বাংলা নিউজ > ঘরে বাইরে > বায়ুদূষণ নিয়ন্ত্রণে কলকাতা-আসানসোলে ২০৯.৫ কোটি টাকা বরাদ্দ কেন্দ্রের
বায়ুদূষণ নিয়ন্ত্রণে কলকাতা-আসানসোলে ২০৯.৫ কোটি টাকা বরাদ্দ কেন্দ্রের (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

বায়ুদূষণ নিয়ন্ত্রণে কলকাতা-আসানসোলে ২০৯.৫ কোটি টাকা বরাদ্দ কেন্দ্রের

  • কেন্দ্রের তরফে জানানো হয়েছে, নির্দিষ্ট সময়সীমার মধ্যে সেই টাকা বণ্টন করতে না পারলে সুদ গুণতে হবে রাজ্যগুলিকে।

বায়ুদূষণ নিয়ন্ত্রণের জন্য পশ্চিমবঙ্গ-সহ ১৫ রাজ্যকে ২,২০০ কোটি টাকা বরাদ্দ করল কেন্দ্র। সংশ্লিষ্ট রাজ্যগুলির ১০ লাখের বেশি জনসংখ্যা-বিশিষ্ট শহরে বায়ুর মান উন্নয়নের প্রথম দফায় সেই অর্থ দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন।

তাঁর দাবি, সেই অর্থের মাধ্যমে বায়ুদূষণ নিয়ন্ত্রণ করার ক্ষেত্রে উপযুক্ত পদক্ষেপ করতে পারবে সংশ্লিষ্ট রাজ্যগুলি। ১০ লাখের বেশি জনসংখ্যা-বিশিষ্ট শহরের পুরসভার পরিকাঠামো গড়ে তোলার ক্ষেত্রেও সেই অর্থ খরচ করা যাবে। ১৫ তম অর্থ কমিশনের সুপারিশ মতো সেই টাকা দেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন সীতারামন।

কেন্দ্রের তালিকা অনুযায়ী, পশ্চিমবঙ্গ-সহ অন্ধ্রপ্রদেশ, বিহার, ছত্তিশগড়, গুজরাত, হরিয়ানা, ঝাড়খণ্ড, কর্নাটক, মধ্যপ্রদেশ, মহারাষ্ট্র, পঞ্জাব, রাজস্থান, তামিলনাড়ু, তেলাঙ্গানা, উত্তরপ্রদেশের ৪২ টি শহরকে সেই অনুদান দেওয়া হয়েছে। প্রথম দফায় বাংলাকে সর্বমোট ২০৯.৫ কোটি টাকা দেওয়া হয়েছে। তার মধ্যে ১৯২.৫ কোটি টাকা পেয়েছে কলকাতা। ১৭.৫ কোটি টাকা দেওয়া হয়েছে আসানসোলকে।

অর্থ মন্ত্রকের তরফে বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, কোনও কাটছাঁট ছাড়াই রাজ্যের অর্থ দফতরকে সরাসরি সংশ্লিষ্ট পুরসভাকে সেই অর্থ পাঠাতে হবে। আর তা করতে হবে কেন্দ্রের থেকে টাকা পাওয়ার ১০ দিনের (কর্মদিবস) মধ্যে। সেই নির্দিষ্ট সময়সীমা পূরণ করতে ব্যর্থ হলে রাজ্যকে টাকা ফেরত তো দিতেই হবে। একইসঙ্গে গত আর্থিক বছরের নির্ধারিত হারে সুদও গুণতে হবে।

একইসঙ্গে কেন্দ্র জানিয়েছে, শহরের কোনও প্রশাসনিক সংস্থাকে নোডাল এজেন্সি হিসেবে নিযুক্ত করতে হবে। তারাই সেই অনুদান পাবে। পাশাপাশি পুরো শহরে বায়ুদূষণ নিয়ন্ত্রণের দায়ভারও থাকবে তাদের উপর। বায়ুদূষণের মাত্রা কম রাখতে রাজ্য দূষণ নিয়ন্ত্রণ পর্ষদকেও সহায়তা করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

বন্ধ করুন