এর আগে মহারাষ্ট্র সরকারের তরফে কেন্দ্রের কাছে চিঠি লিখে আর্জি জানানো হয়েছিল, কোভিশিল্ডের প্রথম ও দ্বিতীয় ডোজেক মধ্যে সময়সীমা যেন বাড়ানো হয়। এরপরই কেন্দ্রের এই সিদ্ধান্ত খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

বন্ধ করুন